Home /News /kolkata /
পঞ্চায়েত ভোট পিছিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা আরও জোরালো

পঞ্চায়েত ভোট পিছিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা আরও জোরালো

Photo: Kolkata High Court

Photo: Kolkata High Court

পঞ্চায়েত ভোট পিছিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা আরও জোরালো

  • Share this:

    #কলকাতা: পিছিয়ে যেতে পারে পঞ্চায়েত ভোট ৷ বৃহস্পতিবার কলকাতা হাইকোর্টের অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশের পর এই প্রশ্নই ঘুরে বেড়াচ্ছে রাজ্য রাজনীতির আনাচে কানাচে ৷ শুক্রবারের হাইকোর্টের পদক্ষেপে আরও জোরালো সেই সম্ভাবনা ৷

    তৃণমূল ও নির্বাচন কমিশনের আবেদন ফেরাল কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ ৷ বৃহস্পতিবার পঞ্চায়েত নির্বাচন প্রক্রিয়ায় অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশ কলকাতা হাইকোর্টের ৷ ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত ভোট প্রক্রিয়ায় স্থগিতাদেশ জারি করেন বিচারপতি সুব্রত তালুকদার ৷

    শুক্রবার স্থগিতাদেশ প্রত্যাহারের আবেদন নিয়ে ডিভিশন বেঞ্চে যায় তৃণমূল কংগ্রেস ৷ একইসঙ্গে মামলার দ্রুত শুনানি আর্জিও জানায় তারা ৷ কিন্তু তাদের সেই আবেদন ফিরিয়ে কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি বিশ্বনাথ সমাদ্দার ও অরিন্দম মুখোপাধ্যায়ের ডিভিশন বেঞ্চ নির্বাচন কমিশনকে এই মামলায় অন্তর্ভূক্ত করার নির্দেশ দেয় ৷ সোমবার এই মামলার শুনানি রয়েছে ৷

    দ্রুত শুনানির নির্দেশ ফেরানোয় সোমবার অর্থাৎ ১৬ এপ্রিল অবধি হাইকোর্টের অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশ বহালই রইল ৷ এখনও ভোট প্রক্রিয়ার বহু কাজ বাকি ৷ ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত ভোট প্রক্রিয়ার সমস্ত কাজ বন্ধ ৷ ফলে পিছিয়ে যেতে পারে পঞ্চায়েত ভোট ৷রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত ভোট প্রস্তুতি স্থগিত রাখার নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট। ফলে, পয়লা মে-র আগে, প্রতীক বাছাই, ব্যালট পেপার ছাপানোর মতো গুরুত্বপূর্ণ কাজ শেষ করতে পারবে না কমিশন।

    বৃহস্পতিবার হাইকোর্টের নির্দেশের পর নতুন করে রাজনৈতিক ফায়দা লোটার চেষ্টায় বিরোধীরা। এদিনও সেই স্থগিতাদেশ বহাল থাকায় আটকে বন্ধ রইল নির্বাচনের সব কাজ ৷

    - জমা পড়া মনোনয়নপত্রের স্ক্রুটিনি চালাচ্ছে নির্বাচন কমিশন

    - ১৬ এপ্রিল মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন ছিল

    - তারপর, প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত করার কথা ছিল রাজ্য নির্বাচন কমিশনের

    - এরপর, নির্দল প্রার্থীদের প্রতীক বাছাইের কাজ কমিশনের হাতে

    - শেষ পর্যায়ে রয়েছে, ত্রিস্তরীয় পঞ্চায়েত নির্বাচনের ব্যালট ছাপানোর মতো গুরুত্বপূর্ণ কাজ

    - ব্যালট পেপার ছাপতে ১০ থেকে ১৪ দিন সময় লাগতে পারে

    - ফলে, ১৬ এপ্রিলকে মাইলস্টোন ধরলে ভোটপ্রস্তুতির লম্বা প্রক্রিয়া শেষ করতে হাতে সময় পাবে না রাজ্য নির্বাচন কমিশন

    আদালতের এই রায় শোনার পরেই কিছুটা ব্যাকফুটে শাসক দল। উল্লসিত বিরোধীরা। আদালতের রায়ের জেরে তাদের পালে হাওয়া বাড়ল বলেই মনে করছে রাজ্যের বিরোধী শিবির। বিচারপতি সুব্রত তালুকদারের সিঙ্গল বেঞ্চের আদেশে নিজেদের জয়ই দেখছে বিজেপি সহ বিরোধীরা । আদালতের রায়ে আপাতত ঝুলে বাংলার পঞ্চায়েত ভোটের ভাগ্য।

    First published:

    Tags: Calcutta High Court, Panchayat Election, Panchayat Election 2018, Panchayat Election may be delayed, South Bengal Panchayat Election 2018, South Bengal Panchayet election

    পরবর্তী খবর