#MamataToNews18 :‘নোটবন্দির নামে দেশে বড়সড় কেলেঙ্কারি হয়েছে,’ মোদি সরকারের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক মমতা

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Apr 18, 2019 07:23 PM IST
#MamataToNews18 :‘নোটবন্দির নামে দেশে বড়সড় কেলেঙ্কারি হয়েছে,’ মোদি সরকারের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক মমতা
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Apr 18, 2019 07:23 PM IST

#কলকাতা: প্রথম জনধন যোজনায় অ্যাকাউন্ট ফের নোটব্যান ৷ এই দুই ঘটনার আড়ালে দেশে ঘটেছে বড়সড় স্ক্যাম ৷ লোকসভা নির্বাচনের মুখে News18 Network Group এডিটর ইন চিফ রাহুল যোশীকে দেওয়া এক্সক্লুসিভ সাক্ষাত্‍‌কারে বিস্ফোরক অভিযোগ করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ৷

নোটবন্দি নিয়ে ফের সরব তৃণমূলনেত্রী ৷ জনধন যোজনা অ্যাকাউন্ট ও নোটবন্দি সম্পূর্ণ নিরপেক্ষ তদন্তের দাবি করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ৷ মোদি সরকারের গত পাঁচ বছরের মূল্যায়ন করতে গিয়ে একের পর এক অভিযোগ উঠে আসে তৃণমূলনেত্রীর মুখে ৷ তিনি বলেন, ‘জনধন যোজনার সমস্ত অ্যাকাউন্টের নথি পরীক্ষা করে দেখা উচিত ৷ তদন্ত হওয়া উচিত কেন হল নোটবন্দি ৷ কেন্দ্র সরকারের রিপোর্টই বলছে ৪ লাখেরও বেশি সন্দেহজনক অ্যাকাউন্ট রয়েছে ৷ নোটবন্দির নামে দেশে বড়সড় কেলেঙ্কারি হয়েছে ৷’

শুধু তাই নয় ৷ মমতার অভিযোগ, নোটবন্দির ক্ষতিকর ও দীর্ঘ প্রভাব পড়েছে আমাদের দেশের অর্থনীতিতে ৷ তিনি বলেন, ‘নোটবন্দির পর দেশের অর্থনৈতিক ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে ৷ ব্যবসায়ী হোক বা ছোট শিল্প অথবা ছোট ছোট দোকানদার, সবাইকে প্রচুর সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়েছে ৷ বহু ইন্ডাস্ট্রি বন্ধ হয়ে গিয়েছে ৷ কোটি কোটি লোক বেকার হয়ে গিয়েছেন ৷ এর কোনও দরকার ছিল না ৷ ’

তৃণমূলনেত্রীর দাবি, ‘মোদি বলেছিলেন, সন্ত্রাসবাদকে ধ্বংস করতেই নাকি নোটবন্দি ৷ কিন্তু তার কোনও ফায়দা হয়নি ৷ উল্টে দেশে সন্ত্রাসবাদ ২৬০ শতাংশ বেড়ে গিয়েছে ৷’

মোদি ও তাঁর সরকারের কাছে তৃণমূল নেত্রীর প্রশ্ন, ‘কোথায় গেল মোদিজির ১৫ লাখ টাকা? মোদি বলেছিলেন, নোটবন্দি করে বিদেশ থেকে কালো টাকা ভারতে ফিরিয়ে আনবেন ৷ সবার অ্যকাউন্টে ১৫ লক্ষ টাকা করে দেবেন ৷ আজ অবধি ১৫ লাখ কেন এক টাকাও কারোর অ্যাকাউন্টে জমা হয়নি ৷ ’

Loading...

লোকসভা নির্বাচনের মধ্যে একান্ত সাক্ষাৎকারে কেন্দ্র সরকারের পাঁচ বছরের মূল্যায়ন করতে গিয়ে মোদি সরকারের বিরুদ্ধে তদন্তের দাবি তোলেন তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ৷

First published: 07:20:03 PM Apr 18, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर