রক্ষকই ভক্ষক? পুরুলিয়ায় দেদার বালি চুরি চলছে প্রশাসনের চোখের সামনেই

রক্ষকই ভক্ষক? পুরুলিয়ায় দেদার বালি চুরি চলছে প্রশাসনের চোখের সামনেই
  • Share this:

#পুরুলিয়া: সর্ষের মধ্যেই ভূত। বালি চুরিতে রাশ টানতে পারছেনা পুরুলিয়া জেলা প্রশাসন। বর্ষার মরশুমে নদী থেকে তিনমাস বালি তোলার নিষেধাজ্ঞাকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে অবাধে চলছে বালি চুরি। নিউজ 18 বাংলার ক্যামেরায় ধরা পড়েছে সেই ছবি।

না না করিয়ে দেব। ওটা কোনও ব্যাপার নয়। পুলিশ কেস নয়, গাড়িওয়ালাদের ধরবে, আপনাদের কিছু নয় ।

নিউজ 18 বাংলার প্রতিনিধি খদ্দের সেজে বালি কিনতে যান পুরুলিয়ার কাঁসাই নদীর ডাবর বলরামপুর ঘাটে। বিলাস নামে ওই বালি মাফিয়ার দাবি, ট্রাক্টর-পিছু বালির দাম পঁচিশশো টাকা । কারণ এই টাকার একটা অংশ দিতে হয় প্রশাসনের বিভিন্ন লোকজনকে। ট্রাক্টর-পিছু ন'শো টাকা 'রয়্যালটি' দিতে হয় বিএলআরও-কে। বালি-চুরি নিয়ে ভূরি ভূরি অভিযোগ পেয়ে তৎপর হয় জেলা প্রশাসন। বর্ষায় সময়ে তিনমাস নদী থেকে বালি তোলায় নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। তবু চুরি আটকানো যায়নি।

আমাদের প্রতিনিধির কাছে ঘটনা জেনে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দেন জেলাশাসক। নদীর বিভিন্ন ঘাটে সিসিটিভি নজরদারি শুরু করতে চলেছে জেলা প্রশাসন। কিন্তু রক্ষক-ই ভক্ষক হলে অপরাধ বন্ধ করা কী আদৌ সম্ভব?

First published: October 18, 2019, 11:18 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर