নিমতিতা বিস্ফোরণ কান্ডের পর রঘুনাথগঞ্জে ফিরলেন জাকির হোসেন

নিমতিতা বিস্ফোরণ কান্ডের পর রঘুনাথগঞ্জে ফিরলেন জাকির হোসেন

তাঁর দাবি, যাঁরা দুর্ঘটনায় জখম হয়েছেন তাঁদেরকে রেলে চাকরি দেওয়া হোক।

তাঁর দাবি, যাঁরা দুর্ঘটনায় জখম হয়েছেন তাঁদেরকে রেলে চাকরি দেওয়া হোক।

  • Share this:

#রঘুনাথগঞ্জ: নিমতিতা বিস্ফোরণ কান্ডের পর রঘুনাথগঞ্জে ফিরে আসেন  রাজ্যের শ্রম দফতরের রাষ্ট্রমন্ত্রী জাকির হোসেন । জঙ্গীপুর বিধানসভা কেন্দ্র থেকে তিনি এবার বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূলের হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। রবিবার হেলিকপ্টার করে তিনি এসে পৌঁছান।  তাঁর দাবি, যাঁরা দুর্ঘটনায় জখম হয়েছেন তাঁদেরকে রেলে চাকরি দেওয়া হোক। কেন্দ্র ও রাজ্য মিলে তদন্ত করছেন আমি কৃতজ্ঞ , তবে যাঁরা নিরপরাধ তাঁরা যেন শাস্তি না পায়, যারা এই ঘটনার সাথে যুক্ত তাদেরকে চিহ্নিত করে উপযুক্ত শাস্তি দেওয়া হোক, দাবি জাকির হোসেনের। মুর্শিদাবাদ জেলা বাসী শান্তি চায়৷ কে মেরেছে জানতে পারছে এবং যে মেরেছে তাকে বারবার এনআইএ ডাকছে। ইমানি বিশ্বাসকে রবিবার এনআইএ তলব করেছে সেই প্রসঙ্গে জাকির হোসেন বলেন, নিশ্চই কিছু আছে, তাই সাজা পাওয়া উচিত। আরও অনেক লোক রয়েছে, তাদের কে না ডেকে তাকেই কেন ডাকা হচ্ছে। এবং এই ঘটনার সঙ্গে যারা জড়িত তাদের শাস্তি হোক। বলছেন আহত জাকির সাহেব৷

তবে এ ব্যাপারে ইমানি বিশ্বাস কোন কথা বলতে চাননি। কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা এনআইএ-কে যা বলার বলবেন বলে জানান তিনি। সুতি এলাকার বাসিন্দারা চাইছে, এই ঘটনার প্রকৃত তদন্ত করে উপযুক্ত শাস্তি দেওয়া হোক অভিযুক্তদের। মঙ্গলবার জাকির হোসেন মনোনয়নপত্র জমা দেবেন। বিস্ফোরণে ডানহাতের দুটি আঙুল উরে যায়, সেই কারণে মনোনয়নপত্রে তিনি টিপসই দিচ্ছেন। গুরুতর আহত অবস্থায় নমিনেশনের জন্য বাড়ি ফিরেছেন রাজ্যের শ্রম প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেন। কলকাতা এসএসকেএম হাসপাতাল থেকে চিকিৎসকদের অনুমতি নিয়ে চার দিনের জন্য  রঘুনাথগঞ্জ ফিরে আসেন জাকির হোসেন। মঙ্গলবার রঘুনাথগঞ্জের তৃণমূল প্রার্থী হিসাবে নমিনেশন ফাইল করবেন তিন। প্রসঙ্গত গত ১৭ ই ফেব্রুয়ারি নিমতিতা স্টেশন ভয়াবহ বিস্ফোরণ হয়। মন্ত্রী জাকির হোসেনসহ ২৬ জন গুরুতর আহত হন। তারপর থেকেই তিনি কলকাতায় চিকিৎসাধীন ছিলেন।

Published by:Pooja Basu
First published: