মালদহের মহদিপুর সীমান্তে বন্ধ হল রফতানি, আর্থিক ক্ষতি সত্বেও সহমত ব্যবসায়ীরা

মালদহের মহদিপুর সীমান্তে বন্ধ হল রফতানি, আর্থিক ক্ষতি সত্বেও সহমত ব্যবসায়ীরা

ক্ষতি স্বীকার করেও সিদ্ধান্ত ব্যবসায়ীদের

  • Share this:

#মালদহ: মালদহে বন্ধ হয়ে গেল মহদিপুর সীমান্ত। মঙ্গলবার থেকে মহদিপুর দিয়ে ভারত বাংলাদেশ সীমান্ত দিয়ে আন্তজার্তিক বানিজ্য বন্ধ করে  দেওয়া হয়েছে। এই অবস্থায় সীমান্তে আটকে রয়েছে শতাধিক পন্যবাহী ট্রাক। ফলে মোটা অঙ্কের আর্থিক লোকসানের সম্ভবনা।  করোনা পরিস্থিতিতে আপাতত আগামী ২৭ মার্চ পর্যন্ত মহদিপুর সীমান্ত দিয়ে সবরকম বানিজ্য বন্ধ থাকবে।

এরআগে সোমবারই রফতানিকারক একাধিক সংস্থার সঙ্গে শুল্ক দফতর কর্তৃপক্ষের বৈঠক হয়। এরপর সোমবারই পচনশীল পন্যবহনকারী শতাধিক ট্রাককে অগ্রাধিকার দিয়ে বাংলাদেশ পাঠানো হয়। তবে পাথর সহ যেসব পন্য এখনই নষ্ট হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা নেই, সেইসব পন্যবাহী গাড়ি সীমান্তে আটকে রয়েছে।  মহদীপুর এক্সপোর্টার অ্যাসোসিয়েশনের কার্যকরী সভাপতি ফজুলল হক বলেন, করোনা ভাইরাসের সর্তকতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে আমদানী রপ্তানী বানিজ্য বন্ধের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করে সময়সীমা আরও বাড়তে পারে।  রাজ্যে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ন স্থল বন্দর মহদীপুর। বছরে প্রায় চার হাজার কোটি টাকার আমদানি ও রপ্তানী বানিজ্য হয় এই সীমান্ত দিয়ে। ভারত থেকে বাংলাদেশে যায় বিভিন্ন রকমের ফল, পেঁয়াজ এবং পাথর। প্রতিদিন গড়ে ২০০-র বেশী ট্রাক যায় বাংলাদেশে।

সীমান্ত বানিজ্য বন্ধ হওয়ার পাশাপাশি যেসব ভারতীয় গাড়ি  চালক এবং খালাসী মালপত্র নিয়ে বাংলাদেশে গিয়েছিলেন মঙ্গলবার তাঁরা দেশে ফিরতেই সীমান্তে থার্মাল চেকিং করা হয়। রপ্তানী ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন, সীমান্ত  বন্ধ হয়ে যাওয়ায় আটকে যাওয়া গাড়ি গুলিতে প্রতিদিন ডিটেনশন চার্জ বাবাদ লোকসান হবে। তবুও পরিস্থিতি বিবেচনা করে এক্সপোর্ট বন্ধ রাখার সরকারি  সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানানো হয়েছে।

Sebak DebSarma

First published: March 24, 2020, 2:55 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर