দক্ষিণবঙ্গ

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

করোনা মোকাবিলায় মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে ১ মাসের বেতন দান করলেন পুলিশ কর্মী!

করোনা মোকাবিলায় মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে ১ মাসের বেতন দান করলেন পুলিশ কর্মী!

এক মাসের বেতন দান করলেন পুলিশ কর্মী বিনয় ঘোষ।

  • Share this:

#শক্তিগড়: এক মাসের বেতন দান করলেন পুলিশ কর্মী বিনয় ঘোষ। শক্তিগড় থানার এক সাব ইন্সপেক্টর নিজের পুরো মাসের বেতনটাই দিয়ে দিলেন মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে। অর্থের প্রয়োজন সকলেরই। তিনি যে বেতন পান তাতে তাঁর সংসার ডাল ভাত খেয়ে চলে যায়। কিন্তু করোনা ঠেকাতে লক ডাউনের জেরে কাজ হারিয়েছেন অনেকেই। অনেকে দুবেলা দুমুঠো খেতে পাচ্ছেন না। তাই পুরো বেতনটাই চেক আকারে তুলে দিলেন সিনিয়র অফিসারের হাতে। বললেন, অনেকেই খুব সমস্যার মধ্যে আছেন। আমি আমার বেতনের পঁয়ত্রিশ হাজার একশো আট টাকার পুরোটাই তুলে দিলাম। আশা করি অনুপ্রাণিত হয়ে আরও অনেকেই এগিয়ে আসবেন।

করোনা যুদ্ধে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের পাশাপাশি মাঠে ময়দানে লড়াইয়ে সামিল পুলিশ বাহিনীও। আইন শৃঙ্খলা সামলেও নানাভাবে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে তারাও এখন করোনা হিরো। তবে শুধু করোনা যুদ্ধে লড়াই নয় সেই লড়াইকে আরও মজবুত করতে এবার মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন এই পুলিশ কর্মী।

পূর্ব বর্ধমানের শক্তিগড় থানায় পোস্টিংয়ে থাকা এসআই বিনয় ঘোষ তাঁর এক মাসের বেতনের সব টাকাটাই মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে দান করলেন। সোমবার তিনি জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কল্যাণ সিনহা রায়ের হাতে চেক তুলে দেন। তাঁর পরিবার রয়েছে। স্ত্রী ছাড়াও রয়েছে স্কুল পড়ুয়া ছেলে। তবু এই সিদ্ধান্ত নিতে দু’বার ভাবেননি তিনি। বিনয়বাবু ২০০১ সালে পুলিশ বাহিনীতে যোগ দেন। তাঁর প্রথম পোস্টিং ছিল বর্ধমান পুলিশ লাইনে। এরপর তিনি দুর্গাপুরে র‍্যাফে যোগদান করেন। তারপর তিনি চলে যান বাঁকুড়া জেলায়। সেখানে তিনি সিপিআইএমের জেলা সম্পাদক তথা বর্তমানে দলের রাজ্য নেতা অমিয় পাত্রের নিরাপত্তারক্ষীর দায়িত্বে ছিলেন। চলতি বছরের জুলাই মাসে তিনি শক্তিগড় থানায় এসআই পদে যোগদান করেন। তাঁর এই কাজে সহকর্মীদের পাশাপাশি জেলা পুলিশ মহল গর্বিত।

Published by: Akash Misra
First published: May 5, 2020, 2:15 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर