একের পর এক আত্মহত্যা পড়ুয়াদের, মনের খোঁজ রাখতে এবার ডায়রির নিদান শিক্ষা দফতরের

একের পর এক আত্মহত্যা পড়ুয়াদের, মনের খোঁজ রাখতে এবার ডায়রির নিদান শিক্ষা দফতরের
  • Share this:

#কলকাতা: পড়ুয়াদের আত্মহত্যার প্রবণতা ঠেকাতে তৎপর স্কুল শিক্ষা দফতর। এখন থেকে স্কুল- ডায়রিতে শিশুদের মানসিক অবস্থা লিখতে হবে অভিভাবকদের। শিশু সুরক্ষা কমিশনের প্রস্তাব মেনে সিদ্ধান্ত স্কুল শিক্ষা দফতরের। প্রয়োজনে কাউন্সিলর নিয়োগ করবে সংশ্লিষ্ট স্কুল।

তিন পাতার সুইসাইড নোট। জুন মাসে ক্লাস টেনের ছাত্রী কৃতিকা পাল শেষ করে দিয়েছিল নিজের জীবন। দক্ষিণ কলকাতার নামী স্কুলের শৌচালয় থেকে উদ্ধার হয় মেধাবী ছাত্রীর দেহ। পড়াশোনার চাপ ও বিভিন্ন মানসিক কারণে আত্মহত্যার মত সিদ্ধান্ত নেয় কৃতিকা।

সম্প্রতি রানিকুঠিতেও আত্মহত্যা করে ক্লাস টুয়েলভের ছাত্রী সুমেধা বসু। পড়ুয়াদের মনে কী চলছে? ক্ষোভ-অভিমান-রাগ জমে নেই তো? এসব জানতে এবার সতর্ক স্কুল শিক্ষা দফতর। স্কুল থেকে দেওয়া ডায়েরিতে অভিভাবকদের সন্তানের মানসিক পরিস্থিতি নিয়মিত লিখতে হবে।

- ডায়েরিতে আলাদা কলাম থাকবে

- ওই কলামে অভিভাবকদের লিখতে হবে পড়ুয়ার মানসিক পরিস্থিিত কেমন আছে

পড়ুয়াদের আত্মহত্যার প্রবণতা ঠেকাতে শিশু সুরক্ষা কমিশনের প্রস্তাব মেনে উদ্যোগী স্কুল শিক্ষা দফতর। অভিভাবকদের বাধ্যতামূলকভাবে ডায়েরিতে লিখতে হবে

- সন্তান কোনও চিকিৎসকের পর্যবেক্ষণে আছে কি না

- চিকিৎসকের নাম ও ফোন নম্বরও দিতে হবে

- স্কুলের পড়াশোনার চাপ নিতে পড়ুয়া তৈরি কি না

রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর ইতিমধ্যেই সরকারি ও সরকারি অনুমোদিত স্কুলগুলিতে ডায়েরি দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করেছে। আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকেই পড়ুয়াদের এই ডায়েরি দেওয়া হবে।

- অভিভাবকদের লেখার পর ক্লাস টিচাররা ডায়েরি দেখবেন

- ক্লাস টিচাররা প্রধান শিক্ষকের সঙ্গে কথা বলবেন

- প্রয়োজনে স্কুলে কাউন্সিলর আনা হবে

স্কুল শিক্ষা দফতর মনে করছে, এতে আত্মহত্যার প্রবণতা যেমন ঠেকানো যাবে, তেমনিই শিক্ষক বা অভিভাবকদের সঙ্গে পড়ুয়ার মানসিক দূরত্বও কমবে।

First published: 05:41:36 PM Nov 26, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर