হোম /খবর /হাওড়া /
ঘূর্ণিঝড় থেকে বাঁচলেও, জল জমা আটকানোই এখন প্রধান চ্যালেঞ্জ হাওড়া পুরসভার

Howrah- ঘূর্ণিঝড় থেকে বাঁচলেও, জল জমা আটকানোই এখন প্রধান চ্যালেঞ্জ হাওড়া পুরসভার

নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব চিত্র

যদিও প্রাকৃতিক দুর্যোগে জল জমা আটকাতে পুরসভার নীচু এলাকাগুলিতে আগেভাগেই বসানো হয়েছিলো উচ্চ ক্ষমতাসম্পন্ন পাম্প ।

  • Share this:

#হাওড়া- ঘূর্ণিঝড়ের ভয় কাটলেও, গভীর নিম্নচাপের অবস্থানের কারণে রাজ্যের উপকূলবর্তী জেলা ও দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে চলছে একটানা বৃষ্টি। হাওড়াতেও নিম্নচাপের জেরে রবিবার রাত থেকেই শুরু হয়েছে কখনো হালকা বা কখনও মাঝারি বৃষ্টি। একটানা বৃষ্টিতে ইতিমধ্যেই কোথাও এক গোড়ালি, তো কোথাও আবার এক হাঁটু জল জমেছে হাওড়া পুরসভার অন্তর্গত বিভিন্ন এলাকায়। এগুলির মধ্যে রয়েছে হাওড়ার দাসনগর , লিলুয়া ও কদমতলার বিভিন্ন এলাকা। ৯ , ১৯ , ২০ , ২১ , ২৯ , ৫০ নম্বর ওয়ার্ডের বিভিন্ন এলাকায় মানুষকে জল ডিঙিয়েই যেতে হচ্ছে নিত্য প্রয়োজনীয় কাজে ।এই বিষয়ে হাওড়া পুরসভার প্রশাসক মন্ডলীর চেয়ারপার্সন ডঃ সুজয় চক্রবর্তী জানান, "জল জমা আটকাতে আমরা পুরসভার তরফ থেকে আগাম প্রস্তুতি নিয়েছিলাম । ইতিমধ্যেই ২০ , ২১ , ৫০ ও অন্যান্য ওয়ার্ডের জল জমা এলাকাগুলিতে পাম্প চালিয়ে জল নিষ্কাশনের কাজ পুরো দমে চলছে। খুব শীঘ্রই উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন পাম্পের সাহায্যে পঞ্চাননতলা এলাকাতেও জল নিষ্কাশন শুরু করা হবে"।  ইতিমধ্যে পৌর এলাকায় প্রায় ৪০ টি পাম্পের সাহায্যে জল নিষ্কাশন চলছে, বলেও জানান তিনি ।অন্যদিকে, একটানা বৃষ্টিতে জল জমেছে দক্ষিণ-পূর্ব রেলের হাওড়ার টিকিয়াপাড়া রেলওয়ে কার্শেডেও। যদিও হাওড়া-খড়গপুর শাখায় ট্রেন চলাচলের উপর, এর কোনো প্রভাব পড়েনি বলেই জানা গেছে রেলের তরফ থেকে। রবিবার সকাল থেকে খারাপ আবহাওয়ার জন্য আজ সকালেও প্রশাসনিক নির্দেশে বন্ধ রাখা হয় হাওড়ার ফেরি পরিষেবা । যার জেরে বিপাকে পড়েন বহু অফিসযাত্রী। পরে অবশ্য সোমবার দুপুরে আবহাওয়া কিছুটা উন্নতি হতেই ফের চালু করা হয় ফেরি পরিষেবা।Santanu Chakraborty

Published by:Samarpita Banerjee
First published:

Tags: Cyclone Jawad, Howrah, Howrah municipal corporation, Waterlogging