Chandana Bauri : 'বিয়ের অভিযোগ' ঘিরে অশান্তির জের? হাসপাতালে BJP বিধায়ক চন্দনা বাউরির গাড়ির চালক...

চন্দনা বাউরি ও তাঁর চালক কৃষ্ণ কুণ্ডু

Chandana Bauri : সম্প্রতি শালতোড়ের বিজেপি বিধায়ক চন্দনা বাউরির(Chandana Bauri) 'দ্বিতীয় বিয়ের' অভিযোগকে কেন্দ্র করে হুলুস্থুলু পরে যায় রাজ্য-রাজনীতিতে।

  • Share this:

    #বাঁকুড়া : গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হল চন্দনা বাউরির (Chandana Bauri)  গাড়ির চালক কৃষ্ণ কুণ্ডুকে। শনিবার সন্ধেয় তাঁকে ভরতি করা হয়েছে বাঁকুড়া মেডিক্যাল কলেজে। ওই যুবকের স্ত্রীর দাবি, চন্দনা কাণ্ডে টানাপোড়েনের জেরেই অসুস্থ হয়ে পড়েছেন কৃষ্ণ। এদিকে বুধবারের 'বিয়ে' বিতর্কের পর থেকেই নিজেকে কার্যত ঘরবন্দি করে রেখেছেন চন্দনা।

    সম্প্রতি শালতোড়ের বিজেপি বিধায়ক চন্দনা বাউরির(Chandana Bauri) 'বিয়ের অভিযোগকে' কেন্দ্র করে হুলুস্থুলু পরে যায় রাজ্য-রাজনীতিতে। স্বামী ও সন্তানকে ছেড়ে নিজেরই গাড়ির চালক তথা দলীয় কর্মীকে বিয়ে করার অভিযোগ ওঠে তাঁর বিরুদ্ধে। অভিযোগ, বাঁকুড়ার গঙ্গাজলঘাটি থানা এলাকার দেউলি মন্দিরে বিয়ে করে নিরাপত্তা চেয়ে স্থানীয় থানায় হাজির হন চন্দনা বাউরি ও তাঁর গাড়ির চালক তথা বিজেপি কর্মী কৃষ্ণ কুন্ডু। অন্যদিকে চন্দনা বাউড়ির গাড়ি চালকের স্ত্রীও দাবি করেন, তাঁর স্বামী কৃষ্ণ কুণ্ডুকে বিয়ে করেছেন চন্দনা। ঘটনার জল গড়ায় থানা পর্যন্ত। যদিও এই অভিযোগ ভিত্তিহীন বলেই দাবি করেছিলেন বিধায়ক। ফেসবুক লাইভ করে গোটা ঘটনাটিকে কুৎসা বলে দাবি করেন বিধায়ক চন্দনা বাউরি।

    অভিযোগ, ওই ঘটনার জেরেই চরম অশান্তির কারণেই গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন কৃষ্ণ কুণ্ডু। শনিবার সন্ধ্যা নাগাদ তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় বাঁকুড়া সম্মিলনী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। এদিন হাসপাতালে স্বামীর পাশে ছিলেন কৃষ্ণর স্ত্রী রুম্পা কুণ্ডু। রুম্পাদেবীর কথায়, “আমার স্বামীকে বিয়ে করার পর এখন অস্বীকার করছেন চন্দনা। তা নিয়ে অশান্তির জেরে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছেন আমার স্বামী।” এই রুম্পাদেবীই স্থানীয় গঙ্গাজলঘাঁটি থানায় বিজেপি বিধায়ক চন্দনা বাউরির বিরুদ্ধে বিবাহিত জেনেও তাঁর স্বামীকে বিয়ে করার অভিযোগ করেছিলেন।

    ওইদিনের ঘটনার পর থেকেই নিজেকে ঘরবন্দি করে রেখেছেন চন্দনা বাউরি। চন্দনাদেবীর স্বামী শ্রাবণ বাউড়ি বলছেন, “তৃণমূল কংগ্রেসের সঙ্গে যোগসাজশ করেই এই ঘটনাটি ঘটিয়েছে কৃষ্ণ।” উল্লেখ্য, বিজেপির সক্রিয় কর্মী হিসাবেই এলাকায় পরিচিত কৃষ্ণ কুণ্ডু। স্থানীয় সূত্রের খবর, বিধানসভা নির্বাচনে দলীয় প্রার্থী হওয়ার সময় থেকেই চন্দনাদেবীকে নিজের গাড়ি করে বিভিন্ন জায়গায় নিয়ে যাওয়া-আসা করতেন কৃষ্ণ। সম্প্রতি কৃষ্ণর সঙ্গে ঘনিষ্ঠতার কারণে স্বামী শ্রাবণের সঙ্গে দূরত্ব বাড়তে শুরু করে চন্দনার। গত বুধবার রাতে স্থানীয় একটি মন্দিরে তাঁরা ‘বিবাহ বন্ধনে’ আবদ্ধ হন বলেও অভিযোগ। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে তাঁদের বিয়ের ছবিও।

    প্রসঙ্গত, সদ্য শেষ হওয়া বিধানসভা নির্বাচনে বাঁকুড়ার শালতোড়া বিধানসভায় বিজেপির প্রার্থী হন গঙ্গাজলঘাটি ব্লকের কিলাই গ্রামের গৃহবধূ চন্দনা বাউরি। চন্দনার স্বামী শ্রাবণ বাউরি পেশায় রাজমিস্ত্রি। স্ত্রী চন্দনা বাউরি প্রার্থী হওয়ার পর থেকেই সংবাদ মাধ্যমের লাইমলাইটে ছিলেন । বিধায়ক হওয়ার পরেও বারবার শিরোনামে উঠে এসেছেন তিনি। গত বুধবার রাত থেকে তিনিই জড়িয়ে পড়লেন নতুন বিতর্কে।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: