পুজোয় ব্যস্ত মৃৎশিল্পীরা ! তবে বিক্রি নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছেন তাঁরাও

পুজোয় ব্যস্ত মৃৎশিল্পীরা ! তবে বিক্রি নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছেন তাঁরাও

মৃৎশিল্পীরা বলছেন, ভঙ্গুর মাটির সঙ্গে টেকসই পিতল ও তামার জিনিস বাজার দখল করে নিচ্ছে

  • Share this:

#হাওড়া: ঢাকের তালে পুজোর ঢ্যাম কুরকুর। ঢাকের তালে কোমর দোলে... মাথা দোলায় প্রদীপ শিখাও। ধুনোর ধোঁয়ায়, প্রদীপ শিখায় মায়ের স্নেহের উষ্ণ আশিস... ধুনোর ধোঁয়ায় দশভূজা যেন আরও মোহময়ী। ধুনচি নাচে প্রাণ পায় উৎসব। এইসব মাটির প্রদীপ, ধুনচি, ঘট যাঁরা তৈরি করেন, তাঁরা এখন বেজায় ব্যস্ত। দম ফেলার ফুরসত নেই। যেমন, হাওড়ার শ্যামপুরের এক নম্বর ব্লকের বাগান্ডা পালপাড়া। বংশ পরম্পরায় কয়েকটি মৃৎশিল্পী পরিবার মাটির সামগ্রী তৈরি করেন। উদ্যোক্তাদের জোগান দিতে হবে পুজোর আগেই। মহিলা-পুরুষ কেউই তাই বসে নেই।

কিন্তু এই সময়টাতেই সবচেয়ে বেশি কাজ থাকে শিল্পীদের। তবে মৃৎশিল্পীরা নিশ্চিন্তে নেই, সে কাজ যতই থাকুক। তাঁদের বিক্রিতেও মন্দা দেখা দিয়েছে। মৃৎশিল্পীরা বলছেন, ভঙ্গুর মাটির সঙ্গে টেকসই পিতল ও তামার জিনিস বাজার দখল করে নিচ্ছে। ভাল মাটিও অমিল। তাই ব্যস্ততার মধ্যে দুশ্চিন্তাও আছে। তাই তাদের প্রতিযোগিতা বেড়ে গিয়েছে অনেক বেশি। কিন্তু মাটির প্রদীপ ছাড়া দুর্গা পুজো কেন কোনও পুজোই সম্ভব না। তাই পিতল, তামা যতই চকচক করুক। চকচক করলেই তো আর সোনা হয় না। কথায় বলে, ওল্ড ইজ গোল্ড। তাই মাটির সামগ্রী যতই পুরোন হোক, তাকে সোনার মতই যত্ন করবে উৎসব পার্বণ।

First published: September 13, 2019, 10:17 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर