• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • KOLKATA BASED SCIENTIST DICOVERED POCKET VENTILATOR TO HELP COVID AND ASTHMA PATIENTS AKD

Pocket Ventilator: অসাধ্যসাধনে কলকাতার বিজ্ঞানী, নিঃশ্বাসের সমস্যায় ভরসা দেবে পকেট ভেন্টিলেটর

রমেন্দ্রলাল মুখোপাধ্যায়। ছবি ট্যুইটার থেকে নেওয়া।

Pocket Ventilator| ভেন্টিলেটরটির ওজন মাত্র আড়াইশো গ্রাম। একবার চার্জ করালে ন্যূনতম ৮ ঘন্টা চার্জ থাকবে।

  • Share this:

    #কলকাতা: করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়তেই মর্মান্তিক পরিস্থিতি হাড়হিম করে দিয়েছিল দেশবাসীর। অক্সিজেনের অভাবে বহু মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন, লড়তে হয়েছে বহু মানুষকে। সেই ভয়াবহ সময়কে মনে রেখেই অসাধ্য সাধন করে ফেললেন কলকাতার বিজ্ঞানী রমেন্দ্রলাল মুখোপাধ্যায়। রমেন্দ্রলাল একটি ব্যাটারিচালিত পকেট ভেন্টিলেটার বানিয়েছেন। তথ্য বলছে যে কোনও বয়সের, যে কোন ব্যক্তি নিঃশ্বাসের সমস্যা থাকলেই এই ভেন্টিলেটার ব্যবহার করতে পারেন। মোবাইল চার্জার দিয়ে এই ভেন্টিলেটরটি চার্জ করা যাবে। ভেন্টিলেটরটির ওজন মাত্র আড়াইশো গ্রাম। একবার চার্জ করালে  ন্যূনতম ৮ ঘন্টা চার্জ থাকবে।

    রমেন্দ্রলাল মুখোপাধ্যায় পেশায় একজন ইঞ্জিনিয়ার। সংবাদ সংস্থা এএনআই-কে নিজে হাতে তৈরি করা এই যন্ত্র সম্পর্কে ব্যাখ্যা দিতে গিয়ে তিনি বলেন, এই বিশেষ যন্ত্রটির দুটি অংশ রয়েছে। এক দিকে রয়েছে পাওয়ার ইউনিট, অন্য দিকে রয়েছে ভেন্টিলেটর ইউনিট, যার সঙ্গে একটি মাউথপিস লাগানো রয়েছে। যন্ত্রের পাওয়ার বটন  অন করলে ভেন্টিলেটর বাইরে থেকে বাতাস সংগ্রহ করা শুরু করে। একটি আলট্রাভায়োলেট চেম্বারে মধ্যে এই বাতাসকে পাঠিয়ে দেওয়া মাত্রই বাতাস পরিশুদ্ধ হয়। মাউথপিসে মুখ রেখে রোগী এখান থেকে বিশুদ্ধ অক্সিজেন সংগ্রহ করতে পারে।

    রমেন্দ্রবাবুর দাবি অনুযায়ী, করোনায় আক্রান্ত কোনও ব্যাক্তি যদি চান তবে এই ভেন্টিলেটর ব্যবহার করে বিশুদ্ধ বাতাস নিতে পারেন, মেটাতে পারেন অক্সিজেনের ঘাটতি।

    দেশে অক্সিজেনের আকাল দেখেই এই ভেন্টিলেটর তৈরির কথা মনে এসেছিল, বললেন রমেন্দ্রনলাল। করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন তিনি। অসুখ সারিয়ে উঠেই এই ভেন্টিলেটার তৈরি করার কাজে মন দেন। কুড়ি দিন ধরে তিনি  নাওয়াখাওয়া ভুলে এই যন্ত্র  তৈরির কাজ চালিয়ে গিয়েছেন।

    তাঁর মতে শুধু করোনা আক্রান্তই নয়, অ্যাস্থমা রয়েছে  এমন রোগীও ভেন্টিলেটর ব্যবহার করতে পারবে। তাঁর দাবি বহু মার্কিন সংস্থা এই পকেট ভেন্টিলেটরের জন্য তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করছে। উল্লেখ্য ইতিমধ্যে তিরিশটি পেটেন্ট রয়েছে রমেন্দ্র মুখোপাধ্যায়ের নামে।এই নতুন আবিষ্কার নিয়ে স্বাভাবিকভাবেই দৃঢ় প্রত্যয়ী তিনি।

    Published by:Arka Deb
    First published: