• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • ডেঙ্গি মোকাবিলায় কেন্দ্রের টাকা খরচ করা হয়নি, হাইকোর্টে কেন্দ্রের দেওয়া তথ্য অস্বস্তিতে রাজ্য

ডেঙ্গি মোকাবিলায় কেন্দ্রের টাকা খরচ করা হয়নি, হাইকোর্টে কেন্দ্রের দেওয়া তথ্য অস্বস্তিতে রাজ্য

File Photo

File Photo

ডেঙ্গি মোকাবিলায় কেন্দ্রের টাকা খরচ করা হয়নি, হাইকোর্টে কেন্দ্রের দেওয়া তথ্য অস্বস্তিতে রাজ্য

  • Share this:

    #কলকাতা: কেন্দ্রের চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ ৷ ডেঙ্গি মামলায় রাজ্যের অস্বস্তি শুক্রবার নতুন মাত্রা পেল । চলতি বছরের সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ডেঙ্গি নিয়ন্ত্রণে কেন্দ্রের দেওয়া ২৫২.৮০ লক্ষ টাকার মধ্যে রাজ্য খরচ করেছে মাত্র ৫.০৭ লক্ষ টাকা। এছাড়াও আরও দেড় কোটি টাকা দিয়েছে কেন্দ্র ৷

    পতঙ্গবাহিত রোগ নিয়ন্ত্রণের জন্য মোট ১৫০ লক্ষ টাকা দিয়েছে সেন্ট্রাল। রাজ্য খরচ করেছে ১ লক্ষ ২৬ হাজার টাকা। ডেঙ্গি প্রতিরোধে পরিবেশ সচেতনতায় কেন্দ্র দিয়েছে ২৫ লক্ষ টাকা। কোনও টাকাই রাজ্য খরচ করেনি। রোগ প্রতিরোধ খাতে ১০ কোটি ৯৭ লক্ষ টাকা খরচ করেনি রাজ্য। কেন্দ্রীয় সরকারের চাঞ্চল্যকর রিপোর্ট হাইকোর্টে পেশ।

    এদিন ডেঙ্গি রিপোর্ট নিয়ে হাইকোর্টে চলা মামলায় কেন্দ্র রিপোর্ট দিয়ে জানায়, ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত রাজ্যকে ১৯৪৪.৬৮ লক্ষ টাকা দেয় কেন্দ্র ৷ জাতীয় পতঙ্গবাহিত রোগ খাতে এই টাকা দেয় কেন্দ্রীয় সরকার ৷ শুধু মাত্র ডেঙ্গি নিয়ন্ত্রণ খাতে ২৫২.৮০ লক্ষ টাকা দেওয়া হয়েছে বলে দাবি ৷ এর মধ্যে রাজ্য খরচ করেছে মাত্র ৫.০৭ লক্ষ টাকা ৷ এছাড়া ডেঙ্গি নিয়ন্ত্রণে পরিবেশ সচেতনতা খাতেও দেওয়া হয়েছে দেড় কোটি টাকা ৷ তার মধ্যে এখনও পর্যন্ত ১.২৬ লক্ষ টাকা খরচ করেছে রাজ্য ৷ ডেঙ্গি নিয়ন্ত্রণ প্রশিক্ষণে ২৫ লক্ষ টাকা দেয় কেন্দ্র, তবে এই খাতে কোনও টাকা খরচ করা হয়নি বলে হাইকোর্টকে রিপোর্ট দিয়েছে স্বাস্থ্যমন্ত্রক ৷

    অন্যদিকে, কেন্দ্রের দাবি উড়িয়ে দিল রাজ্য ৷ হাইকোর্টে রাজ্যের তরফে তথ্য পেশ করে অ্যাডভোকেট জেনারেল দাবি করেন, ‘মাত্র ৯ কোটি টাকা দিয়েছে কেন্দ্র ৷ রাজ্যের খরচ হয়েছে ৫৫ কোটি টাকা ৷’

    বৃহস্পতিবার রাজ্যের ডেঙ্গি পরিস্থিতি নিয়ে বিচারপতিদের একাধিক প্রশ্নের উত্তর দিতে পারেননি অ্যাডভোকেট জেনারেল। ‘রাজ্য জ্বর নিয়ে হাসপাতালে ভরতি কত রোগী? এদের মধ্যে কতজনের ডেঙ্গি উপসর্গ রয়েছে? ডেঙ্গি পরীক্ষার জন্য আরডিটি বা র‍্যাপিড ডায়াগনিস্টিক টেস্ট নিষিদ্ধ। রাজ্যই নিষিদ্ধ করেছে। কিন্তু তা বন্ধে কী পদক্ষেপ করেছে রাজ্য? কোনও সারপ্রাইজ ভিজিট কি করা হয়েছে?’ এরকম একাধিক প্রশ্নের উত্তর দিতে পারেননি এজি ৷

    রাজ্যে শুক্রবার পর্যন্ত সরকারি হিসেবে ৪২ জনের মৃত্যু হয়েছে ৷ এর মধ্যে রাজ্যে সরকারি হাসপাতালে ডেঙ্গিতে মৃত ২৭ ৷

    First published: