• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • ফুঁসছে 'বুলবুল', তৈরি প্রশাসন, রইল রাজ্যের কন্ট্রোল রুমের সঙ্গে যোগাযোগের নম্বর--

ফুঁসছে 'বুলবুল', তৈরি প্রশাসন, রইল রাজ্যের কন্ট্রোল রুমের সঙ্গে যোগাযোগের নম্বর--

হাতে আর কয়েক ঘণ্টা। তার আগে বুলবুলের ধাক্কায় বিপর্যয়ের আঁচ পেয়ে, আগাম প্রস্তুত রাজ্য প্রশাসন

হাতে আর কয়েক ঘণ্টা। তার আগে বুলবুলের ধাক্কায় বিপর্যয়ের আঁচ পেয়ে, আগাম প্রস্তুত রাজ্য প্রশাসন

হাতে আর কয়েক ঘণ্টা। তার আগে বুলবুলের ধাক্কায় বিপর্যয়ের আঁচ পেয়ে, আগাম প্রস্তুত রাজ্য প্রশাসন

  • Share this:

    #কলকাতা: হাতে আর কয়েক ঘণ্টা। তার আগে বুলবুলের ধাক্কায় বিপর্যয়ের আঁচ পেয়ে, আগাম প্রস্তুত রাজ্য প্রশাসন। রইল রাজ্যের কন্ট্রোল রুমের সঙ্গে যোগাযোগের নম্বর--

    দক্ষিণ ২৪ পরগনার জেলাশাষক: 033-2479-1469/ 033-24501351 জেলা বিপর্যয় মোকাবিলা দফতর: 033-24399247 কাকদ্বীপ, সাব ডিভিশনাল অফিসার: 03210-255-200/ 9831056542 বিডিও, সাগর: 9874262573/ 918335079070/ 7585089796 বিডিও, নামখানা: 03210-226182/ 7797419114, 9007310626, 9932369511 বিডিও, কাকদ্বীপ: 8335079067/ 7872941172 বিডিও, পাথরপ্রতিমা: 03210-265222/ 8335079069 / 8961260459/ 8016233459, 7278264299, 8210054331 বিডিও, গোসাবা: 90739 39881/ 97750 50109/ বিডিও, কুলতলি: +919163281310 , +919073904335

    প্রশাসনের প্রস্তুতি

    - প্রতি মুহূর্তে আবহাওয়া দফতরের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে নবান্ন

    - উপকূলবর্তী সব জেলাকে বাড়তি সতর্কতা নিতে বলা হয়েছে

    - পর্যাপ্ত ত্রাণসামগ্রী মজুত রাখতে বলা হয়েছে জেলা প্রশাসনকে

    - তৈরি রাখা হয়েছে বিপর্যয় মোকাবিলা দলও

    - সমুদ্র তীরবর্তী বাসিন্দাদের অন্যত্র সরানো হচ্ছে

    এছাড়া নবান্নে বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরের কন্ট্রোল রুম থেকে পরিস্থিতির উপর ২৪ ঘণ্টা নজর রাখা হচ্ছে। পরিস্থিতির উপর নজর রাখছে সল্টলেকে সেচ দফতরের কন্ট্রোল রুমও। দুর্যোগের আশঙ্কায় আগামী পনেরো নভেম্বর পর্যন্ত সব ছুটি বাতিল করেছে কলকাতা পুরসভা। শহরের প্রতিটি বোরোয় তৈরি পুরসভার বিশেষ টিম।

    দুর্যোগের আশঙ্কায় সতর্ক শিক্ষ দফতরও। শনিবার কলকাতা, হাওড়া, দুই চব্বিশ পরগনা, দুই মেদিনীপুর ও ঝাড়গ্রামের সব সরকারি স্কুলে ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। বেসরকারি স্কুলগুলিকেও ছুটি ঘোষণার আবেদন করেছে শিক্ষা দফতর।

    শুক্রবারও মাইকিং হয় উপকূল এলাকায়। এরমধ্যেই ১৬ টি এলাকায় ফ্লাড সেন্টার খোলা হয়েছে। সরানোর কাজ শুরু হয়েছে নিচু এলাকায় থাকা বাসিন্দাদের।

    প্রত্যেকটি এলাকায় মোতায়েন রয়েছেন বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরের কর্মীরা। রবিবার পর্যন্ত সরকারি কর্মীদের ছুটি বাতিল। মজুত করা হয়েছে ত্রিপল, খাবার, ওষুধ ও পশুখাদ্য ৷

    First published: