শেষ হতে চলেছে যৌনকর্মী, পর্নতারকাদের দিন ! কাজ হারানোর আশঙ্কায় দিনগোনা...

শেষ হতে চলেছে যৌনকর্মী, পর্নতারকাদের দিন ! কাজ হারানোর আশঙ্কায় দিনগোনা...
representative image

আর থাকবে না পর্নস্টার, যৌনকর্মীরা

  • Share this:

বিদায় নিতে চলেছেন নীল ছবির তারকা অর্থাৎ পর্নস্টার এবং যৌনকর্মীরা ... এমন আশঙ্কা খোদ পর্নতারকা, যৌনকর্মীদেরই। কিন্তু কেন এমন ভয় বাসা বাঁধল ? জানা গেল খোদ পর্নতারকা, যৌনকর্মীদের মুখ থেকেই! তাঁদের আশঙ্কার মূল কারণ, সেক্স রোবোটের আবিষ্কার। ভয়, খুব শীঘ্রই সেক্স রোবট তাঁদের স্থান দখল করে নেবে। তাঁদের মত, একটা সময়ে পর্নমার্কেটে রাজ করবে শুধুমাত্র রোবোটরাই। তাঁরা জানান, 'এখনই বিষয়টি নিয়ে ভেবে দেখার সময়। এইমুহূর্তে আমরা এমন একটা সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছি, যখন সেক্স রোবট তৈরি হচ্ছে, এখনও বাণিজ্যিকভাবে অতটা ছড়িয়ে পড়েনি। এরপর এমন একটা সময় আসবে যখন কম-বেশি সবার কাছেই সেক্স রোবট থাকবে। তখন আর আমাদের প্রয়োজন পড়বে না। '

বিগত বেশকয়েকমাস ধরেই বিশ্বের একাধিক কোম্পানি বিশেষ ধরনের কিছু রোবট তৈরি করেছে। এই রোবটগুলোকে তারা যৌন কর্মীদের বিকল্প হিসেবে ঘোষণা করেছে। নতুন প্রযুক্তিতে তৈরি সেক্স রোবটগুলো একেবারেই মানুষের মতো। দিনদিন এইসমস্ত সেক্সরোবটদের প্রতি মানুষের আগ্রহও বাড়ছে। কাজেই, যৌন কর্মী থেকে পর্নতারকা... সবার ভয়ের কেন্দ্রে সেক্স রোবট!

রোবটের সঙ্গে সম্পর্ক, প্রেম, এমনকী যৌন সম্পর্ক স্থাপন করতে পারবে মানুষ...বাস্তবে তাহলে এমনটাই হতে চলেছে... ইতিমধ্যেই হলিউডের দুটি সিনেমা ‘হার (Her)’ এবং ‘এক্স মেশিনা’-য় দেখা গিয়েছে মানুষ ও রোবটের প্রেমকাহিনি। যৌন সম্পর্কেও জড়িয়েছে তারা। গ্রিক রূপকথায়ও আছে এমন কল্প কাহিনী। সাইপ্রাস দ্বীপের ভাস্কর পিগম্যালিয়ন তার নিজের তৈরি করা একটি মূর্তির প্রেমে পড়ে যায়।

তবে এবার আর সিনেমার চিত্রনাট্য বা সাহিত্যের পাতা নয়... বাস্তবেই মিলছে সেক্স রোবোট। এককথায়, যৌনতা এবং প্রযুক্তির ক্ষেত্রে নতুন একটি বিপ্লবের দ্বারপ্রান্তে আমরা।

First published: February 1, 2020, 2:18 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर