Home /News /national /
Navjot Singh Sidhu in Hospital: খাবার মুখে তুলছেন না, জেল থেকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হল নভজ্যোত সিং সিধুকে!

Navjot Singh Sidhu in Hospital: খাবার মুখে তুলছেন না, জেল থেকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হল নভজ্যোত সিং সিধুকে!

Navjot Singh Sidhu in Hospital

Navjot Singh Sidhu in Hospital

কিন্তু হাজতে কোনও খাবারই মুখে দেননি তিনি। (Navjot Singh Sidhu in Hospital)

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: পথ-হিংসা মামলায় এক বছরের জেলের সাজা হয়েছে প্রাক্তন ক্রিকেটার ও কংগ্রেস নেতা নভজ্যোত সিং সিধুর। গত ২০ মে পাতিয়ালার এক আদালতে আত্মসমর্পণ করেন পঞ্জাব কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি। সোমবার সিধুকে জেল থেকে পাতিয়ালার রাজেন্দ্র হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় চেক-আপের জন্য। জেলে এর মধ্যে দু'দিন কাটিয়ে ফেলেছেন সিধু। কিন্তু হাজতে কোনও খাবারই মুখে দেননি তিনি। (Navjot Singh Sidhu in Hospital)

    পাতিয়ালা জেল সূত্রে খবর, ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী নিয়মিত যে ওষুধগুলি তাঁকে খেতে হয়, সেগুলি খেয়েছেন পঞ্জাবের কংগ্রেস নেতা তথা প্রাক্তন জাতীয় ক্রিকেটার। কিন্তু খাবারের অভাবে শারীরিক পরিস্থিতির অবনতির জন্য তাঁকে সোমবার হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হল। চিকিৎসকেরা এখন তাঁকে কী পরামর্শ দেন, সেটাই দেখার।

    আরও পড়ুন: ৩ দশক আগের রাগের ফল! পথ-হিংসা মামলায় জেল নভজ্যোত সিং সিধুর

    পঞ্জাব কারা দফতরের এক আধিকারিক শনিবার বলেছেন, 'সিধুর জন্য যদি বিশেষ কোনও পথ্যের সুপারিশ চিকিৎসকেরা করে থাকেন, তবে সেগুলি জেলের ক্যান্টিন থেকে তাঁকে কিনে খাওয়ার অনুমতি দেওয়া হতে পারে।' তবে অনিচ্ছাকৃত খুনের মামলায় দোষী সাব্যস্ত প্রাক্তন মন্ত্রীর জন্য জেলে বিশেষ খাবারের কোনও ব্যবস্থা করা হবে না বলে জানান তিনি।

    আরও পড়ুন: ঘরকে বিষাক্ত গ্যাসের 'চেম্বার' করে একসঙ্গে আত্মঘাতী ৩, রাজধানীতে হাড়হিম কাণ্ড!

    কী হয়েছিল ৩৪ বছর আগে?

    ১৯৮৮ সালের ঘটনা। সেই বছর ২৭ ডিসেম্বর পঞ্জাবের রাস্তায় গুরনাম সিং নামের এক ব্যক্তির সঙ্গে ঝামেলা বাধে সিধুর। বচসা থেকে ক্রমশ তা হাতাহাতিতে পৌঁছয়। অভিযোগ, ওই ব্যক্তিকে গাড়ি থেকে বার করে মারধর করেন তিনি। তাতে মাথায় আঘাত পান ওই ব্যক্তি এবং তা থেকেই তাঁর মৃত্যু হয় বলে অভিযোগ ওঠে। ২০১৮ সালে সিধুর বিরুদ্ধে এই মামলায় ৩ বছরের সাজা কমিয়ে ১ হাজার টাকা জরিমানার কথা বলেছিল শীর্ষ আদালত। মৃত ব্যক্তির পরিবারের তরফে রিভিউ পিটিশন দাখিল করার রায়দান স্থগিত রাখা হয়েছিল। সেই মামলাতেই পরে রায় দেয় সুপ্রিম কোর্ট, জেল হয় সিধুর।

    Published by:Raima Chakraborty
    First published:

    Tags: Navjot Singh Sidhu, Patiala

    পরবর্তী খবর