শিশু ডান হাতি হবে না বাঁ হাতি? নির্ভর করছে স্তুন্যদানের ওপর

সম্প্রতি কলকাতার সাউথ সিটি মলের এক ঘটনা নিয়ে দেশজোড়া বিতর্কের ঝড় উঠেছিল ৷ সাউথ সিটি মলে মহিলাকে স্তন্যদানে বাধা দেওয়ার ঘটনায় নেটিজেনদের কটাক্ষের মুখে পড়ে শপিংমল কর্তৃপক্ষ ৷ সন্তানকে স্তন্যদানে প্রথমে বাধা, হেনস্থা ও পরে ফেসবুকে কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে এক মহিলাকে ‘অপ্রীতিকর’ আক্রমণ করার ঘটনাতেও অভিযোগের আঙুল ওঠে শপিং মলের দিকে ৷photo: collected

  • Share this:

    #ওয়াশিংটন: আপনি কি ডান হাতি না বাঁ হাতি? জানেন কি শৈশবে কতক্ষণ আমাদের স্তন্যপান করানো হয়েছে তার ওপর নির্ভর করছে আমরা ডান হাতি হতে চলেছি না বাঁ হাতি৷ জানাচ্ছেন ওয়াশিংটন ইউনিভার্সিটির গবেষকরা৷

    গবেষকরা জানাচ্ছেন, যেই শিশুদের ৯ মাসের বেশি সময় ধরে স্তন্যপান করানো হয়েছে তাদের মধ্যে ডান হাতি হওয়ার সম্ভাবনা বেশি৷ অন্যদিকে, যাদের শুরু থেকেই বোতলে দুধ খাওয়ানোর অভ্যাস করানো হয় তাদের মধ্য বাঁ হাতি হওয়ার প্রবণতা দেখা যায়৷

    এই বিষয়ে গবেষক ফিলিপ হুজল বলেন, স্তন্যপান আমাদের মস্তিষ্কের নিয়ন্ত্রণ ক্ষমতা বাড়িয়ে তোলে৷ শিশুদের অন্তত ৬ থেকে ৯ মাস পর্যন্ত স্তন্যপান করানো হলে মস্তিষ্কের চিনে নিতে সুবিধা হলে কোন হাতে আমাদের জোর বেশি৷

    এই গবেষণার জন্য ৬২ হাজার ১২৯ জন মা-শিশু জুটিকে বেছে নেওয়া হয়৷ সমীক্ষার রিপোর্টে গবেষকরা জানান, যেই শিশুদের এক মাস পর্যন্ত স্তন্যপান করানো হয়েছে, যাদের ৬ মাস পর্যন্ত স্তন্যপান করানো হয়েছে এবং যাদের ৬ মাসের বেশি সময় পর্যন্ত স্তন্যপান করানো হয়েছে তাদের মধ্যে যাদের বোতলে দুধ খাওয়ানো হয়েছে তাদের তুলনায় বাঁ হাতি হওয়ার সম্ভাবনা যথাক্রমে ৯, ১৫ এবং ২২ শতাংশ পর্যন্ত কম৷

    আমাদের শৈশবেই নির্ধারিত হয়ে যায় কোন হাতের ব্যবহার জীবনে বেশি হবে৷ এর সঙ্গে জিনগত কোনও সম্পর্ক নেই৷

    ল্যাটেরালিটি: অ্যাসিমেট্রিজ অফ ব্রেন, বডি অ্যান্ড কগনিশন জার্নালে এই গবেষণার রিপোর্ট প্রকাশিত হয়েছে৷

    First published: