corona virus btn
corona virus btn
Loading

Citizenship Amendment Act Protest: ‘চাই আজাদি’, জামিয়া-মিলিয়ার ঘটনায় দেশজুড়ে প্রতিবাদের ঝড়

Citizenship Amendment Act Protest: ‘চাই আজাদি’, জামিয়া-মিলিয়ার ঘটনায় দেশজুড়ে প্রতিবাদের ঝড়

জামিয়া মিলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের পাশে এসে দাঁড়াল সারা দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়ারা ৷

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন নিয়ে প্রতিবাদ বিক্ষোভ অব্যাহত ৷ রাজধানীর জামিয়া মিলিয়া ক্যাম্পাসের আগুন এখন দেশের বাকি ক্যাম্পাসেও ৷ জামিয়া মিলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের পাশে এসে দাঁড়াল সারা দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়ারা ৷ জেএনইউ থেকে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়, লখনউয়ের নাদওয়া কলেজ থেকে মৌলানা আজাদ জাতীয় উর্দু বিশ্ববিদ্যালয়, CAA-এর প্রতিবাদ বিক্ষোভে সরব গোটা দেশের ছাত্র সমাজ ৷ কলকাতা সহ বারাণসী-বেঙ্গালুরু-গুয়াহাটিতেও দেখা যায় বিক্ষোভ রাতের অন্ধকারে বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে ঢুকে পড়ুয়াদের মারধরের ঘটনায় প্রতিবাদে গর্জে উঠেছে গোটা দেশ ৷ নিন্দায় সরব ছাত্ররা ৷ রবিবার রাতেই জামিয়া মিলিয়ার সমর্থনে পথে নামে যাদবপুর,  আইআইটি বোম্বে, জেএনইউ, পন্ডিচেরি বিশ্ববিদ্যালয় সহ দেশের বিভিন্ন প্রান্তের ছাত্রছাত্রীরা ৷ এই ঘটনায় সোমবার গোটা দেশে ছাত্র ধর্মঘট ডেকেছে চারটি ছাত্র সংগঠন ৷ সোমবার সকাল থেকেও প্রতিবাদে সরব ছাত্ররা ৷ নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে এদিন সকাল থেকে উত্তপ্ত নাদওয়া কলেজ। ২০০ বেশি পড়ুয়ারা সামিল হন এই প্রতিবাদ বিক্ষোভে৷ পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট ছুড়তে শুরু করে পড়ুয়ারা। জামিয়ার প্রতিবাদের কথা শুনেই বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন নাদওয়া কলেজের পড়ুয়ারা৷ সকলে মিলে জমায়াত করেন কলেজের গেটে এবং স্লোগান দিতে শুরু করেন৷ কলেজের গেট বন্ধ রাখা হয়েছে। জামিয়া মিলিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, রাতে দিল্লি পুলিশ ক্যাম্পাসে ঢুকে পড়ুয়াদের উপর নির্বিচারে লাঠিচার্জ করে ৷ আহত হন বহু পড়ুয়ারা ৷ আটক করা হয় ১০০-ওরও বেশি পড়ুয়াদের ৷ জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিবাদের রেশ আছড়ে পড়ল আলিগড় মুসলিম ইউনিভার্সিটিতে৷ নাগরিকত্ব আইন নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে শুরু হয় প্রতিবাদ৷ শয়ে-শয়ে পড়ুয়ারা সামিল হন এই প্রতিবাদ বিক্ষোভে৷ তবে পুলিশের লাঠি চার্জ এবং টিয়ার গ্যাস ছোঁড়ায় পরিস্থিতি আরও ঘোরালো হয়ে৷ জামিয়ার প্রতিবাদের কথা শুনেই বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন আলিগড় বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা৷ সকলে মিলে জমায়াত করেন বাবে স্যার সায়েদ গেটে এবং স্লোগান দিতে শুরু করেন৷ দেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে শুরু হয় তাদের প্রতিবাদ৷ এরপরই পুলিশের ব্যাডিকেড ভাঙতে শুরু করেন পড়ুয়ারা৷ ক্যাম্পাসের প্রতিটি গেট আটকায় পুলিশ৷ পরিস্থিতি সামলাতে লাঠি চালায় পুলিশ৷ সঙ্গে কাঁদানে গ্যাসও ছোঁড়া হয়৷ এতেই পরিস্থিতি ভয়াবহ হয়ে ওঠে৷

Published by: Elina Datta
First published: December 16, 2019, 3:02 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर