Farmers on Protest : 'করোনা টেস্ট কিট ও ভ্যাকসিন পাবেন দিল্লি সীমান্তে আন্দোলনরত কৃষকরা' : অনিল ভিজ

Farmers on Protest : 'করোনা টেস্ট কিট ও ভ্যাকসিন পাবেন দিল্লি সীমান্তে আন্দোলনরত কৃষকরা' : অনিল ভিজ

অনিল ভিজের আশ্বাস Photo : File Photo

অন্য রাজ্য থেকে আসা শ্রমিকদের কাছে ভিজের আর্জি, "গুজবে কান না দিয়ে আগের মতোই কাজ চালিয়ে যান"৷

  • Share this:

    #হরিয়ানা: করোনা পরিস্থিতির ভয়াবহতা সত্বেও দিল্লির সীমান্তে টিকরি-সিঙ্ঘু-গাজিয়াবাদে প্রতিবাদ অবস্থানে রয়েছেন কৃষকরা ৷ দেশের তিন নয়া কৃষিনীতির বিরুদ্ধে চলছে তাঁদের অবস্থান বিক্ষোভ। বিক্ষোভরত কৃষকদের অনেকেই হরিয়ানার বাসিন্দা৷ তাই তাঁদের নিয়ে দুশ্চিন্তায় রয়েছেন হরিয়ানার স্বাস্থ্যমন্ত্রী অনিল ভিজ৷ সেই সব কৃষকদের করোনা টেস্টের, পাশাপাশি ভ্যাকসিনেশনের প্রস্তুতি নিতে ইতিমধ্যেই একটি দল তৈরি করেছে হরিয়ানা সরকার।

    মঙ্গলবার আন্দোলনরত কৃষকদের কাছেও পরিষেবা পৌঁছে দেওয়ার কথা বলেন হরিয়ানার স্বাস্থ্যমন্ত্রী৷ তাঁর কথায়, "প্রত্যেক দু'দিনে আমাদের চিকিৎসকরা কৃষকদের পরীক্ষা করবেন ৷ তাঁদের প্রয়োজনীয় কিট, ওষুধ, অক্সিমিটার দেওয়া হচ্ছে ৷"রাজ্যের করোনা সংক্রমণকে নিয়ন্ত্রণ করতে আরও একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ করেছেন হরিয়ানার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তথা স্বাস্থ্যমন্ত্রী অনিল ভিজ ৷ রাজ্যের পর্যবেক্ষণ কমিটির সঙ্গে বৈঠকের পর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে যে, হরিদ্বারের কুম্ভ মেলা থেকে রাজ্যে ঢোকার পথে প্রতিটি চেক-পয়েন্টে তীর্থযাত্রীদের করোনা পরীক্ষা অবশ্যই করতে হবে ৷রাজ্যবাসীকে আশ্বস্ত করে তিনি জানিয়েছেন যে, এখুনি হরিয়ানায় কোনো লকডাউন নয়৷

    অন্য রাজ্য থেকে আসা শ্রমিকদের কাছে ভিজের আর্জি "গুজবে কান না দিয়ে আগের মতোই কাজ চালিয়ে যান"৷ সংলগ্ন রাজ্য দিল্লির থেকে করোনা রোগীদের চিকিৎসার প্রয়োজনীয় অক্সিজেন, বেড আর ওষুধ যথেষ্ট পরিমাণে মজুত আছে ঘোষণা করে মানুষকে ভরসা জুগিয়েছেন হরিয়ানার স্বাস্থ্যমন্ত্রী৷

    স্বাস্থ্য দপ্তরের হিসেব অনুযায়ী, হরিয়ানার বর্তমান অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৪২০০০-এর বেশি ৷ আর তার বেশিরভাগই দিল্লির গুরগাঁও, ফরিদাবাদ, সোনিপাতের বাসিন্দা ৷ তবে মোট অ্যাকটিভ রোগীর মধ্যে ৩০,০০০ রোগীকে হোম আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন রাখা হয়েছে ৷ মেডিক্যাল অক্সিজেনের অভাব বা তা নিয়ে কোনও কালোবাজারি হচ্ছে না বলে নিশ্চিত করেছে ড্রাগ আর পুলিশ কর্তৃপক্ষ৷ হরিয়ানায় করোনা সংক্রমণের কোনো রকম লক্ষণ দেখা দিলেই সঙ্গে সঙ্গে তাঁর কোভিড টেস্ট করা হচ্ছে ৷ রাজ্যের কোথাও কোনো ধর্মীয়, রাজনৈতিক আর সামাজিক জমায়েতের ক্ষেত্রে কড়া নিরাপত্তাবিধি মেনে চলতে হবে ৷ দেশজুড়ে চরম দুরবস্থা চললেও রাজ্যবাসীর জন্য আশার বাণীই শোনালেন হরিয়ানার স্বাস্থ্যমন্ত্রী ৷

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: