সানাই বাজিয়ে কনে যাত্রী নিয়ে বরের বাড়ি বিয়ে করতে গেলেন কনে, বরকে নিয়ে এলেন বাড়িতে!

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Sep 22, 2019 11:16 PM IST
সানাই বাজিয়ে কনে যাত্রী নিয়ে বরের বাড়ি বিয়ে করতে গেলেন কনে, বরকে নিয়ে এলেন বাড়িতে!
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Sep 22, 2019 11:16 PM IST

#মেহেরপুর: দিনকাল বদলেছে, বদলেছে সময়, বদলেছে মানুষের চিরাচরিত চিন্তাভাবনা, প্রচলিত ধ্যান ধারনা ৷ আজকের সমাজ অনেক প্রগতিশীল, অনেক সাম্যবাদী ৷ আজকের সমাজ বাল্যবিবাহ, পণপ্রথা, নারী নির্যাতনের মতো অভিশাপগুলো থেকে কিছুটা হলেও বেরতে পেরেছে ৷ নারী-পুরুষের সমানাধিকার নিয়ে লড়াই চলছে সমাজের নানা স্তরে ৷

কিন্তু সত্যি সত্যিই কি এখনও সমাজে নারী-পুরুষকে সমান চোখে দেখা হয়? নাকি এখনও একচোখা এই দুনিয়া?

তবে নারী-পুরুষের সমানাধিকার যে শুধুই একটা শব্দ বন্ধ নয়, তার বাস্তব অস্তিত্বও রয়েছে, সেটাই যেন চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিলেন খাদিজা আক্তার খুশি ৷ বাংলাদেশের এই কনে বাস্তবেই এমনটা করে দেখালেন ৷ প্রচলিত বিয়ের রীতি ভেঙে নিজেই গেলেন সানাই বাজিয়ে বিয়ে করতে ৷ বিয়ের পর বর নিয়ে ফিরে এলেন বাপের বাড়িতেও ৷ এমন ঘটনাই ঘটেছে বাংলাদেশের মেহেরপুরের চুয়াডাঙার হাজরাহাটি গ্রামে ৷ খাদিজা কুষ্টিয়ার ইসলামিয়া কলেজের ছাত্রী সে। গাংনি চৌগাছার বাসিন্দা পেশায় ব্যবসায়ী তরিকুল ইসলাম জয়ের সঙ্গে বিয়ে হয় খুশির। শনিবার দুপুরে বিয়ের আসর বসে তাঁদের। তবে এক্ষেত্রে কনের বাড়িতে নয়, বিয়ে হয় বর তারিকুলের বাড়িতে ৷ লাল টুকটুকে বেনারসীতে সেজে নির্দিষ্ট সময়ে খাদিজা পৌঁছান তারিকুলের বাড়িতে ৷ নতুন কনেকে বরণ করে ঘরে তোলা হয় ৷ শুভ বিবাহ সুসম্পন্ন হয় ৷

Marriage-1-1909

বিকেলে বর তরিকুল ইসলাম জয়কে নিয়ে কনে খাদিজা আক্তার খুশি চলে যান বাপের বাড়িতে। শ্বশুরবাড়িতে কয়েকদিন কাটানোর পর কনেকে সঙ্গে নিয়ে বর ফিরে আসবেন নিজের বাড়িতে।

Loading...

খাদিজা জানান, আক্ষরিক অর্থেই নারী-পুরুষের সমানধিকারকে বাস্তবরূপ দিতে চেয়েছিলেন তিনি ৷

First published: 11:16:16 PM Sep 22, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर