দেশ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

উপত্যকার সন্ত্রাস নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য, গুলাম নবি আজাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপের দাবি বিজেপির

উপত্যকার সন্ত্রাস নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য, গুলাম নবি আজাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপের দাবি বিজেপির
প্রতীকী ছবি

‘জম্মু-কাশ্মীরে সন্ত্রাস দমনের নামে অত্যাচার চলছে ৷ সেনার অত্যাচারের শিকার নাগরিকরাই ৷’ কংগ্রেসের বর্ষীয়াণ নেতা গুলাম নবি আজাদের এই মন্তব্যের জেরেই বিপাকে কংগ্রেস ৷

  • Share this:

#শ্রীনগর: ‘জম্মু-কাশ্মীরে সন্ত্রাস দমনের নামে অত্যাচার চলছে ৷ সেনার অত্যাচারের শিকার নাগরিকরাই ৷’ কংগ্রেসের বর্ষীয়াণ নেতা গুলাম নবি আজাদের এই মন্তব্যের জেরেই বিপাকে কংগ্রেস ৷ আজাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার দাবিতে সরব বিজেপি ৷

আজাদের মন্তব্যের সমালোচনায় মুখর বিজেপি ৷ তাঁর এই মন্তব্যকে ‘লজ্জাজনক এবং গভীর দু:খজনক’ বলে কটাক্ষ করল বিজেপি ৷ পাশাপাশি, গুলাম নবি আজাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার দাবি করেন বিজেপি নেতৃত্বরা ৷

আরও পড়ুন: সাত বছর ধরে লাগাতার ধর্ষণ করেছে বাবা, অভিযোগ কিশোরীর

ইন্দো-পাকিস্তান সীমান্তের পরিস্থিতি বারুদের স্তুপের উপর দাঁড়িয়ে রয়েছে ৷ সীমান্তের ওপার থেকে ভারতের সেনাছাউনি লক্ষ্য করে লাগাতার চলে গুলিবর্ষণ ৷ এই সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন নিয়ে মতবিরোধের জেরেই উপত্যকায় বিজেপি-পিডিপি জোটেরও ভাঙন হয় ৷ এরপর থেকেই বিজেপিকে কাঠগড়ায় তুলে অনবরত আক্রমণ করছে বিরোধীরা ৷ কিন্তু এহেন অবস্থাতে কিছুটা সেমসাইড গোল দিয়েই বিতর্কের মুখে কংগ্রেস ৷ আর বিতর্কের কেন্দ্রে রয়েছেন গুলাম নবি আজাদ ৷ যিনি দীর্ঘদিন জম্মু-কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রীর পদে ছিলেন ৷ মুখ্যমন্ত্রীর পদে থাকাকালীনই জম্মু-কাশ্মীরের সন্ত্রাসবাদের অন্ধকার দিকটা দেখেছেন আজাদ ৷ তা স্বত্ত্বেও কীভাবে ভারতীয় সেনাদের দায়ী করা হল সন্ত্রাসবাদের জন্য ? সেই নিয়েই তোলপাড় জাতীয় রাজনীতি ৷

গুলাম নবি আজাদের মন্তব্যের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রবি শঙ্কর প্রসাদ ৷ তিনি বলেন, ‘২০১২ সালে জম্মু-কাশ্মীরে ৭২ জন জঙ্গিকে হত্যা করা হয়েছিল ৷ ২০১৩ তে সেই সংখ্যাটা কমে দাঁড়ায় ৬৭-তে ৷ কিন্তু ২০১৪ সালে ক্ষমতায় আসে বিজেপি ৷ এরপরই ১১০ জন জঙ্গিকে খতম করা হয় ওই বছরে ৷ ২০১৫ সালে ১০৮, ২০১৬ সালে ১৫০ জন এবং ২০১৭ সালে ২১৭ জন জঙ্গিকে খতম করে ভারতীয় সেনা ৷ চলতি বছরের মে অবধি ৭৫ জন জঙ্গিকে খতম করেছে ভারতীয় সেনা ৷ সুতরাং এই হিসেব থেকেই স্পষ্ট কোন সরকার জঙ্গি দমনে সবথেকে বেশি সফল হয়েছেন ৷’

প্রসঙ্গত, জম্মু-কাশ্মীরে সন্ত্রাস দমনের নামে অত্যাচার চলছে ৷ সেনার অত্যাচারের শিকার নাগরিকরাই ৷’ আজাদের এই মন্তব্যকেই সমর্থম করে লস্কর-ই-তইবা ৷ লস্কর-ই-তইবার মুখপাত্র মহম্মদ শাহ বলেন, রাজ্যপালের শাসনের নামে অত্যাচার বাড়বে ৷ নিরাপরাধদের মৃত্যুর সংখ্যাও বাড়বে ৷

রাজ্যপালের শাসন জারি হয়েছে জাম্মু ও কাশ্মীরে ৷ রাজ্যপালের শাসনের পক্ষে সম্মতি দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ ৷ মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে মেহবুবা মুফতির পদত্যাগের পরই জম্মু ও কাশ্মীরে রাজ্যপালের শাসন নিয়ে শুরু হয় জল্পনা ৷ রাজ্যপাল এনএন ভোরা তাঁর রিপোর্ট পাঠিয়ে দেন রাষ্ট্রপতির কাছে ৷ তারপরই রাজ্যপালের শাসনের মতে সিলমোহর দেন রাষ্ট্রপতি ৷

First published: June 22, 2018, 4:34 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर