• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • লকডাউনে গোয়ায় ঘুরে বেড়াচ্ছে ব্ল্যাক প্যান্থার! 'বাগিরা'কে দেখে উচ্ছ্বসিত নেটিজেনরা

লকডাউনে গোয়ায় ঘুরে বেড়াচ্ছে ব্ল্যাক প্যান্থার! 'বাগিরা'কে দেখে উচ্ছ্বসিত নেটিজেনরা

এমনিতেই ব্ল্যাক প্যান্থার দুস্প্রাপ্য। সচরাচর তার দেখা মেলে না। জঙ্গলের গভীরে থাকা এই প্রাণীর দেখা পেয়েছে এমন ভাগ্যবানের সংখ্যা বেশ কম। তাই গোয়ার মুখ্যমন্ত্রীর শেয়ার করা ছবি দেখে উচ্ছ্বসিত নেটিজেনরা।

এমনিতেই ব্ল্যাক প্যান্থার দুস্প্রাপ্য। সচরাচর তার দেখা মেলে না। জঙ্গলের গভীরে থাকা এই প্রাণীর দেখা পেয়েছে এমন ভাগ্যবানের সংখ্যা বেশ কম। তাই গোয়ার মুখ্যমন্ত্রীর শেয়ার করা ছবি দেখে উচ্ছ্বসিত নেটিজেনরা।

এমনিতেই ব্ল্যাক প্যান্থার দুস্প্রাপ্য। সচরাচর তার দেখা মেলে না। জঙ্গলের গভীরে থাকা এই প্রাণীর দেখা পেয়েছে এমন ভাগ্যবানের সংখ্যা বেশ কম। তাই গোয়ার মুখ্যমন্ত্রীর শেয়ার করা ছবি দেখে উচ্ছ্বসিত নেটিজেনরা।

  • Share this:

    #গোয়াঃ দেখা মিলল ব্ল্যাক প্যান্থারের। দক্ষিণ গোয়ার নেত্রাভালি অভয়ারণ্যে এই প্রথম ব্ল্যাক প্যান্থারের দেখা মিলল। মুখ্যমন্ত্রী প্রমোদ সাওয়ান্ত ব্ল্যাক প্যান্থারের ছবি ট্যুইট করেন। তিনি লেখেন, “নেত্রাভালি অভয়ারণ্যে ব্ল্যাক প্যান্থার দেখা গিয়েছে। ট্র্যাপ ক্যামেরায় ধরা পড়েছে তার ছবি।” তাঁর এই ট্যুইট ঘিরে পরিবেশপ্রেমীদের উৎসাহ ছিল চোখে পড়ার মতো।

    এমনিতেই ব্ল্যাক প্যান্থার দুস্প্রাপ্য। সচরাচর তার দেখা মেলে না। জঙ্গলের গভীরে থাকা এই প্রাণীর দেখা পেয়েছে এমন ভাগ্যবানের সংখ্যা বেশ কম। তাই গোয়ার মুখ্যমন্ত্রীর শেয়ার করা ছবি দেখে উচ্ছ্বসিত নেটিজেনরা।

    লকডাউনের অনেক অত্যাশ্চর্য ঘটনা প্রতিনিয়ত ঘটেই চলেছে। কখনও সমুদ্রের বিচ দখল করছে কচ্ছপের দল। কখনও পথেঘাটে দেখা মিলছে ময়ূরের। আবার গঙ্গায় ফিরেছে শুশুক । এবারও তেমনই এক বিরল কাণ্ড ঘটল গোয়ায়। হঠাৎ করেই  দেখা মিলল বিরল প্রজাতির কালো চিতার।

    রুডিয়ার্ড কিপলিংয়ের লেখা বিখ্যাত কাহিনি— ‘দ্য জঙ্গল বুক’। সেই জঙ্গলের গল্পের মোগলির রক্ষাকর্তা 'বাগিরা'। বাগিরা আসলে কালো চিতা। কার্টুন চরিত্র হলেও বাগিরার জনপ্রিতা বিশ্বজুড়ে। তাঁকে চেনে না এমন মানুষ মেলা ভার। তাই বাস্তবে অনেকেই ব্ল্যাক প্যান্থার দেখলে তাকে বাগিরার সঙ্গে তুলনা করেন।

    সূত্রের খবর, এর আগে এই অভয়ারণ্যে কখনও কাল চিতার দেখা মেলেনি। ফলে নেত্রভালি অভয়ারণ্যে আরও কালো চিতা রয়েছেন কিনা তা খতিয়ে দেখবে বলে জানিয়েছে বন দফতর।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published: