হোম /খবর /দেশ /
বিধ্বস্ত বাংলা, স্বাভাবিক ছন্দে ফেরাতে সেনার সাহায্য চাইল নবান্ন

বিধ্বস্ত বাংলা, স্বাভাবিক ছন্দে ফেরাতে সেনার সাহায্য চাইল নবান্ন

কলকাতা ও জেলায় আমফানের তাণ্ডব। এত বড় বিপর্যয়ে বেসামাল জনজীবন। বুধবার তীব্র হাওয়ার দাপটে কলকাতা শহরে বড় বড় গাছ উপড়ে পড়ে রাস্তায়। উপড়ে যায় বিদ্যুতের খুঁটি। ঝড় আসার আগেই বন্ধ করে দেওয়া হয় বিদ্যুৎ সংযোগ। পরিস্থিতি এখনও স্বাভাবিক হয়নি। কারণ, সরানো যায়নি ভেঙে পড়া গাছ।

কলকাতা ও জেলায় আমফানের তাণ্ডব। এত বড় বিপর্যয়ে বেসামাল জনজীবন। বুধবার তীব্র হাওয়ার দাপটে কলকাতা শহরে বড় বড় গাছ উপড়ে পড়ে রাস্তায়। উপড়ে যায় বিদ্যুতের খুঁটি। ঝড় আসার আগেই বন্ধ করে দেওয়া হয় বিদ্যুৎ সংযোগ। পরিস্থিতি এখনও স্বাভাবিক হয়নি। কারণ, সরানো যায়নি ভেঙে পড়া গাছ।

শনিবার রাজ্যের স্বরাষ্ট্র দফতরের তরফে ট্যুইট করে সেনার সঙ্গে সঙ্গে রেল ও পোর্টকেও এগিয়ে আসতে আহবান জানানো হয়েছে ৷

  • Last Updated :
  • Share this:

#কলকাতা: ৭২ ঘণ্টারও বেশি সময় কেটে গিয়েছে ৷ ধ্বংস লীলা চালিয়ে বিদায় নিয়েছে আমফান ৷ ধ্বংসস্তূপে পরিণত হওয়া বাংলার জেলাগুলি এখনও গুণে চলেছে শুধুই ক্ষয়ক্ষতির খতিয়ান ৷ ভয়ঙ্কর দুর্যোগে সম্পূর্ণ তছনছ হয়ে যাওয়া রাজ্যকে স্বাভাবিক ছন্দে ফেরাতে এবার সেনার সাহায্য চাইল রাজ্য সরকার ৷

শনিবার স্বরাষ্ট্র দফতরের তরফে ট্যুইট করে সেনার সঙ্গে সঙ্গে রেল ও পোর্টকেও এগিয়ে আসতে আহবান জানানো হয়েছে ৷ বিভিন্ন দফতর থেকে কর্মী ও জিনিসপত্র পাঠানোর আবেদন স্বরাষ্ট্র দফতরের ৷ রাজ্যের এরকম বিপর্যয়ে ২৪ ঘণ্টা নাওয়া খাওয়া ভুলে কাজ করে চলেছেন কর্মীরা ৷ তবুও পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতে অনেক সময়ের প্রয়োজন ৷ সেই কারণেই এরকম অসহায় পরিস্থিতিতে আরও কর্মীর জন্য সেনার কাছে সাহায্য চেয়েছে রাজ্য বলে জানা গিয়েছে ৷ সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে অনুরোধ জানানো হয়েছে ভারতীয় রেল ও পোর্টকেও ৷ বেসরকারি সংস্থাগুলির কাছেও সাহায্যের আহবান রাজ্যের ৷

দুই ২৪ পরগণা সহ কলকাতা আমফানের দাপটে সম্পূর্ণ বিধ্বস্ত ৷ জায়গায় জায়গায় গাছ উপড়ে গিয়েছে ৷ ধ্বংস লক্ষাধিক বাড়ি ৷ গ্রামাঞ্চলে তো দূরে খাস কলকাতা শহরেই বহু এলাকায় এখনও বিদ্যুত সংযোগ ফেরেনি ৷ আমফানে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে দক্ষিণ ২৪ পরগনা৷ মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, শুধুমাত্র দক্ষিণ চব্বিশ পরগণা জেলাতেই ১০ লক্ষ বাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে৷ ক্ষতিগ্রস্ত প্রায় ৭৬ লক্ষ মানুষ৷ উপড়ে গিয়েছে ৪১ হাজারের বেশি বিদ্যুতের খুঁটি৷ ৫৬টি নদীবাঁধও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে৷ তার উপরে, আরও ৩২টি নদী বাঁধে ফাটল ধরেছে বলেও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী৷ জেলার ৩.২ লক্ষ মৎস্যজীবীও আমফানের তাণ্ডবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন৷

Published by:Elina Datta
First published:

Tags: Amphan, Amphan landfall, Army, CM Mamaata Banerjee, Cyclone Amphan, Destruction, Kolkata Police, Rail, Super Cyclone Amphan