• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • ফুলবাগান থেকে সেক্টর ফাইভ বা করুণাময়ী শীঘ্রই যাওয়া যাবে ২০ টাকায়

ফুলবাগান থেকে সেক্টর ফাইভ বা করুণাময়ী শীঘ্রই যাওয়া যাবে ২০ টাকায়

ফুলবাগান থেকে সল্টলেক করুণাময়ী অবধি বা সেক্টর ফাইভ যেতে গেলে এতদিন ভরসা ছিল অটো বা বাস।

ফুলবাগান থেকে সল্টলেক করুণাময়ী অবধি বা সেক্টর ফাইভ যেতে গেলে এতদিন ভরসা ছিল অটো বা বাস।

ফুলবাগান থেকে সল্টলেক করুণাময়ী অবধি বা সেক্টর ফাইভ যেতে গেলে এতদিন ভরসা ছিল অটো বা বাস।

  • Share this:

#কলকাতা: কমিশনার অফ রেলওয়ে সেফটির পরিদর্শন শেষ। চালু হবার তোড়জোড় ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে ইস্ট ওয়েস্ট মেট্রো প্রকল্পের প্রথম পাতাল স্টেশন ফুলবাগানে৷ কিন্তু এই স্টেশন চালু হয়ে গেলে ভাড়া কি হবে? মেট্রো সূত্রে খবর সবচেয়ে বেশি ভাড়া আপাতত হচ্ছে ২০ টাকা। সবচেয়ে কম ভাড়া হচ্ছে ৫ টাকা। ফুলবাগান থেকে সল্টলেক করুণাময়ী অবধি বা সেক্টর ফাইভ যেতে গেলে এতদিন ভরসা ছিল অটো বা বাস। সেক্টর ফাইভ বা করুণাময়ী থেকে ফুলবাগান অবধি  অটোর ভাড়া এখন ৩০ টাকা। বাসের ভাড়া ১০ টাকা। অনেক সময় আবার অটো বদল করে করে যেতে হয়। ফলে মেট্রো চালু হয়ে গেলে সেই অসুবিধা অনেকটাই মিটবে। সহজেই যাতায়াত করতে পারবেন যাত্রীরা। ভাড়ার যে তালিকা প্রকাশ হয়েছে সেখানে দেখা যাচ্ছে ফুলবাগান থেকে সল্টলেক স্টেডিয়াম অবধি ভাড়া হবে ৫ টাকা। বেংগল কেমিক্যাল অবধি ভাড়া হবে ১০ টাকা। সিটি সেন্টার স্টেশন অবধি ভাড়া হবে ১০ টাকা। সেন্ট্রাল পাক স্টেশন অবধি ভাড়া হবে ১০ টাকা। করুণাময়ী ও সেক্টর ফাইভ স্টেশন অবধি ভাড়া হবে ২০ টাকা করে। ভাড়া নিয়ে আপত্তি নেই যাত্রীদের৷ তারা চাইছেন দ্রুত চালু হোক এই পরিষেবা। যদিও মেট্রো চালু হলে কপাল পুড়বে অটো চালকদের।

ফুলবাগান মেট্রো স্টেশনের সামনেই রয়েছে অটো স্ট্যান্ড। মেট্রোয় যে ভাড়ায় ৫ টাকা দিলেই একটা স্টপেজ চলে যাওয়া যায় সেখানে সেই ভাড়া ১০ টাকা। ফলে সাধারণ মানুষের সুবিধা হবে অনেকটাই। অটো চালকদের বক্তব্য, "বেশি ভাড়া নেওয়া হয় না। যেমন খরচ সেই হিসেবেই ভাড়া ঠিক করা হয়। এখন মেট্রো চালু হলে দেখতে হবে আমাদের রুটে কি করা যায়।" তবে যাত্রীদের বড় অংশ জানাচ্ছেন তারা মেট্রো সফর করবেন। অদ্রিজা বিশ্বাস সেক্টর ফাইভে চাকরি করেন। তিনি জানাচ্ছেন, "বেলেঘাটায় থাকি। ফুলবাগানে এসে মেট্রো নিয়ে নেব। আরামদায়ক যাত্রা। ১৫ মিনিটে অফিস চলে যাব।" একই বক্তব্য প্রিয়ব্রত জানার। তিনি জানাচ্ছেন, "আমি ফুলবাগানে থাকি। এখান থেকে করুণাময়ী যেতে আমার ৪০ টাকা খরচ হত। আসতে আবার ৪০। সেই খরচ আমার অনেক কমে যাবে। সময় ও বাঁচবে।" সল্টলেক সেক্টর ফাইভ থেকে সল্টলেক স্টেডিয়াম অবধি মেট্রো পরিষেবা আগেই চালু হয়েছে।

তবে এই পথে যাত্রী অনেকটাই কম। ফুলবাগান বা শিয়ালদহ চালু হয়ে গেলে যাত্রী বাড়বে বলে আগে থেকেই পরিকল্পনা করেছিল মেট্রো। দ্রুত সেই কাজ শেষ করে কে এম আর সি এল। ফুলবাগান মেট্রো স্টেশন যাত্রী পরিবহণের জন্যে চালু হয়ে গেলে। পূর্ব কলকাতার এই অংশে প্রথম কোন স্টেশন চালু হবে। এই এলাকার মানুষের যাতায়াতে সুবিধা বাড়বে৷ আগামীদিনে অত্যন্ত সহজে একদিকে শিয়ালদহ, হাওড়া স্টেশন বা এসপ্ল্যানেড চলে যেতে পারবে। অন্যদিকে সহজেই যেতে পারবে সেক্টর ফাইভ, করুণাময়ী। ফলে যাত্রী পরিষেবার মাধ্যমে লাভ হবে মেট্রোর। কে এম আর সি এল আধিকারিকরা আশ্বস্ত বোধ করছেন শীঘ্রই অনুমতি এসে যাবে। দীর্ঘ ২৬ বছর পরে ফের পাতাল প্রবেশ হবে নতুন মেট্রো স্টেশনে যাত্রীদের।

Published by:Akash Misra
First published: