CAA protest: ‘১৮ বছর হলেই ভোট দেওয়া যায়, তাহলে আন্দোলনে বাধা কেন?’ পড়ুয়াদের সমর্থনে প্রশ্ন মমতার

CAA protest: ‘১৮ বছর হলেই ভোট দেওয়া যায়, তাহলে আন্দোলনে বাধা কেন?’ পড়ুয়াদের সমর্থনে প্রশ্ন মমতার

বৃহস্পতিবার রাজাবাজার ও মল্লিকবাজারের জোড়া সভা থেকে তৃণমূল নেত্রী অভিযোগ করেন, পড়ুয়াদের মধ্যেও বিভাজন করতে চাইছে বিজেপি।

  • Share this:

#কলকাতা: CAA-র প্রতিবাদে সোচ্চার দেশের বিভিন্ন কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা। সেই আন্দোলনের পাশে থাকার বার্তা দিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার রাজাবাজার ও মল্লিকবাজারের জোড়া সভা থেকে তৃণমূল নেত্রী অভিযোগ করেন, পড়ুয়াদের মধ্যেও বিভাজন করতে চাইছে বিজেপি।

রাজাবাজার থেকে মল্লিকবাজার মিছিলের আগে নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদ মঞ্চ থেকে মমতা বলেন, ‘দেশজুড়ে ছাত্রদের উপর অত্যাচার হচ্ছে ৷ ১৮ বছর হলেই ভোট দেওয়া যায় তাহলে ছাত্রদের আন্দোলনে বাধা কেন? ছাত্রদের ক্যারেকটার কী? ওরা হিন্দু ওরা মুসলিম? বিক্ষোভের ভয়ে হস্টেল বন্ধ হচ্ছে ৷ আমরা ছাত্র আন্দোলনের পাশে ৷ সোশাল মিডিয়ার মাধ্যমে একজোট হোন পড়ুয়ারা ৷’ নাগরিকত্ব আইনের বিরোধিতায় নিজে পথে থাকার কৌশল নিয়েছেন মমতা। এদিন ছাত্রছাত্রীদেরও আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার আর্জি জানালেন তৃণমূল নেত্রী।

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে আন্দোলনে নেমেছেন দিল্লির জামিয়া মিলিয়া, আলিগড়-সহ দেশের বহু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা। কলকাতার রাজপথেও হেঁটেছেন প্রেসিডেন্সি-যাদবপুর-আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পড়ুয়ারা। প্রতিবাদের পথে দেশের বিভিন্ন কলেজের ছাত্রছাত্রীরাও। এই পরিস্থিতিতে বৃহস্পতিবার ছাত্র আন্দোলনের পাশে থাকার বার্তা দিলেন তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

রাজনৈতিক মহলের মতে, CAA-র প্রতিবাদে বিরোধীরা যে তীব্র আন্দোলন করবেন, তা জানাই ছিল বিজেপির। সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের প্রতিবাদও গেরুয়া শিবিরের কাছে মাথাব্যথা নয়। উল্টে মেরুকরণের রাজনীতির ফায়দা তোলা যাবে সংখ্যালঘুদের প্রতিবাদ থেকে। কিন্তু দেশজুড়ে ছাত্রদের স্বতঃস্ফূর্ত আন্দোলন মোদি-শাহদের কাছে সিলেবাসের বাইরের প্রশ্ন হয়ে দাঁড়িয়েছে। এই পরিস্থিতিতে কৌশলে ছাত্র সমাজের পাশে থাকার বার্তা দিয়ে রাখলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

First published: 04:58:49 PM Dec 26, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर