• Home
  • »
  • News
  • »
  • north-bengal
  • »
  • COVID WARRIORS IN TROUBLE AS THEIR CONTRACTS HAVE NOT BEEN RENEWED IN ALIPURDUAR ARC

Covid Warrior : কাজের চুক্তির মেয়াদ বাড়েনি, সমস্যায় আলিপুরদুয়ার জেলার ২৪০ জন কোভিডযোদ্ধা

বিভিন্ন জেলায় স্বাস্থ্য দফতরে কাজ করা কোভিড যোদ্ধারা সমস্যায় পড়েছেন

বিভিন্ন জেলায় স্বাস্থ্য দফতরে কাজ করা কোভিড যোদ্ধারা (Covid Warrios ) সমস্যায় পড়েছেন।

  • Share this:

    আলিপুরদুয়ার : জানা গিয়েছে ৩১ অগাস্টের পর রাজ্যের সব জেলাতেই কোভিড যোদ্ধাদের কাজের চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়ে গিয়েছে। এর পর আর মেয়াদ বাড়ানো হয়নি। তার জেরে বিভিন্ন জেলায় স্বাস্থ্য দফতরে কাজ করা কোভিড যোদ্ধারা সমস্যায় পড়েছেন।

    সমস্যা সমাধানের দাবিতে শুক্রবার আলিপুরদুয়ারের জেলাশাসকের কাছে স্মারক লিপি দেন আলিপুরদুয়ার জেলার কোভিডযোদ্ধারা । এ দিন জেলাশাসকের দফতর ডুয়ার্স কন্যার সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন কোভিডযোদ্ধারা । তাঁদের মধ্যে সুকল্যাণ পালিত বলেন, " আমাদের কাজের চুক্তির মেয়াদ ৩১ অগাস্ট পর্যন্ত ছিল। তার পর এই মেয়াদ বাড়ান হয়নি। যাঁরা কলকাতায় গিয়েছেন তাঁদেরও মোবাইল মেসেজের মাধ্যমে কাজে যোগ দিতে না বলে দেওয়া হয়েছে। এ ভাবে আচমকা কাজ বন্ধ করে দিলে চলবে কী ভাবে? আমরা চাই আমাদের কাজের মেয়াদ দ্রুত বাড়ান হোক । আমরা জেলাশাসকের কাছে স্মারকলিপি দিয়েছি । তাঁর সঙ্গে দেখা করেও সমস্যার কথা তুলে ধরব ।"

    আর এক কোভিডযোদ্ধা কনীনিকা সরকার বলেন, " আমাদের চুক্তির মেয়াদ বাড়ান হয়নি । এর মাঝেই আবার কয়েক জন ভাউচার দিয়ে কাজ করছেন । এমন কেন হবে ? যা হবে সকলের ক্ষেত্রে সমান হবে । একজন কাজ করতে পারবে আরেক জন কাজ করতে পারবে না, এটা হতে পারে না। যা হবে সকলের জন্যই একরকম হবে। আমাদের কাজের মেয়াদ বাড়ান হক।"

    বিষয়টি নিয়ে আলিপুরদুয়ার জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক গিরিশচন্দ্র বেরা বলেন,  " রাজ্যের সব জেলাতেই কোভিড যোদ্ধাদের কাজের মেয়াদ বাড়ান হয়নি। এই বিষয়ে ঊর্ধ্বতন কতৃপক্ষের নির্দেশই চূড়ান্ত । যেমন নির্দেশ আসবে তেমন করা হবে। এই বিষয়ে জেলাস্তরে কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় না।"

    প্রতি তিনমাস অন্তর কোভিডযোদ্ধাদের কাজের মেয়াদ বাড়ান হয়।  সম্প্রতি ৩১ অগাস্টের পর তাঁদের কাজের মেয়াদ না বাড়ানয় সমস্যা তৈরি হয়েছে।

    (প্রতিবেদন : রাজকুমার কর্মকার)
    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published: