Home /News /life-style /
অ্যাঞ্জিওপ্লাস্টি চিকিৎসায় আশার আলো, Bioresorbable Scaffold-এর সাহায্যে তৈরি কলকাতার হাসপাতাল

অ্যাঞ্জিওপ্লাস্টি চিকিৎসায় আশার আলো, Bioresorbable Scaffold-এর সাহায্যে তৈরি কলকাতার হাসপাতাল

Representational Image

Representational Image

মেডিকা সুপারস্পেশ্যালিটি হাসপাতাল ভারতের হাতে গোনা কয়েকটি হাসপাতালের মধ্যে একটি যারা এই প্রযুক্তি ব্যবহার করে চিকিৎসা পরিষেবা দেওয়ার জন্য ভারত সরকারের তরফে অনুমোদন পেয়েছে।

  • Share this:

#কলকাতা: স্বাস্থ্য পরিষেবায় সর্বাধুনিক প্রযুক্তি রয়েছে মেডিকা সুপারস্পেশ্যালিটি হাসপাতালে (Medica Superspecialty Hospital)। এমনকী চিকিৎসার ক্ষেত্রে পূর্ব ভারতের বেসরকারি হাসপাতালের মধ্যে প্রথম সারিতেই রয়েছে মেডিকার নাম। এবার অ্যাঞ্জিওপ্লাস্টি (Angioplasty) চিকিৎসার ক্ষেত্রে অ্যাবজর্বেবল স্টেন্ট (Absorbable Stent) বা বায়ো রিজর্বেবল স্ক্যাফোল্ড (Bioresorbable Scaffold) পরিষেবা নিয়ে হাজির হয়েছে তারা। মেডিকা সুপারস্পেশ্যালিটি হাসপাতাল ভারতের হাতে গোনা কয়েকটি হাসপাতালের মধ্যে একটি যারা এই প্রযুক্তি ব্যবহার করে চিকিৎসা পরিষেবা দেওয়ার জন্য ভারত সরকারের তরফে অনুমোদন পেয়েছে। মেরিল লাইফ সায়েন্সেসের (Meril Life Sciences) তৈরি সম্পূর্ণ দেশীয় প্রযুক্তি MeRes100 হালে অ্যাঞ্জিওপ্লাস্ট রোগী চিকিৎসায় সব চেয়ে উন্নত প্রযুক্তি বলে মনে করা হচ্ছে। সম্প্রতি এই বায়ো রিজর্বেবল স্ক্যাফোল্ডের কার্যকারিতা নিয়ে একটি আলোচনা চক্র চলে, এই অনুষ্ঠানের সঞ্চালনা করেন ড. রবিন চক্রবর্তী (Rabin Chakraborty)। সঙ্গে ছিলেন কার্ডিওভাসকুলার ডিজিজের চিকিৎসকরা। তাঁরা হলেন ড. দিলীপ কুমার (Dilip Kumar), ড. অরিন্দম পান্ডে (Arindam Pande), ড. সৌম্য পাত্র (Soumya Patra)।

মেডিকা সুপারস্পেশ্যালিটি হাসপাতালের ইন্টারভেনশনাল কার্ডিওলজিস্ট (Interventional Cardiologist ) বিভাগের সিনিয়র কনসালট্যান্ট ড. দিলীপ কুমার বলেন, “নতুন বায়ো রিজর্বেবল স্ক্যাফোল্ড পদ্ধতি চিকিৎসা ক্ষেত্রে নতুন যুগ নিয়ে এসেছে। রক্তনালী বা ধমনী সঙ্কীর্ণ হয়ে কাজ করা বন্ধ করে দিলে এই প্রযুক্তি দিয়ে তা স্বাভাবিক করা সম্ভব। বিশেষ করে হৃৎপিণ্ডের পেশিতে রক্তসঞ্চালন বন্ধ হয়ে গেলে তা পুনরুদ্ধারে সহায়তা করবে এই প্রযুক্তি। এটি একটি ছোট জালওয়ালা টিউবের মতো দেখতে।”

মেডিকা সুপারস্পেশ্যালিটি হাসপাতালের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ড. রবিন চক্রবর্তী বলেন, “এই প্রযুক্তি নিয়ে আসার জন্য মেডিকা হাসপাতাল সামনে থেকে লড়াই করেছে। কলকাতার মেডিকা এই নতুন প্রযুক্তির সাহায্যে পশ্চিমবঙ্গ ও অন্যান্য রাজ্যের মানুষদেরও ভালো পরিষেবা দিতে পারবে।”

অ্যাঞ্জিওপ্লাস্ট রোগীর চিকিৎসার ক্ষেত্রে উন্নত প্রযুক্তির স্রষ্টা মেরিল লাইফ সায়েন্সেস। এই সংস্থা বিশ্বের মধ্যে প্রথম ১০০ মাইক্রন থিন স্ট্রাট স্ক্যাফোল্ড পরিষেবা দিচ্ছে, যা ড্রাগস কন্ট্রোলার জেনারেল অফ ইন্ডিয়া (DCGI) এবং ইউরোপের সিই (CE) দ্বারা অনুমোদন পেয়েছে। এর কার্যকারিতা নিয়ে ভারত-সহ গোটা বিশ্বে গবেষণা করা হয়েছে। চিকিৎসাবিজ্ঞানীদের মতে অ্যাঞ্জিওপ্লাস্ট রোগীর চিকিৎসায় আশার আলো দেখা যাচ্ছে এই প্রযুক্তির হাত ধরে।

Published by:Siddhartha Sarkar
First published:

Tags: Angioplasty

পরবর্তী খবর