• Home
  • »
  • News
  • »
  • north-bengal
  • »
  • মাথাভাঙার পর গোপালপুর, ফের পরিচিত যুবকের হাতে ধর্ষিত কিশোরী

মাথাভাঙার পর গোপালপুর, ফের পরিচিত যুবকের হাতে ধর্ষিত কিশোরী

দ্বাদশ শ্রেনীর এক ছাত্রীকে( ১৭) ধর্ষণের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল কোচবিহারের গোপালপুরে। গত সোমবার সন্ধ্যায় গোপালপুর থেকে কিছুটা দূরে রসমতির জঙ্গলে ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ।

দ্বাদশ শ্রেনীর এক ছাত্রীকে( ১৭) ধর্ষণের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল কোচবিহারের গোপালপুরে। গত সোমবার সন্ধ্যায় গোপালপুর থেকে কিছুটা দূরে রসমতির জঙ্গলে ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ।

দ্বাদশ শ্রেনীর এক ছাত্রীকে( ১৭) ধর্ষণের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল কোচবিহারের গোপালপুরে। গত সোমবার সন্ধ্যায় গোপালপুর থেকে কিছুটা দূরে রসমতির জঙ্গলে ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ।

  • Pradesh18
  • Last Updated :
  • Share this:

    #কোচবিহার: দ্বাদশ শ্রেনীর এক ছাত্রীকে( ১৭) ধর্ষণের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল কোচবিহারের গোপালপুরে। গত সোমবার সন্ধ্যায় গোপালপুর থেকে কিছুটা দূরে রসমতির জঙ্গলে ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ। প্রথমে ভয়ে বছর সতেরোর ওই কিশোরী কাউকে কিছু জানায়নি ৷ কিন্তু পরে নির্যাতিতা অসুস্থ হয়ে পড়লে ধর্ষণের ঘটনাটি জানাজানি হয় ৷ পাশাপাশি কোতয়ালি থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়।

    পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত সোমবার বিকেলে ওই ছাত্রী টিউশন পড়ার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়। হঠাতই প্রতিবেশী যুবক অমর দাশ মোটরবাইক নিয়ে তার রাস্তা আটকে দাঁড়ায়। এরপর ওই কিশোরীকে বাইকে তুলে নিয়ে গিয়ে তাকে চাউমিন খাওয়ায় ৷ তারপর তাকে তুলে রসমতির জঙ্গলে নিয়ে যায়।

    অভিযোগ, চাউমিনে ওষুধ মেশানো থাকায় কিছুক্ষণের মধ্যেই মেয়েটি অচৈতন্য হয়ে পড়ে ৷ নির্যাতিতার অচৈতন্যতার সুযোগ নিয়ে অভিযুক্ত অমর দাস তাকে ধর্ষণ করে। অভিযুক্তের সঙ্গে তাঁর আরেক বন্ধুও ছিল। এরপর রাতে অচৈতন্য নির্যাতিতাকে বাড়ির পাশে ফেলে রেখে চলে যায়। বাড়ির লোকেরা জানতে চাইলেও নির্যাতিতা ভয়ে তখন কিছু বলতে চায়নি। এরপর বৃহস্পতিবার সে অসুস্থ হয়ে পড়লে পরিবারের সদস্যরা গোটা ঘটনাটি জানতে পারে।

    নির্যাতিতাকে হাসপাতালে ভর্তির পাশাপাশি পুলিশে অভিযোগ দায়ের করা হয়। পুলিশ জানিয়েছে, অভিযুক্তের সন্ধানে তল্লাশি শুরু হয়েছে। মাথাভাঙার পর কোচবিহারের গোপালপুরে পরিচিত যুবকের হাতে ধর্ষণের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ।

    First published: