corona virus btn
corona virus btn
Loading

টেট মামলা নিয়ে নাম না করে হাইকোর্টের সমালোচনায় মানিক ভট্টাচার্য

টেট মামলা নিয়ে নাম না করে হাইকোর্টের সমালোচনায় মানিক ভট্টাচার্য
File Photo

নাম না করে হাইকোর্টের কড়া সমালোচনা করেন প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ সভাপতি মানিক ভট্টাচার্য ৷

  • Share this:

#কলকাতা: প্রাথমিকের টেট নিয়ে কলকাতা হাইকোর্টে আবারও অস্বস্তিতে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ। উত্তরপত্রে ভুল নিয়ে পর্ষদকে কার্যত তুলোধনা করল আদালত। টেট পরীক্ষায় উত্তরপত্রে পর্ষদের বেশ কয়েকটি ভুলে বেশ কিছু পরীক্ষার্থী বঞ্চিত হন বলে অভিযোগ। এই দায়িত্বপ্রাপ্ত শিক্ষাকর্তাদের নিয়েও কড়া মন্তব্য বিচারপতির।

প্রাথমিকের টেট আয়োজনে শিক্ষাকর্তাদের যোগ্যতা নিয়েই প্রশ্ন তুলে দিল হাইকোর্ট। টেটের উত্তরপত্রে পর্ষদের বিরুদ্ধে ভুল উত্তরের অভিযোগে অবাক হাইকোর্ট। ঘটনায় দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্তাদের নিয়ে চাঞ্চল্যকর মন্তব্য বিচারপতি সমাপ্তি চট্টোপাধ্যায়ের।

এর পরিপ্রেক্ষিতে নাম না করে হাইকোর্টের কড়া সমালোচনা করেন প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ সভাপতি মানিক ভট্টাচার্য ৷ এদিন তিনি বলেন,

২০ লক্ষ প্রার্থীকে চাকরি দিতে পারলে খুশি হতাম ৷ পরীক্ষায় পাশ-ফেল না থাকলে আরও সুবিধা হত ৷ প্রশ্ন কেমন হবে পরীক্ষার্থীরাই যদি ঠিক করে দেন ৷ তাহলে তাঁদের থেকেই মতামত নেব ৷ সরকারি প্রাথমিক স্কুলে ব্যবসার সুযোগ কী জানা নেই ৷ এটা হয়তো ওঁরা আরও ভাল বলতে পারবেন ৷ প্রাথমিকে জুতো, ব্যাগ, বই বিনামূল্যে দেওয়া হয় ৷ হয়তো উনি বেসরকারি ক্ষেত্রের কথা বলছেন ৷

প্রাথমিকভাবে প্রাথমিকের টেটে ৫ টি প্রশ্নের ভুল উত্তর দেওয়ার অভিযোগ উঠেছিল পর্ষদের বিরুদ্ধে। বর্তমানে ১১ টি প্রশ্নে ভুল উত্তর দেওয়ার অভিযোগ উঠছে। পর্ষদের এই গাফিলতিতে বঞ্চনার অভিযোগে বেশ কিছু পরীক্ষার্থী মামলা করেন হাইকোর্টে।

বোর্ডের উত্তর ভুল না ঠিক? তা স্থির করতে রাজ্যের নামকরা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশেষজ্ঞদের নিয়ে কমিটি গঠনের ইঙ্গিত হাইকোর্টের।

First published: December 20, 2017, 5:00 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर