corona virus btn
corona virus btn
Loading

আমফানের জেরে বেসামাল বোটানিক গার্ডেন, ক্ষতিগ্রস্ত ২৭০ বছরের পুরোন গ্রেট বেনিয়ান ট্রি

আমফানের জেরে বেসামাল বোটানিক গার্ডেন, ক্ষতিগ্রস্ত ২৭০ বছরের পুরোন গ্রেট বেনিয়ান ট্রি

ঝড়ে উপড়ে গেছে বটের চার ভাগের এক ভাগ।

  • Share this:

#কলকাতা: ১০০ বছর আগের স্মৃতি উসকে দিল ঘূর্ণিঝড় আমফান। লন্ডভন্ড এশিয়ার অন্যতম বৃহৎ উদ্ভিদ উদ্যান। আমফানের জেরে আজ আক্রান্ত ২৭০ বছর বয়েসী আমাদের রাজ্যের জীবন্ত নাগরিক। ঝড়ের দাপটে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে আচার্য জগদীশ চন্দ্র বোস বোটানিক্যাল গার্ডেনের বিশ্ববিখ্যাত বটবৃক্ষের। ঝরের দাপটে প্রায় এক হাজারেরও বেশি গাছের মৃত্যু হয়েছে বাগান জুড়ে, গাছ পরে এমন অবস্থা সেখানে ১০০ মিটার রাস্তাও চলাচল করা অসম্ভব। ৩ দিন কেটে গেলেও এখনও পর্যন্ত বাগানের পুরো এলাকা সরোজমিনে ঘুরে দেখতে সক্ষম হয়নি বিজ্ঞানীরা। পুরোপুরি সার্ভে না করে এলাকা পরিষ্কার করা হবে না বলে জানিয়ে দিয়েছেন কর্তৃপক্ষ।

ঝড়ের ঝাপটায় বেসামালা শিবপুর বোটানিক গার্ডেনের গ্রেট বেনিয়ান ট্রি। ২৭০ বছর বয়স। ১.৬ হেক্টর জমি জুড়ে ছড়িয়ে এই বৃদ্ধ বট, যাকে অনেক ওয়াকিং ট্রিও বলে থাকেন। ঝড়ে উপড়ে গেছে বটের চার ভাগের এক ভাগ। উদ্ভিদ বিজ্ঞানীদের দাবি, বাগানের নথি ঘেটে জানা যায় যে ১৮৬৭ সালের পর এমন ক্ষতি হল বাগানের। একশো বছর আগের এক ঝড়ে উপড়ে গিয়েছিল বটগাছের মূল কাণ্ডটি। সেই সময় একটি ঝরে বট গাছটির মূল কান্ডটি উপরে গিয়েছিল, এমনকি বাগানের প্রায় ৫০ শতাংশ গাছ মারা গিয়েছিল। সেই সময় বিজ্ঞানীরা বটবৃক্ষের বাকি অংশকে সংরক্ষিত করে নতুন করে ফিরিয়ে এনেছিল তার মহিমা। তারপর আমফানের ধাক্কা। সার্ভে করতে বি গার্ডেনে পৌঁছেছেন উদ্ভিদ বিজ্ঞানীরা।

বিপর্যস্ত সম্পূর্ণ বোটানিক গার্ডেন চত্বর। ক্ষতিগ্রস্ত কল্পতরু, মেহগনিসহ অন্যান্য গাছও। ২ দিনের মধ্যে ক্ষয়ক্ষতির রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। ঠিক কতটা ক্ষতি হয়েছে বাগানের, কতগুলি গাছ মারা গেছে এবং কীভাবে বাগানকে আগের মতো জায়গায় ফেরানো যাবে তা নিয়ে বিস্তারিত জানাতে বলা হয়েছে রিপোর্টে।

Debasish Chakraborty

Published by: Ananya Chakraborty
First published: May 24, 2020, 12:18 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर