Home /News /life-style /
Korean Diet : কোরিয়ান খাবার গোচুজাং! কেন এই খাবারের এত রমরমা শুরু হয়েছে জানেন?

Korean Diet : কোরিয়ান খাবার গোচুজাং! কেন এই খাবারের এত রমরমা শুরু হয়েছে জানেন?

Gochujang

Gochujang

Korean Diet : এই ঝাল লাল রঙের পেস্ট সুস্বাদু খাবারগুলিতে একটি ক্লাসিক স্বাদ এবং টেক্সচার যোগ করে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: হট চিলি গার্লিক নুডুলস থেকে ডালগোনা ক্যান্ডি থেকে মশলাদার কিমচি পর্যন্ত কোরিয়ান খাবারের জনপ্রিয়তা দিন দিন বেড়েই চলছে। এই নতুন কোরিয়ান মশলা গোচুজাংও তার অতুলনীয় স্বাদ এবং ওজন কমানোর জন্য বিশ্ব জুড়ে কদর পেয়েছে।

গোচুজাং কী?

গোচুজাং হল কোরিয়ান রন্ধনশৈলীর একটি সর্বোত্তম উপাদান, এই মশলাটি ঝাল, নোনতা, মিষ্টি স্বাদের একটি মিলন, যা বিভিন্ন খাবারকে আরও সুস্বাদু করতে ব্যবহৃত হয়। এই ঝাল লাল রঙের পেস্ট সুস্বাদু খাবারগুলিতে একটি ক্লাসিক স্বাদ এবং টেক্সচার যোগ করে।

কেন বাড়ছে গোচুজাংয়ের জনপ্রিয়তা?

গোচুজং এসেছে গোচু শব্দ থেকে যার অর্থ লঙ্কা এবং জাং অর্থ পেস্ট। এই মশলা চিনা, জাপানি এবং কোরিয়ানের মতো বেশিরভাগ প্রাচ্য রান্নায় ব্যবহৃত একটি অপরিহার্য উপাদান। মজার বিষয় হল, গোচুজাং-এর ইতিহাস নবম শতাব্দীর যেখানে একটি চিনা নথিতে নির্দিষ্ট খাবার তৈরিতে লঙ্কার পেস্টের ব্যবহার উল্লেখ করা হয়েছে। ইতিহাসের বইয়ে গোচুজাং-এর কোনও নির্দিষ্ট উল্লেখ নেই। যাই হোক, পূর্ব এশিয়ায় লঙ্কার ব্যবহারের উল্লেখ রয়েছে যা পর্তুগিজ ব্যবসায়ীদের ষোল শতকের বইয়ে পাওয়া যায়।

কেন এত স্পেশ্যাল এই গোচুজাং?

এই পেস্ট জাংডোতে ভরে (কোরিয়ান মাটির পাত্র) বছরের পর বছর ধরে রেখে দেওয়া হত। এটি অনেকটা কিমচির মতো খেতে। লাল মশলাদার পেস্টটিতে রয়েছে ভাতের স্টার্চ, সেটাই তার অনন্য স্বাদ এবং গন্ধের মূল কারণ। এছাড়া এখানে ফারমেন্ট করা সয়াবিনের একটি মিষ্টি সূক্ষ্ম স্বাদও থাকে, এর সঙ্গে উমামি এবং লঙ্কা যোগ করে মিশ্রণকে আরও সুস্বাদু করে তোলা হয়। এই পেস্টটি কোরিয়ান ক্লাসিক খাবার যেমন কিমচি, বিবিমবাপ, তেওকবোক্কি এবং ম্যারিনেট করা মাংস এবং চালের সুস্বাদু খাবার তৈরিতে ব্যবহৃত হয়।

আরও পড়ুন- রেগে গিয়ে সন্তানের সঙ্গে কথা বন্ধ করে দেন? অজান্তে শিশুর মানসিক স্বাস্থ্যের ক্ষতি করছেন না তো!

গোচুজাং কি ওজন কমাতে সাহায্য করে?

হ্যাঁ, গোচুজাং ওজন কমাতে সাহায্য করতে পারে। কারণ এই মশলা তৈরি করার সময় লঙ্কা ফারমেন্ট করা হয়। এর মধ্যে থাকে ক্যাপসাইসিন নামে পরিচিত একটি অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট। এই সক্রিয় জৈব যৌগটির উপস্থিতি বিপাকক্রিয়া বৃদ্ধিতে সহায়তা করে ওজন হ্রাস ত্বরান্বিত করে। এছাড়াও এই পেস্টটি যেহেতু ফারমেন্ট করে তৈরি করা হয় তাই এটি একটি স্বাস্থ্যকর প্রোবায়োটিক হিসাবেও গণ্য হয় এবং হজমশক্তি বাড়িয়ে অন্ত্রের স্বাস্থ্য ভালো রাখে।

Published by:Swaralipi Dasgupta
First published:

Tags: Diet, Weight Loss

পরবর্তী খবর