JNU ভোটে এ বারও বামেদের জয় জয়কার, যোজন পিছিয়ে বিজেপি-র এবিভিপি

সহ সভাপতি পদে বাম প্রার্থী সাকেত মুন ৩ হাজার ২৮টি ভোট পেয়ে এগিয়ে৷ এবিভিপি-র শ্রুতি অগ্নিহোত্রী ১ হাজার ১৬৫টি ভোট পেয়েছেন এখনও৷ জেএনইউ-য়ে মোট ১৪ জন প্রার্থী৷

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Sep 08, 2019 04:28 PM IST
JNU ভোটে এ বারও বামেদের জয় জয়কার, যোজন পিছিয়ে বিজেপি-র এবিভিপি
জেএনইউ নির্বাচন
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Sep 08, 2019 04:28 PM IST

#নয়াদিল্লি: জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ে বামেদের জয়জয়কার৷ এখনও পর্যন্ত গণনার ট্রেন্ড বলছে, যোজন পিছিয়ে বিজেপি-র ছাত্র সংগঠন এবিভিপি৷ ছাত্র সংসদের সভাপতি, সহ-সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক ও সহ-সম্পাদক--সহ পদের নির্বাচনেই প্রায় জয়ের দিকে বামেরা৷ ৫ হাজার ৭৬২টি ব্যালটের মধ্যে এখনও পর্যন্ত ৫ হাজার ৫০টি ব্যালট গোনা শেষে ২০ হাজার ১৬৯টি ভোটে এগিয়ে রয়েছেন বামেদের সভাপতি পদপ্রার্থী ঐশী ঘোষ৷ এবিভিপি-র প্রাপ্ত ভোট ৯৮১৷ দ্বিতীয় স্থানে BAPSA রয়েছে৷

সহ সভাপতি পদে বাম প্রার্থী সাকেত মুন ৩ হাজার ২৮টি ভোট পেয়ে এগিয়ে৷ এবিভিপি-র শ্রুতি অগ্নিহোত্রী ১ হাজার ১৬৫টি ভোট পেয়েছেন এখনও৷ জেএনইউ-য়ে মোট ১৪ জন প্রার্থী৷ এ বারে জেএনইউ-তে ৬৭.৯ শতাংশ ভোট পড়েছে৷ গত ৭ বছরে সবচেয়ে বেশি ভোট৷ গত নির্বাচনেও সব পদেই ছিতেছিল বামেরা৷ এ বারও সেই ট্রেন্ডই বজায় রয়েছে৷ দেশের অন্যতম নামী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটিতে এ বারও বড়সড় জয়ের পথে বামেরা৷

সহ-সভাপতি ও যুগ্ম সম্পাদক পদে এবিভিপি প্রার্থীরা দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন। সাধারণ সম্পাদক পদে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন দলিত জোটের প্রার্থী। বেআইনি ভাবে মনোনয়ন খারিজ করা হয়েছে— এই দাবিতে দুই জেএনইউ ছাত্র অংশুমান দুবে ও অমিত দ্বিবেদী দিল্লি হাইকোর্টে মামলা করেন। ১৭ তারিখের পরবর্তী শুনানি পর্যন্ত ফল ঘোষণা স্থগিত করেছে কোর্ট।

First published: 04:28:50 PM Sep 08, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर