করোনা আতঙ্কে মুরগির মাংস 'ব্রাত্য’, চাহিদা বাড়ায় রেকর্ড দাম পাঁঠার মাংসের ! দাম চড়া মাছেরও

করোনা আতঙ্কে মুরগির মাংস 'ব্রাত্য’, চাহিদা বাড়ায় রেকর্ড দাম পাঁঠার মাংসের ! দাম চড়া মাছেরও

মুরগির মাংসের প্রতি ক্রেতাদের আতঙ্কের কারণে বাজারে দাম বেশ চড়া মাছ এবং পাঁঠার মাংসের।

  • Share this:

#কলকাতা: করোনা ভাইরাস নিয়ে গুজব অব্যাহত। লাটে উঠতে বসেছে রাজ্যের পোলট্রি শিল্প। ক্রেতারা মুরগির মাংস এড়িয়ে চলায় ইতিমধ্যেই কয়েকশো কোটি টাকা ক্ষতি হয়েছে। সেই ক্ষতির ভালোরকম আঁচ লেগেছে এ রাজ্যেও।'প্রাণঘাতী' করোনা ভাইরাসকে কেন্দ্র করে নানা খবর ছড়াচ্ছে নেটদুনিয়ায়। যার অধিকাংশই ভিত্তিহীন। নেহাতই গুজব। কিন্তু, সেই গুজবই গিলছেন আম জনতা।

সোশ্যাল মিডিয়ায় কেউ কেউ ছড়িয়েছেন, মুরগি থেকে করোনাভাইরাস ছড়াচ্ছে। কিছু ভুয়ো ভিডিও ঘোরাফেরা করছে সোশ্যাল মিডিয়ায় । যা দেখে সাধারণ মানুষ অযথা আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন। নিজে আতঙ্কিত হয়ে, অন্যদের মধ্যেও আতঙ্ক ছড়াচ্ছেন 'গুজব' শেয়ার করে। দাবি মুরগির মাংসের ব্যবসায়ীদের। মুরগির মাংসের প্রতি ক্রেতাদের আতঙ্কের কারণে বাজারে দাম বেশ চড়া মাছ এবং পাঁঠার মাংসের।

বেলেঘাটা হোক বা মানিকতলা, ভবানীপুর , লেক মার্কেট-- সর্বত্রই পাঁঠার মাংসের পাশাপাশি মাছের বাজারের ছবিটাও একই। কেজি প্রতি পাঁঠা বা খাসির মাংস বিক্রি হচ্ছে ৭০০ টাকায়। কোথাও কোথাও মটনের দাম আরও বেশি। রুই-কাতলা থেকে সব ধরনের মাছের কেজি প্রতি দাম বেড়েছে ৫০ টাকা থেকে ৭০ টাকা পর্যন্ত। মাছ ব্যবসায়ীদের বক্তব্য,' চাহিদা অনুযায়ী যোগান কম থাকায় পাইকারি বাজারে সব মাছের দাম বেড়েছে। সেই কারণেই খুচরো বাজারেও দাম বাড়াতে আমরা বাধ্য হয়েছি। করোনা আতঙ্কের কারণেই মাছের চাহিদা বেড়েছে'।

ভাগাড়কাণ্ড প্রকাশ্যে আসার পরে, রাজ্যে মুরগির মাংসের চাহিদা এক ধাক্কায় অনেকটা কমে গিয়েছিল। বার সেই ক্ষতিকেও ছাপিয়ে যেতে পারে করোনাআতঙ্ক। এমনটাই মত পোল্ট্রি শিল্পের সঙ্গে যুক্ত ব্যবসায়ী মহলের ।রাজ্যের সর্বত্র পোলট্রির মুরগির চাহিদা তলানিতে নেমে এসেছে। দোকান খুলে, মাছি তাড়াচ্ছেন দোকিনারা। ফিরেও তাকাচ্ছেন না ক্রেতারা। মন্দার বাজারে চিকেনের দাম কমিয়েও আখেরে সেই ক্ষতি পুষিয়ে উঠতে পারছেন না পোলট্রির কারবারিরা।

হঠাৎ করে বিক্রি কমে যাওয়ার চিন্তিত বিক্রেতারা। ব্যবসায়ীদের বক্তব্য , যেভাবে এখনও গুজব গ্রাস করে রয়েছে মুরগির মাংসের বাজারকে , তাতে সরকারের উচিত অবিলম্বে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া। মুরগির মাংসের প্রতি ক্রেতাদের অনীহা অব্যাহত। তবে করোনা ভাইরাস আতঙ্কে মাছ এবং পাঁঠার মাংসের দাম অত্যাধিক বেড়ে যাওয়া প্রসঙ্গে ক্রেতারা বলছেন,'এক্ষেত্রে ব্যবসায়ীরা ঝোপ বুঝে কোপ মারছেন'।

Venkateshwar Lahiri

First published: March 11, 2020, 5:16 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर