• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • গত এক বছরে কতটা জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন রাহুল গান্ধি? ইঙ্গিত মিলল THE NATIONAL TRUST SURVEY

গত এক বছরে কতটা জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন রাহুল গান্ধি? ইঙ্গিত মিলল THE NATIONAL TRUST SURVEY

Photo: News 18 Bangla

Photo: News 18 Bangla

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: গত এক বছরে রাজনীতিবিদ হিসেবে কতটা পরিণত হয়েছেন রাহুল গান্ধি? তাঁর রাফাল ইস্যুকে কীভাবে দেখছেন ভোটাররা? প্রিয়ঙ্কা গান্ধির সক্রিয় রাজনীতিতে আসাতেও বা কতটা লাভবান হবে কংগ্রেস? উত্তরের জন্য দেখুন ফার্স্টপোস্ট ও নিউজ এইটিন বাংলার দ্য ন্যাশনাল ট্রাস্ট সার্ভে দু’হাজার উনিশের ফলাফল।

    জাতীয় স্তরে নরেন্দ্র মোদির অন্যতম প্রতিপক্ষ হিসেবে উঠে এসেছেন রাহুল গান্ধি। ভোটের মুখে রাজনীতির ময়দানে নিয়ে এসেছেন বোন প্রিয়ঙ্কাকেও। ভোটের মুখে ভাই-বোন সম্পর্কে কী ভাবছেন মানুষ? দেশের সমস্যা সমাধানে, গত এক বছরে রাহুল গান্ধি কি যথেষ্ট বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দিয়েছেন?

    প্রশ্ন ছিল দেশের সমস্যা সমাধানে, গত এক বছরে রাহুল গান্ধি কি যথেষ্ট বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দিয়েছেন। সমীক্ষায় ৪১ শতাংশ রাহুলের পক্ষে মত দিয়েছেন। ৩৪ শতাংশ বলেছেন বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দিতে ব্যর্থ কংগ্রেস সভাপতি।

    জল্পনা ছিলই। অবশেষে ভোটের মুখে সক্রিয় রাজনীতিতে যোগ দিয়েছেন প্রিয়ঙ্কা গান্ধি। বোনকে মোদি-যোগীর গড় উত্তরপ্রদেশের দায়িত্ব দিয়ে পাঠিয়েছেন রাহুল। এই প্রিয়ঙ্কা ফ্যাক্টরে কতটা লাভবান হবে কংগ্রেস?প্রিয়ঙ্কা সক্রিয় রাজনীতিতে যোগদান কংগ্রেসকে লাভবান করবে?

    ৩৭% বলছেন প্রিয়ঙ্কা সক্রিয় রাজনীতিতে আসায় লাভ হবে কংগ্রেসের। ৩২ শতাংশের মতে, প্রিয়ঙ্কা ফ্যাক্টরের ফায়দা তুলবে পারবে না কংগ্রেস শিবির। রাফাল যুদ্ধবিমান চুক্তিতে দুর্নীতির অভিযোগ প্রথম সরব হয়েছিলেন রাহুল গান্ধিই। ভোটের ময়দানে সেই রাফালই এখন অন্যতম ইস্যু। গেরুয়া শিবিরের গলার কাঁটাও। সেই রাফাল ইস্যুকে কীভাবে দেখছেন ভোটাররা?

    রাফাল নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে কংগ্রেসের অভিযোগ সঠিক? ৩০ শতাংশ মানুষ বলছেন রাফাল নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে কংগ্রেসের অভিযোগ সঠিক। বিপরীত মত ৩৯ শতাংশের।রাজনীতিতে ভোটারের ট্রাস্ট বা আস্থা নেতানেত্রীদের অন্যতম পুঁজি। ভোটারদের আস্থার ভিত্তিতে কে এগিয়ে? মোদি না রাহুল?

    কোন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বের উপর মানুষের TRUST?

    এবছর জানুয়ারির সমীক্ষা অনুযায়ী নরেন্দ্র মোদির ওপর ট্রাস্ট রেখেছিলেন ৬৭.৫% মানুষ। আর রাহুল গান্ধির ওপর ট্রাস্ট ছিল ৪৯% মানুষের। এপ্রিলের সমীক্ষা অনুযায়ী, মোদির ওপর ট্রাস্ট বেড়ে হয়েছে ৭১.১%। রাহুলের ওপর ট্রাস্ট কমে হয়েছে ৪৩.২%।

    First published: