রক্ত দিয়ে ভ্যালেন্টাইনস ডে পালন করলেন হাসপাতাল সুপার

রক্ত দিয়ে ভ্যালেন্টাইনস ডে পালন করলেন হাসপাতাল সুপার
সংগৃ্হীত ছবি

গোলাপ নয়। চকোলেট নয়। প্রেমের প্রকাশ পেল ব্লাড ব্যাঙ্কের বেডে।

  • Share this:

#বসিরহাট: গোলাপ নয়। চকোলেট নয়। প্রেমের প্রকাশ পেল ব্লাড ব্যাঙ্কের বেডে। সংস্কৃতে স্নাতকোত্তর পাশ প্রেমিকাকে সারপ্রাইজ দিতে নিজের প্রতিষ্ঠানকেই বেছে নিলেন বারাসত জেলা হাসপাতালের অ্যাসিস্ট্যান্ট সুপার আকাশ মজুমদার।

আগামী কয়েকমাসের মধ্যেই বসিরহাটের বাসিন্দা আকাশ তাঁর প্রেমিকাকে বিয়ে করবেন। ১৩ ফেব্রুয়ারি প্রেমিকাকে ফোনে প্রথম চমকটা দেন আকাশ। জানান, এবার গোলাপ, চকোলেট, টেডি বিয়ার অথবা পোষাক উপহার নয়। কিছুটা অন্যভাবে ভালবাসার দিনটি উদযাপন করতে চান তিনি। ঠিক হয়, রক্তদান করবেন তাঁরা।

আকাশ বলেন, "পেশার কারনেই দেখেছি, এক বোতল রক্ত কিভাবে মানুষকে বাঁচিয়ে দেয়। প্রতি মাসে শুধুমাত্র বারাসত জেলা হাসপাতালে ১৭৩ জন থ্যালাসেমিয়া আক্রান্ত রোগী রক্ত দিতে আসেন। তাই, তাঁদের মতো মুমূর্ষদের কথা ভেবে ভালবাসার দিনকেই বেছে নিয়েছি। তাই আমাদের দেওয়া রক্তে যদি একটা প্রাণও বাঁচে, সেটাই অনেক। সেটাই এ সেরা উপহার।"

প্রেমিকা জানিয়েছেন, আকাশ বলেন, 'তুমি, আমি চকলেট জীবনে অনেক খেতে পারব। তাই এবারে অন্যভাবে পালন করব।' প্রেমিকাই তখন বলেন, "আগামীকাল হাসপাতালে রক্তদান করে তোমার আমার প্রেমকে স্মরনীয় করব।" সেই মতো ভ্যালেন্টাইনস ডে'র সকালে নিজের কর্মস্থলে রক্তদান করেন যুগলে। হাসপাতালের বেডে শুয়ে আকাশ জানায়, বারাসত জেলা হাসপাতালের সুপার সুব্রত মন্ডল জানান হাসপাতালেও প্রেমের দিন পালন করা হবে হাসপাতালে। থ্যালাসেমিয়া আক্রান্ত রোগীদের হাতে তুলে দেওয়া হবে গোলাপ ও চকলেট। তবে সহকর্মীর প্রেমের দিবসে রক্তদানকে প্রকৃত প্রেমের প্রকাশ বলেই মনে করেন তিনি।

First published: February 14, 2020, 9:06 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर