• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • Tourism : বৃষ্টি, ধসের মধ্যেই বেড়ানোর আনন্দ, সিকিমের গুরডোংগমার হ্রদে বরফখেলা পর্যটকদের

Tourism : বৃষ্টি, ধসের মধ্যেই বেড়ানোর আনন্দ, সিকিমের গুরডোংগমার হ্রদে বরফখেলা পর্যটকদের

Tourism : না হয় আজ টাইগার হিলে (Tiger Hill) সূর্যোদয় দেখা হল না, কিংবা ভিউ পয়েন্ট থেকে হয়নি কাঞ্চন দর্শনও! তবু পর্যটকেরা আজ হোটেলের চার দেওয়ালের বাইরে।

Tourism : না হয় আজ টাইগার হিলে (Tiger Hill) সূর্যোদয় দেখা হল না, কিংবা ভিউ পয়েন্ট থেকে হয়নি কাঞ্চন দর্শনও! তবু পর্যটকেরা আজ হোটেলের চার দেওয়ালের বাইরে।

Tourism : না হয় আজ টাইগার হিলে (Tiger Hill) সূর্যোদয় দেখা হল না, কিংবা ভিউ পয়েন্ট থেকে হয়নি কাঞ্চন দর্শনও! তবু পর্যটকেরা আজ হোটেলের চার দেওয়ালের বাইরে।

  • Share this:
দু'দিন আগেই হাতের মুঠোয় ছিল কাঞ্চনজঙ্ঘা! কার্যত ঘুম ভাঙতেই ঘুমন্ত বুদ্ধ দর্শন! এতেই শৈলশহরে মজে ছিল ভ্রমণপিপাসুরা! কিন্তু সোমবার বিকেলের পর থেকেই আবহাওয়ার পালা পরিবর্তন দেখা যায়। কালো মেঘে ঢাকা পড়ে যায় পাহাড়! আর মঙ্গলবার সকাল থেকেই অঝোর বর্ষণ ৷ . নিম্নচাপের (Depression) প্রভাবে বৃষ্টিতে আজ পাহাড়ের ঘুম ভেঙেছে একটু দেরিতে! তাতে কী এসে যায়! পুজোর মরসুমে পর্যটকঠাসা পাহাড়! না হয় আজ টাইগার হিলে (Tiger Hill) সূর্যোদয় দেখা হল না, কিংবা ভিউ পয়েন্ট থেকে হয়নি কাঞ্চন দর্শনও! তবু পর্যটকেরা আজ হোটেলের চার দেওয়ালের বাইরে। কেউ ম্যালে জমিয়ে আড্ডায় ব্যস্ত তো! কেউ ব্যস্ত কেনাকাটায়! কেউ আবার গ্লিনারিস বা ক্যাভেণ্ডার্সে গরম চায়ের কাপে চুমুক দিতে ব্যস্ত! ঘুরতে এসে রুমে বসে থাকা যায় কি! বলছেন পর্যটকেরাই (Tourists)। ঘুরতে এসে হোটেলবন্দি! এক্কেবারেই না! তাই ছাতা মাথায় নিয়েই বেড়িয়ে পড়া! ম্যাল থেকে বাজার! সর্বত্রই গিজগিজ করছে পর্যটকদের ছাতায়। পাহাড়ের বৃষ্টি উপভোগ করতে বাইরে বেড়িয়ে পড়া! বৃষ্টির সৌন্দর্য দেখতে। বৃষ্টির হাত ধরে ঠান্ডাও বেড়েছে। কিন্তু বন্দি রাখা যায়নি পাহাড়ে বেড়াতে আসা পর্যটকদের! অন্যদিকে রাজ্য যখন বৃষ্টিতে ভাসছে, তখন অন্য ছবি উত্তর সিকিমে! গুরডোংগমারে তুষারপাত! মেতে উঠেছে পর্যটকেরা! গোটা গুরডোংগমার হ্রদ সাদা বরফের চাদরে মোড়া। চারপাশ শুধুই সাদা বরফে ঢাকা! বরফের টুকরো নিয়ে খেলায় মত্ত পর্যটকেরা! এদিকে টানা বৃষ্টির জেরে মিরিক মহকুমার চা বাগান এলাকায় বেশ কয়েকটি বাড়ি ধসে পড়েছে। তবে কোনো আহত হওয়ার খবর নেই। বৃষ্টির জেরে ব্যাহত জনজীবন।টানা বৃষ্টির জেরে আপ ও ডাউন টয়ট্রেনও আটকে গেল। এনজেপি-দার্জিলিং টয়ট্রেন পরিষেবা ব্যাহত। দার্জিলিংগামী আপ ট্রেন থামানো হয় রংটং স্টেশনে। ফিরিয়ে আনা হচ্ছে। অন্যদিকে ডাউন ট্রেন কার্শিয়ং স্টেশন থেকে দার্জিলিংয়ে ফিরিয়ে নেওয়া হচ্ছে। টুং ও কার্শিয়ং স্টেশনের মাঝে একাধিক জায়গায় লাইনে ধস। সংস্কারের কাজ শুরু হয়েছে বলে দার্জিলিং হিমালয়ান রেল সূত্রে জানা গিয়েছে।   (প্রতিবেদন- পার্থপ্রতিম সরকার )
Published by:Arpita Roy Chowdhury
First published: