Home /News /national /
লকডাউনে বাড়ি ফিরতে মরিয়া করলেন বাইক চুরি, পরে পার্সেল করে বাইক ফিরিয়ে দিল খোদ চোরই!

লকডাউনে বাড়ি ফিরতে মরিয়া করলেন বাইক চুরি, পরে পার্সেল করে বাইক ফিরিয়ে দিল খোদ চোরই!

Kumar procured the CCTV footage through which the culprit was identified by a local and it became known that an employee from a local tea shop was behind the theft.

Kumar procured the CCTV footage through which the culprit was identified by a local and it became known that an employee from a local tea shop was behind the theft.

সিসিটিভি ফুটেজ থেকে চিহ্নিত করা গিয়েছিল চোরকে

  • Share this:

    #কোয়েম্বাটুর: তামিলনাড়ুর কোয়েম্বাটুরে একটি চায়ের দোকানে কাজ করতেন আমান৷ সারা দেশে লকডাউন চলাকালীন একটি বাইক চুরি করেন তিনি ৷ উদ্দেশ্য ছিল একটাই নিজের দেশের বাড়িতে পরিবারের কাছে ফিরে যাওয়া ৷ আর সত্যিই যে শুধু সেই জন্যে বাইক চুরি করেছিলেন তার প্রমাণ পাওয়া গেল সপ্তাহ দুয়েক পরেই ৷ কারণ বাইকটি যাঁর তাঁর কাছেই সপ্তাহ দুয়েক পরে পার্সেল করে বাইকটি পাঠিয়ে দেন ৷

    বাইকের মালিক সুরেশ কুমারকে ডেলিভারি সেন্টার থেকে ডেকে পাঠানো হয় ৷ ৩৪ বছরের সুরেশ একটি ইঞ্জিনিয়ারিং দ্রব্য প্রস্তুতকারক সংস্থা চালান ৷ দু সপ্তাহ আগে তিনি দেখেছিলেন তাঁর হিরো হন্ডা স্পেলন্ডর বাইকটি চুরি গিয়েছে ৷ এদিন ডেলিভারি সেন্টারে এসে দেখেন তার সেই বাইকটিই আছে ৷

    পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, যখন পার্সেল ডেলিভারি সেন্টারে পৌঁছে তিনি আশ্চর্য হয়ে যান ৷ নিজের সাধের বাইক দেখতে পেয়ে অভিভূত হয়ে যান ৷ তবে নিজে সরাসরি সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলতে রাজি হননি তিনি ৷

    জিজ্ঞাসাবাদের পর জানা যায় কুমার সিসিটিভ ফুটেজ যোগাড় করেছিলেন যেখান দেখে স্থানীয়রা দোষীকে সনাক্ত করতে পেরেছিল ৷ জানা যায় স্থানীয় একটি চায়ের দোকানে কাজ করে সে ৷ আশা করা হচ্ছে বাড়ি ফিরে যাওয়ার পর সেই কোয়েম্বাটুরের পাল্লাপালায়ম থেকে বাইটি পার্সেল করে পাঠিয়ে দেয় ৷

    তবে যে ফেরত পাঠিয়েছিল সে হাতে তুলে দেওয়ার জন্য টাকা অবশ্য দিয়ে দেয়নি তাই কুমারকে ১০০০ টাকা দিয়ে সেটা নিজের বাড়ি নিয়ে যেতে হয় ৷

    Published by:Debalina Datta
    First published:

    Tags: Bike, Coimbatore, Lockdown

    পরবর্তী খবর