• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • প্রাক্তনের ডাকে সাড়া দিয়ে বিয়ের আসর ছেড়ে পলাতক বর! অতিথি বিয়ে করলেন কনেকে

প্রাক্তনের ডাকে সাড়া দিয়ে বিয়ের আসর ছেড়ে পলাতক বর! অতিথি বিয়ে করলেন কনেকে

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

খোঁজ খোঁজ রব পড়তেই জানা গেল বর পালিয়েছে। লগ্নভ্রষ্টা থেকে বাঁচাতে বরের পরিবারের এক অতিথি বিয়ে করলেন কনেকে।

  • Share this:

    #কর্ণাটক: এদিকে লগ্ন বয়ে যাচ্ছে, কনের পরিবার বরকে ডাকতে গিয়ে দেখে বর উধাও! খোঁজ খোঁজ রব পড়তেই জানা গেল বর পালিয়েছে। বিয়ের অনুষ্ঠানে শুরু হয়ে যায় ঝামেলা। লগ্নভ্রষ্টা থেকে বাঁচাতে বরের পরিবারের এক অতিথি বিয়ে করলেন কনেকে। ঘটনাটি ঘটেছে কর্ণাটকের চিককামগালুরুতে। বিষয়টি সামনে আসতে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ওই দিন অনুষ্ঠান বাড়িতে একইসঙ্গে দু’ভাইয়ের বিয়ে হওয়ার কথা ছিল, অশোক এবং নবীনের। বিয়ের আয়োজন চলছিল একেবারে জবরদস্ত। কিন্তু হঠাৎ করেই বিয়ের অনুষ্ঠান থেকে সন্ধ্যে বেলা রহস্যজনক ভাবে নিখোঁজ হয় নবীন। আর তারপরেই যত গন্ডগোল বাধে। সন্ধ্যে থেকে রাত পর্যন্ত, নবীনের খোঁজ চালানো হয়। কিন্তু তাঁকে কোথাও খুঁজে পাওয়া যায়নি। পরে তদন্ত করে জানা যায়, নবীনের প্রাক্তন প্রেমিকা তাঁকে ফোন করে হুমকি দিয়েছিল। সে বলেছিল, নবীন যদি বিয়ের আসর ছেড়ে চলে না আসে, তাহলে অতিথিদের সামনে বিষপান করবে সে। এই বিয়ে কিছুতেই হতে দেবে না নবীনের বান্ধবী। প্রেমিকাকে শান্ত করার জন্য নবীন আচমকাই বিয়ের হল ছেড়ে কাউকে কিছু না জানিয়ে বেরিয়ে যায়। বান্ধবীর সঙ্গে তুমাকুরুতে দেখা করবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল নবীন। অন্য দিকে এই খবর শোনার পর সিন্ধুর মন ভেঙে যায়, সে কান্নাকাটি শুরু করে দেয়। তাঁর পরিবারের সদস্যরাও হতাশ হয়ে পড়েছিল। তখন ওই অতিথিদের মধ্যেই কনের উপযুক্ত বর খোঁজার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। পরিবারের লোকেরা তাঁদের মেয়েকে বিয়ে করার জন্য অনুরোধ করেছিল। তবে নাটক বললে মন্দ হবে না! উপযুক্ত বর খুঁজেও পেল সিন্ধুর পরিবার। অনেক ক্ষণ দূর থেকে সম্পূর্ণ বিষয়টি লক্ষ্য করছিলেন বিএমসিটির কন্ডাকটর চন্দ্রা। তিনি এগিয়ে আসেন এবং স্বেচ্ছায় সিন্ধুকে বিয়ে করার প্রস্তাব দেন। দেরি না করে উভয়ের পরিবার বিয়ের জন্য প্রস্তুতি শুরু করে এবং চন্দ্রা ও সিন্ধুর বিয়ে দেয়। আশা করি নব দম্পতির আগামী আরও শুভ হোক।

    Published by:Somosree Das
    First published: