• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • বিজেপি-ফেসবুক গলায় গলায়, অভিযোগ জানিয়ে সোজা জুকারবার্গকে চিঠি ডেরেকের

বিজেপি-ফেসবুক গলায় গলায়, অভিযোগ জানিয়ে সোজা জুকারবার্গকে চিঠি ডেরেকের

প্রকাশ্যেই অস্বচ্ছতা- জুকারবার্গের কাছে অভিযোগ ডেরেকর।

প্রকাশ্যেই অস্বচ্ছতা- জুকারবার্গের কাছে অভিযোগ ডেরেকর।

ফেসবুক এদেশে বিজেপির অবাধ ব্যবহারের প্ল্যাটফর্ম এ পরিণত হয়েছে বলে ওই চিঠিতে ইঙ্গিত করেন ডেরেক ।

  • Share this:

    #কলকাতা: জাতীয় কংগ্রেসের পর এবার তৃণমূল। ফেসবুক কর্তা মার্ক জুকারবার্গকে এবার চিঠি দিলেন ডেরেক ও'ব্রায়েন। চিঠিতে ফেসবুক ও বিজেপি যোগসাজস নিয়ে সরব হয়েছেন ডেরেক। ফেসবুক এদেশে বিজেপির অবাধ ব্যবহারের প্ল্যাটফর্ম এ পরিণত হয়েছে বলে ওই চিঠিতে ইঙ্গিত করেন ডেরেক ।

    বাংলায় নির্বাচন আর কিছু মাসের অপেক্ষা। ভোটপ্রচারে সব পক্ষেরই ভরসা সোশ্যাল মিডিয়া। এই আবহে জুকারবার্গকে লেখা ওই চিঠিতে উল্লেখ  করা হয়েছে বাংলার বহু ফেসবুক পেজকে ব্লক করা হচ্ছে ।ডেরেক লিখছেন, এই পদক্ষেপ বিজেপি এবং ফেসবুকের ঘনিষ্ঠতাকেই প্রমাণ করে। একই সঙ্গে তিনি বলছেন, ফেসবুকের বহু বরিষ্ঠ কর্মীর কথাবার্তা সামনে এসেছে, এখন গণপরিসরেই বহু প্রমাণ রয়েছে, যা থেকে বিজেপি ও ফেরবুকের গাঁটছড়া রয়েছে।

    পাশাপাশি ২০১৪ এবং ২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনে ফেসবুকের ভূমিকা নিয়ে পার্লামেন্টে আলোচনা করেছিল তৃণমূল কংগ্রেস । সেই আলোচনার ক্লিপিংসও পাঠানো হয়েছে  জুকারবার্গকে।

    সম্প্রতি ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল-সহ বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে অভিযোগ করা হয়েছিল বিজেপি বিদ্বেষপূর্ণ পোস্ট করলেও উপযুক্ত শাস্তি মূলক ব্যবস্থা নেওয়া হয় না। এই নিয়ে কিছুদিন আগে কংগ্রেস সরব হয় । ডেরেক তাঁর চিঠিতে উল্লেখ করেছেন, পার্লামেন্ট  তাদের দলের তোলা এই সংক্রান্ত আলোচনাই বিরোধী দল গুলিকে সরব হওয়ার প্রেরণা যুগিয়েছে ।

    সম্প্রতি আঁখি দাস নামে এক ফেসবুক কর্ত্রী র বিজেপি ঘনিষ্ঠতা নিয়ে সরব হয়েছিল নানা মহল।এবার বিজেপি -ফেসবুক যোগসাজস নিয়ে সরাসরি ফেসবুক কর্তার দৃষ্টি আকর্ষণ করলো তৃণমূল । চিঠির শেষে ডেরেক লিখেছেন, বেশ কয়েক বছর আগে আমি ভারতে ফেসবুকের স্বচ্ছতা এবং বরিষ্ঠ কর্মীদের উপর ওঠা অভিযোগের তদন্তের বিষয়ে অনুরোধ করেছিলাম। এখন ফের সেই একই অনুরোধ করছি ভারতের নির্বাচনী প্রক্রিয়ায় আপনার প্ল্যটফর্মটির সদর্থক ভূমিকা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে।

    Published by:Arka Deb
    First published: