Shruti Das : নাছোড়বান্দা প্রেমিককে না ফিরিয়ে শ্রুতির অনুভূতি ‘ভালবাসায় সব সম্ভব’

শ্রুতি ও স্বর্ণেন্দু, ছবি-ফেসবুক

ভালবাসায় সব সম্ভব ৷ বলছেন শ্রুতি দাস (Shruti Das) ৷ শুধু বলছেন না ৷ অভিনেত্রী অনুভব করছেন সেই পরিবর্তন ৷

  • Share this:

    কলকাতা : ভালবাসায় সব সম্ভব ৷ বলছেন শ্রুতি দাস (Shruti Das)  ৷ শুধু বলছেন না ৷ অভিনেত্রী অনুভব করছেন সেই পরিবর্তন ৷

    শ্রুতির কথায়, তাঁর প্রেমিক পরিচালক স্বর্ণেন্দু সমাদ্দার আগে ছবি তোলা থেকে সাত হাত দূরে থাকতেন ৷ আর সেই প্রেমিকই আব্দার করছেন সেলফি তোলার ! ফেসবুকে শ্রুতি লিখেছেন, তাঁকে স্বর্ণেন্দু বলেছেন, ‘‘বাবি একটাও ছবি তোলা হয়নি আজ, গাড়ি থেকে নেমে একটা ছবি তুলব কেমন!’’

    প্রেমিকের পরিবর্তনে অভিভূত শ্রুতির আদুরে অক্ষর, ‘‘ছবি তোলা থেকে সাত হাত দূরে থাকা ছেলেটাও দিনদিন নাছোড়বান্দা প্রেমিক হয়ে উঠছে ৷ একে ফেরানো যায়?’’

    এরকম একটা দিন দেখার জন্যই দু’বছর আগে প্রেমপ্রস্তাব দিয়েছিলেন তিনি ৷ লিখেছেন শ্রুতি ৷ তাঁর সেই ভালবাসাতেই অবশেষে এই পরিবর্তন৷ স্বর্ণেন্দুর সঙ্গে  শ্রুতির আলাপ বছর দুয়েক আগে, ‘ত্রিনয়নী’ ধারাবাহিকে ৷ এই ধারাবাহিক দিয়েই বিনোদন দুনিয়ায় বড় ভূমিকায় পদচারণা শ্রুতির ৷ তাঁর সঙ্গে স্বর্ণেন্দুর বয়সের ব্যবধান ১৪ বছর ৷ কিন্তু বয়স কখনও বাধা হয়ে দাঁড়ায়নি তাঁদের প্রেমে ৷ সংবাদমাধ্যমে শ্রুতি জানিয়েছিলেন, স্বর্ণেন্দু তাঁকে প্রথমে বিশেষ পছন্দ করতেন না ৷ তাঁর মনে হত, শ্রুতি খুব দাম্ভিক ৷ পরে তিনি ধীরে ধীরে বুঝতে পেরেছেন শ্রুতি চুপচাপ, দাম্ভিক নন ৷

    প্রেমের প্রস্তাব প্রথমে দিয়েছিলেন শ্রুতি নিজেই ৷ তবে স্বর্ণেন্দুর দিক থেকে সাড়া আসতে একটু সময় লেগেছিল ৷ প্রাথমিক আপত্তি ছিল শ্রুতির পরিবারে ৷ কিন্তু পরে সেখানেও হবু জামাই হিসেবে বরণ করে নেওয়া হয়েছে স্বর্ণেন্দুকে ৷ তবে আপাতত তাঁরা বিয়ে করছেন না ৷ কেরিয়ারকে সময় দিচ্ছেন দুজনেই ৷

    তবে কাজের পাশাপাশি একে অপরে নিজেদের জন্যও বরাদ্দ রাখেন অনেকটা সময় ৷ স্পষ্টবক্তা শ্রুতি প্রেম নিয়েও সামাজিক মাধ্যমে প্রথম থেকেই কিছু গোপন রাখেননি ৷ নিত্যদিন ট্রোলিংয়ের উত্তর দেওয়া নায়িকার ফেসবুকে মাঝে মাঝেই স্পন্দিত হয় বসন্ত ৷ প্রেমিকের সঙ্গে তাঁর ছবি যে অ্যালবামে পোস্ট করেন, তাঁর নাম তিনি দিয়েছেন ‘ইতি শ্রুনেন্দু’৷ বিয়ের আগেই সম্পর্কের বুনন শ্রুতি ও স্বর্ণেন্দুর নামের সন্ধিতে ৷

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published: