কিছু কিনে ঠকে গিয়েছেন? ক্রেতা সুরক্ষা আইন কী ভাবে কাজে আসে ? জানুন বিশদে

কিছু কিনে ঠকে গিয়েছেন? ক্রেতা সুরক্ষা আইন কী ভাবে কাজে আসে ? জানুন বিশদে

ক্রেতা তথা কনজিউমার-কেন্দ্রিক ভারতীয় অর্থনীতি, তবু থেকে যায় কিছু ফাঁক-ফোকর। সে সব পূরণের জন্য দেশে কী কী আইন রয়েছে, তা নিয়ে বললেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী প্রাচী মিশ্র (Prachi Mishra)

ক্রেতা তথা কনজিউমার-কেন্দ্রিক ভারতীয় অর্থনীতি, তবু থেকে যায় কিছু ফাঁক-ফোকর। সে সব পূরণের জন্য দেশে কী কী আইন রয়েছে, তা নিয়ে বললেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী প্রাচী মিশ্র (Prachi Mishra)

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: ক্রেতা তথা কনজিউমার-কেন্দ্রিক ভারতীয় অর্থনীতি, তবু থেকে যায় কিছু ফাঁক-ফোকর। সে সব পূরণের জন্য দেশে কী কী আইন রয়েছে, তা নিয়ে বললেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী প্রাচী মিশ্র (Prachi Mishra)।

কারা কনজিউমার কিংবা ক্রেতা বা গ্রাহক? ২০১৯ সালের কনজিউমার প্রোটেকশন আইন (Consumer Protection Act, 2019) অনুযায়ী ক্রেতা বা গ্রাহক তাঁরাই যা কোনও জিনিস কেনেন বা নিত্য প্রয়োজনে বা স্বাচ্ছন্দ্যের আশায় কোনও পরিষেবা গ্রহণ করেন। যার মধ্যে অনলাইন ও অফলাইন আর্থিক লেনদেন অন্তর্ভুক্ত। টেলিশপিং, ডায়রেক্ট সেলিং তারই অঙ্গ।

কারা কনজিউমার কিংবা ক্রেতা বা গ্রাহক নন? যে ব্যক্তি কোনও বস্তু বা পরিষেবা পুনরায় বিক্রি করার জন্য কেনেন, তাঁকে কনজিউমার কিংবা ক্রেতা বা গ্রাহক বলা যায় না।

কনজিউমার রাইটস কিংবা ক্রেতা বা গ্রাহকের অধিকার কী? যে বস্তু এবং পরিষেবা জীবনের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ, তা থেকে বাঁচবার অধিকার, ক্রয়যোগ্য বস্তু এবং পরিষেবা সম্পর্কে সম্পূর্ণ ধারণা, বস্তু এবং পরিষেবার গুণগত মান সম্পর্কে সম্পূর্ণ ধারণা, শোনার অধিকার, প্রতিবিধানের অধিকার, ক্রেতা কিংবা গ্রাহকের শিক্ষার অধিকারকেই বলা হয় কনজিউমার রাইটস।

ক্রেতা বা গ্রাহকদের জন্য ত্রিস্তরীয় কোয়াসি জুডিসিয়াল সেট আপের কাজ কী ভাবে হয়? এক কোটি টাকার কম লেনদেনের বিষয়টি দেখে জেলা কমিশন (District Commission)। এক কোটির বেশি কিন্তু ১০ কোটির কম লেনদেনে অনিয়মের বিষয়টি দেখে রাজ্য কমিশন (State Commission)। ১০ কোটির বেশি লেনদেনের ক্ষেত্রে মাথা ঘামায় কেন্দ্রীয় কমিশন (Central Commission)। এই কমিশনগুলিতেই অভিযোগ দায়ের করেন ক্রেতা কিংবা গ্রাহকরা।

কনজিউমার কিংবা ক্রেতা বা গ্রাহকদের জন্য তথ্যের অধিকার কী? ক্রেতা যে জিনিস কিনবেন বা যে পরিষেবা নেবেন, তার গুণাগুণ এবং উপযোগিতা সম্পর্কে তাঁদের জানার অধিকার আছে।

ক্ষতিপূরণের অধিকার ক্রয় করা কোনও বস্তু বা পরিষেবায় খুঁত থাকলে, তার প্রেক্ষিতে ক্রেতা বা গ্রাহক ক্ষতিপূরণ দাবি করতে পারেন। সেটি তাঁদের অধিকারের মধ্যে পড়ে।

বস্তু বা পরিষেবার মান নির্ধারণ কী? বস্তু বা পরিষেবার মান নির্ধারণের অর্থ, তা যেন ক্রেতা বা গ্রাহকদের সুরক্ষা, স্বাস্থ্য এবং ভালো ভেবে তৈরি করা হয়।

কনজিউমার সুরক্ষা কাউন্সিলের (Consumer Protection Councils) কাজ কী? কনজিউমারকে আদালতে কী ভাবে মামলা দায়ের করতে হয়, সে সম্পর্কে রাস্তা দেখায় কনজিউমার সুরক্ষা কাউন্সিল।

Prachi Mishra

First published: