• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • বাংলার পর ইংরাজিও! সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরছে মাধ্যমিকের ইংরেজির প্রশ্ন

বাংলার পর ইংরাজিও! সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরছে মাধ্যমিকের ইংরেজির প্রশ্ন

সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘ভাইরাল’ হয়ে গেল মাধ্যমিকের ইংরাজির প্রশ্নপত্র ৷ জানা যাচ্ছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় দেওয়ালে ভেসে আসা সেই প্রশ্নের সঙ্গে নাকি হুবহু মিল রয়েছে আসল ইংরাজি প্রশ্নের ৷

সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘ভাইরাল’ হয়ে গেল মাধ্যমিকের ইংরাজির প্রশ্নপত্র ৷ জানা যাচ্ছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় দেওয়ালে ভেসে আসা সেই প্রশ্নের সঙ্গে নাকি হুবহু মিল রয়েছে আসল ইংরাজি প্রশ্নের ৷

সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘ভাইরাল’ হয়ে গেল মাধ্যমিকের ইংরাজির প্রশ্নপত্র ৷ জানা যাচ্ছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় দেওয়ালে ভেসে আসা সেই প্রশ্নের সঙ্গে নাকি হুবহু মিল রয়েছে আসল ইংরাজি প্রশ্নের ৷

  • Share this:

    #কলকাতা: গতকালের পুরনাবৃত্তি ঠেকাতে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছিল যথেষ্ট ৷ কিন্তু তারপরেও শেষরক্ষা হল না ৷ সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘ভাইরাল’ হয়ে গেল মাধ্যমিকের ইংরেজির প্রশ্নপত্র ৷ জানা যাচ্ছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় দেওয়ালে ভেসে আসা সেই প্রশ্নের সঙ্গে নাকি হুবহু মিল রয়েছে আসল ইংরেজি প্রশ্নের ৷ গত বছর উত্তরবঙ্গের ময়নাগুড়ির একটি স্কুল থেকে মাধ্যমিকের প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগ উঠেছিল। হোয়াটস অ্যাপে ভুয়ো প্রশ্ন ছড়িয়ে বিভ্রান্তি ছড়ানোর চেষ্টাও হয়েছিল। এ বছর প্রথম থেকেই সাবধানতা নেওয়া হয়েছিল ৷ এমন ঘটনা রুখতে কঠোর নিরাপত্তার ব্যবস্থা নেওয়া হয় মধ্যশিক্ষা পর্ষদের তরফে। নির্দেশ দেওয়া হয়, সেন্টার ইনচার্জ, অফিসার ইনচার্জ, ভেনু ইনচার্জ, ভেনু সুপারভাইজার ও অতিরিক্ত ভেনু সুপারভাইজার ছাড়া কারও কাছে মোবাইল রাখা যাবে না। পরীক্ষা শুরুর ২০ মিনিট আগে অর্থাৎ ১১টা৪০ মিনিটে প্রশ্নের প্যাকেট খুলতে হবে। পাঁচ মিনিট আগে খাতা দিতে হবে। কিন্তু তা সত্ত্বেও গতকাল মাধ্যমিক পরীক্ষা শুরু হওয়ার ৩০ মিনিটের মধ্যেই প্রশ্নপত্রের ফোটোকপি ঘুরতে শুরু করে সোশ্যাল মিডিয়ায় ৷ তা নিয়ে তোলপাড় শুরু হয় ৷ প্রশ্নপত্র ফাঁস নিয়ে পর্ষদ সভাপতির কাছে গতকালই রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ৷ তদন্ত শুরু করেছে পর্ষদ অফিসে সাইবার ক্রাইম অফিসাররা ৷ এরপর দ্বিতীয় দিনেও ঘটল একই ঘটনা ৷

    অন্যদিকে, এদিন পরীক্ষা চলাকালীন মোবাইল ফোন ব্যবহার করার অপরাধে এক শিক্ষককে শো-কজ করা হয়েছে ৷ উত্তর দমদম বয়েজ স্কুলের ওই শিক্ষককে শো-কজ  করেছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ ৷

    First published: