• Home
  • »
  • News
  • »
  • local-18
  • »
  • Bardhaman news| unknown fever in child: কমছে অজানা জ্বরের প্রকোপ! বাড়ছে শিশুদের সুস্থতার হার

Bardhaman news| unknown fever in child: কমছে অজানা জ্বরের প্রকোপ! বাড়ছে শিশুদের সুস্থতার হার

photo source local 18

photo source local 18

Bardhaman news| unknown fever in child: শনিবার নতুন করে কোনও শিশুর অজানা জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হওয়ার খবর মেলেনি।

  • Share this:

    #পশ্চিম বর্ধমান:  গত কয়েকদিনে অজানা জ্বরে (unknown fever in child) আক্রান্ত হয়ে বহু শিশু ভর্তি হয়েছিল পশ্চিম বর্ধমান জেলার হাসপাতালগুলিতে। তবে সাম্প্রতিক পরিসংখ্যান বলছে, অবস্থার উন্নতি হয়েছে অনেকটাই। অনেক শিশু সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গিয়েছে। শনিবার নতুন করে কোনও শিশুর অজানা জ্বরে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার খবর পাওয়া যায়নি । স্বাভাবিকভাবেই এই খবর স্বস্তি দিচ্ছে জেলা প্রশাসনকে।

    তবে সূত্রের খবর, জেলার স্বাস্থ্য আধিকারিকদের এই নিয়ে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। শিশুদের(unknown fever in child) স্বাস্থ্যের দিকে বিশেষভাবে নজর দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। শিশু বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক একই নিদান দিচ্ছেন। পরিবারের সদস্যদের প্রতি যত্নবান হওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন তারা।

    জেলার স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে পাওয়া খবর অনুযায়ী, শিশুদের (unknown fever in child)সুস্থ হওয়ার হার অনেকটাই বেড়েছে। গত দুদিন আগে জেলাজুড়ে যে সংখ্যাটা প্রায় ১৫০ এর কাছাকাছি ছিল, সেই সংখ্যা কমেছে অনেকটা। বর্তমানে আসানসোল জেলা হাসপাতালে ৫০ থেকে ৬০ টি জন শিশু অজানা জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি রয়েছে। কোনও শিশুর অবস্থা সঙ্কটজনক নয়। তাদের সাধারণ চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। গতকাল বেশ কয়েকটি শিশুরা আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হলেও, এদিন নতুন করে কোনও শিশু অজানা জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হয়নি আসানসোল জেলা হাসপাতালে।

    অন্যদিকে, দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালেও অনেকটাই স্বস্তির(unknown fever in child) ছবি। গত দু-তিন দিন আগে যেখানে প্রায় ৪২ টি শিশু অজানা জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি ছিল, সেই সংখ্যাটা প্রায় অর্ধেক হয়ে গিয়েছে। বর্তমানে ২২ টি শিশু অজানা জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি রয়েছে। বাকি শিশুগুলি সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গিয়েছে। এখন যারা ভর্তি রয়েছে, তাদের সাধারণ চিকিৎসা চলছে বলে খবর।

    তবে শিশু বিশেষজ্ঞরা বলছেন, জেলাজুড়ে শিশুদের (unknown fever in child)সুস্থতার হার বাড়লেও গা-ছাড়া মনে ভাব দেখালে চলবে না। জেলা প্রশাসনকে যেমন শিশুদের স্বাস্থ্যের ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবে, ঠিক তেমনভাবেই পরিবারের সদস্যদের সতর্ক থাকতে হবে। যে সমস্ত বাড়িতে শিশু রয়েছে, তাদের দিকে বিশেষ নজর দিতে হবে। ঋতু পরিবর্তনের সময় যাতে কোনোভাবেই ঠাণ্ডা না লাগে, সে দিকেও নজর দিতে হবে। বাইরে চলাফেরার ক্ষেত্রে জুতো পরা অবশ্য প্রয়োজনীয়। পাশাপাশি ঠান্ডা জাতীয় খাবার এই সময় বর্জন করতে হবে। শিশুদের কোনওরকম সমস্যা দেখা দিলে, চিকিৎসকের সঙ্গে পরামর্শ করার উপদেশ দিচ্ছেন শিশু বিশেষজ্ঞরা। তাদের শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে, তৎক্ষণাৎ স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে যেতে বলা হচ্ছে।

    তবে চলতি সপ্তাহে জেলাজুড়ে অজানা জ্বরের(unknown fever in child) প্রকোপ যেভাবে বৃদ্ধি পেয়েছিল, তা চিন্তার ভাঁজ ফেলেছিল প্রশাসনের কপালে তবে সুস্থতার ঊর্ধ্বমুখী স্বস্তি দিচ্ছে সবাইকে। একযোগে সমস্ত বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা বলছেন, শিশুদের স্বাস্থ্যের ব্যাপারে সামান্য সতর্ক থাকলে এই অজানা জ্বরের বিপদ এড়ানো যাবে।

    Nayan Ghosh

    Published by:Piya Banerjee
    First published: