দিল্লির উপকণ্ঠে শ্বশুরবাড়ির ইচ্ছায় দেহ ব্যবসায় মেয়েরা

দিল্লি শহর থেকে কয়েক মাইল দুরে অবস্থিত ৷ এখানকারই বাসিন্দা হচ্ছে এই পারণা কমিউনিটির মানুষেরা ৷ তবে কারা এই পারণা কমিউনিটির মানুষেরা ৷ আপনার আমার মতোই সাধারণ কিছু মানুষ ৷ তফাৎ শুধু আমাদের জীবনধারণে ৷ তাদের আর আমাদের সমাজের মধ্যে রয়েছে আকাশ পাতাল ফারাক ৷ ওদের সমাজের চিত্রটা একটু আলাদা ৷ এই গ্রামের প্রত্যেকটি পরিবারের প্রত্যেকটি পুরুষ রয়েছে দালালের ভূমিকায় । এখানে প্রত্যেকটি মহিলা পতিতা । আর এই দেহ ব্যবসায় তাদের নিয়ে এসেছে অন্য কেউ নয় বরং তাদের স্বামীরা ৷ এই সমাজে রক্ষকই ভক্ষক ৷ তাই বিনা প্রতিবাদে মেনে নিয়েছে তাদের এই ভাগ্য ৷ রোজগারের জন্য নিজেকে বিক্রি করেছে প্রতি মুহূর্তে ৷ বংশপরম্পরায় ধরে চলে আসছে এই কুৎসিত ভাবেই ৷

আরও পড়ুন...
  • Last Updated :
  • Share this:

    #নয়াদিল্লি : দিল্লি শহর থেকে কয়েক মাইল দুরে অবস্থিত ৷ এখানকারই বাসিন্দা হচ্ছে এই পারণা কমিউনিটির মানুষেরা ৷ তবে কারা এই পারণা কমিউনিটির মানুষেরা ৷ আপনার আমার মতোই সাধারণ কিছু মানুষ ৷ তফাৎ শুধু আমাদের জীবনধারণে ৷ তাদের আর আমাদের সমাজের মধ্যে রয়েছে আকাশ পাতাল ফারাক ৷  ওদের সমাজের চিত্রটা একটু আলাদা ৷ এই গ্রামের প্রত্যেকটি পরিবারের প্রত্যেকটি পুরুষ  রয়েছে দালালের ভূমিকায় । এখানে প্রত্যেকটি মহিলা পতিতা । আর এই দেহ ব্যবসায় তাদের নিয়ে এসেছে অন্য কেউ নয় বরং তাদের স্বামীরা ৷ এই সমাজে রক্ষকই ভক্ষক ৷ তাই বিনা প্রতিবাদে মেনে নিয়েছে তাদের এই ভাগ্য ৷ রোজগারের জন্য নিজেকে বিক্রি করেছে প্রতি মুহূর্তে ৷ বংশপরম্পরায় ধরে চলে আসছে এই কুৎসিত প্রথা ৷

    607256390

    পারণা কমিউনিটির মহিলা রানি জানান, ‘বিবাহের দু’বছর পর তিনি তার স্বামীর পতিতা হন ৷ এটা নতুন কিছু নয় ৷ আমি জানতাম এরকমই হবে একদিন ৷ আমি সংসার চালানোর জন্য দেহ ব্যবসা করি ৷’ সেখানকার আরেক মহিলা হোরাবাই জানান, সংসারের আয় বাড়ানোর জন্য অন্যের ভোগ্যবস্তুতে পরিণত হয়েছেন তিনি৷ তবে পারণার  কোনও মহিলাই চায় না যে এই অসম্মান ও অন্ধাকারের জীবন নেমে আসুক তাদের মেয়েদের জীবনেও ৷ তবে তাদের অকপট স্বীকারোত্তি একবার বিয়ে হলে গেলে মেয়েদের জীবনের উপর সমস্ত অধিকার তাদের স্বামীদের ও শ্বশুরবাড়ি লোকেদের ৷ এভাবেই কেটে গিয়েছে রানি ও হোরাবাইদের জীবন। আর হইতো এইভাবেই চলতে থাকবে ৷ কত নাম না জানা রানিরা এই ভাবেই দিনের পর দিন শিকার হবে নির্যাতনের ৷ তবু চোখে একটাই আশা ৷  তাদের মেয়েরা যাতে আর রানি বা হোরাবাইতে পরিণত না হয় ৷ সমাজের আনাচে কানাচে এই ভাবেই চলতে থাকবে শোষণ তবুও একটা ক্ষীন আসা রানিদের মনে আজও রয়েছে এই অন্ধকার থেকে মুক্তি পাওয়ার ৷

    First published:

    Tags: Delhi, Flesh Trade, In Laws, Perna Community, Prostitution