উদ্দাম নাচের পরেও হবে না পা ব্যাথা! জেনে রাখুন কি করতে হবে

উদ্দাম নাচের পরেও হবে না পা ব্যাথা! জেনে রাখুন কি করতে হবে

বর্ষবরণের আগে নিজেকে চার্জআপ করার জন্য বলব পায়ের যত্ন নিন।

  • Share this:

SREEPARNA DASGUPTA

#কলকাতা: এই লেখাটা লিখতে গিয়ে মনে পরে যাচ্ছে চন্দ্রবিন্দু ব্যান্ডের সেই বিখ্যাত গানটি,ত্বকের যত্ন নিন। না আপনাকে শুধু ত্বকের যত্নের কথা আজ আমি বলব না বরং বর্ষবরণের আগে নিজেকে চার্জআপ করার জন্য বলব পায়ের যত্ন নিন।

বুড়ো হোক বা বাচ্চা আট থেকে আশি এই নববর্ষে ঠিক বারোটা বাজার আগে এবং বারোটা বাজার পরে বেশ কয়েক ঘন্টা কারোর কোনও কিছুতে বাধা থাকে না । একটা বছর শেষ হচ্ছে আর তারপরেই শুরু হচ্ছে আরেকটা নতুন বছর। তাই মনের সব সাধ পূরণ ও নতুন বছরের নতুন রেসোলিউশন এ ব্যস্ত থাকেন সকলে। তবে ৩১ এর রাতে যেটা ননস্টপ চলতে থাকে তা হলো দেদার খানা পিনা ও গানের সঙ্গে উদ্দম নাচ।

যে কোনো পার্টিতে নাচ একটা অবিচ্ছেদ্দ্য অঙ্গ। সব বয়সের মানুষ এই নাচের তালে তালে এনজয় করে থাকেন। তবে সবাই একটা বিষয়ে নিশ্চয়ই এক মত হবেন যে নাচের সময়ের দারুন আনন্দ পেলেও পায়ের গোড়ালি থেকে শুরু করে পায়ের আঙুল এমনকী, পায়ের কাফ মাসল জানান দেয় যে গতকাল একটু বেশি বাড়াবাড়ি হয়ে গিয়েছিল । কি তাইতো? তাই বলছি...পার্টিতে নাচ কেন বন্ধ করবেন? বরং এমন কিছু টিপস আছে যাতে নাচ ও বজায় থাকবে আর পা-ও।

প্রথমত, নিজের পাকে দিন যথেষ্ট প্রটেকশন যে কোনো পার্টিতে যাওয়ার আগে। যেমন ধরুন, আপনি একটা দারুন ওয়েস্টার্ন আউটফিট পড়লেন তার সঙ্গে দারুন হিলস ও পড়লেন। কিন্তু ঐ যে বললাম,নাচের পরে বাড়িতে এসে পা ব্যথা হবেই। তাই পার্টিতে যাওয়ার আগে নিজের হিলস এর ভেতরে বসিয়ে নিন সফট শু কুশন। অনলাইনে অনেক বিদেশি প্রোডাক্টই পাওয়া যায়, সেইরকম এই বিশেষ জুতোর ভেতরের কুশন ও সহজেই মিলবে অনলাইনে।

এছাড়াও আপনার হাইট যদি বেশ ভালই হয় তাহলে আপনি বাদ দিতে পারে উঁচু হিলস। সেক্ষেত্রে নিজের আউটফিটের সঙ্গে বেছে নিন হরেক রকমের ফ্ল্যাটস ডিজাইন থেকে যে কোনও একটি। ফ্লাটস এর মধ্যে স্ট্র্যাপি সুস,ব্যালেরিনা,সফট বুটস ও হয়ে উঠতে পারে আপনার চয়েস। ফ্যাশন ও হবে সঙ্গে পায়ের যত্ন ও। ব্লক হিলস ও আপনার পায়ের অনেকটা আরামের কারণ হতে পারে। ব্লকস পায়ে বেশ কয়েক ঘন্টা নাচলেও নো প্রব্লেম।

আরও একটা বিষয় মাথায় রাখতে হবে।পায়ের নখ খুব বেশি বড় না থাকে।তাহলে নাচের সময় ওই বড় নখ হয়ে উঠতে পারে ঝঞ্ঝাটময়।নখের জন্য নাচার পরে বেদম ব্যাথা হতে পারে আঙুলে।

এতো গেল পায়ের সুরক্ষার কথা কিন্তু পার্টির পরের দিন পায়ের সব ক্লান্তি কাটানোর জন্য একটা দারুন ফুট ম্যাসাজ করিয়ে নিওয়া খুবই দরকার।একটা ভালো থাই ম্যাসাজ বা ডিপ টিসু ম্যাসাজ আপনার পায়ের পেশীগুলোকে করবে রিজুভিনেট। আবারও ফুড়ফুড়ে মেজাজে হেসে খেলে কথা বলবে আপনার পা !

First published: 04:08:43 PM Dec 30, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर