‘বামেদের চেয়েও ভয়ঙ্কর তৃণমূল’, বিজেপির সংবর্ধনা সভায় এসে বিস্ফোরক শোভন

কমলে এসে বিস্ফোরক কানন ৷ দিল্লিতে বিজেপিতে যোগদানের পর মঙ্গলবার রাজ্যে ছিল শোভন-বৈশাখীর সংবর্ধনা ৷ সেই সভায় এসে পুরনো দল নিয়ে বহু ক্ষোভই উঠে এল শোভন চট্টোপাধ্যায়ের মুখে ৷

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Aug 20, 2019 06:11 PM IST
‘বামেদের চেয়েও ভয়ঙ্কর তৃণমূল’, বিজেপির সংবর্ধনা সভায় এসে বিস্ফোরক শোভন
File Picture
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Aug 20, 2019 06:11 PM IST

#কলকাতা: কমলে এসে বিস্ফোরক কানন ৷ দিল্লিতে বিজেপিতে যোগদানের পর মঙ্গলবার রাজ্যে ছিল শোভন-বৈশাখীর সংবর্ধনা ৷ সেই সভায় এসে পুরনো দল নিয়ে বহু ক্ষোভই উঠে এল শোভন চট্টোপাধ্যায়ের মুখে ৷ বলেন, ‘অস্বাভাবিক পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল তৃণমূলে ৷ ভয়ঙ্কর যন্ত্রণায় ছিলাম ৷ ৮ মাস কোনও রাজনৈতিক কর্মসূচীতে ছিলাম না ৷’

এখানেই শেষ নয়, শোভনের অভিযোগ- ‘তৃণমূল ছাড়তে বাধ্য হয়েছিলাম ৷ যন্ত্রণাদায়ক পরিস্থিতিতে ছিলাম ৷ বামেদের চেয়েও ভয়ঙ্কর তৃণমূল ৷’ একইসঙ্গে কাননের মুখে দিলীপ ঘোষের প্রশংসা ৷ নতুন দলে এসে রাজ্য বিজেপি সভাপতির প্রশংসায় পঞ্চমুখ শোভন ৷ বলেন, ‘মাসখানেক আগে দিলীপদার সঙ্গে কথা হয় ৷ দিলীপদার কথায় আন্তরিকতা ছিল ৷ বিজেপিতে যোগ দিতে বলেন দিলীপ ঘোষ ৷’

তৃণমূলের জন্মলগ্ন থেকেই শোভন মমতার পাশে ৷ রাজনীতির শুরু অবশ্য কংগ্রেসে৷ ১৯৮৫ সালে মাত্রা একুশ বছর বয়সে কলকাতা পুরসভার কাউন্সিলর হন শোভন ৷ ২০০০ সালে সুব্রত মুখোপাধ্যায় যখন কলকাতা মেয়র তখন শোভনকে দায়িত্ব দেওয়া হয় জল সরবরাহ দফতরের ৷ সেই থেকে শোভন হয়ে ওঠেন ‘জল শোভন’৷ ২০১০ সালে শোভনকে কলকাতা পুরসভার মেয়র করেন মমতা ৷ ২০১৫ সালে আবার ৷ ২০১৬ সালে বেহালা পূর্ব বিধানসভা কেন্দ্র থেকে ভোটে জেতেন শোভন ৷ মমতা তাঁকে তিনটি দফতরের দায়িত্ব দেন - দমকল, আবাসন ও পরিবেশ ৷ এর পাশাপাশি দক্ষিণ ২৪ পরগনার তৃণমূল জেলা সভাপতির দায়িত্বও শোভনকেই দেন মমতা ৷

তৃণমূলে তিনি ছিলেন হেভিওয়েট। কলকাতার মেয়র। রাজ্যের তিন গুরুত্বপূর্ণ দফতরের মন্ত্রী। দক্ষিণ ২৪ পরগনার জেলা সভাপতি। এ হেন শোভন চট্টোপাধ্যায় যোগ দিলেন বিজেপিতে। সঙ্গে বন্ধু বৈশাখী ৷ লোকসভা ভোটে বিজেপি ভাল ফলের পর এ নিয়ে সাত জন তৃণমূল বিধায়ক গেরুয়া শিবিরে নাম লেখালেন ৷ শুভ্রাংশু রায়, সুনীল সিং,তুষার ভট্টাচার্য, উইলসন চম্প্রামারি, বিশ্বজিৎ দাস, মণিরুল ইসলামের পর এবার শোভন চট্টোপাধ্যায়।

First published: 04:40:58 PM Aug 20, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर