Home /News /entertainment /

Savita Bajaj : পাশে আয়ুষ্মান, জ্যাকি, সোনু, ‘নতুন জীবন’ পেয়ে হাসপাতাল থেকে মুক্তি অর্থকষ্টে পড়া অভিনেত্রীর

Savita Bajaj : পাশে আয়ুষ্মান, জ্যাকি, সোনু, ‘নতুন জীবন’ পেয়ে হাসপাতাল থেকে মুক্তি অর্থকষ্টে পড়া অভিনেত্রীর

আর্থিক সঙ্কটের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সবিতার পাশে দাঁড়ান পরবর্তী প্রজন্মের অভিনেতারা

আর্থিক সঙ্কটের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সবিতার পাশে দাঁড়ান পরবর্তী প্রজন্মের অভিনেতারা

হাসপাতাল থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরলেন সবিতা বজাজ (Savita Bajaj) ৷ গত বেশ কিছু দিন ধরে অসুস্থ ছিলেন বর্ষীয়ান এই অভিনেত্রী ৷

  • Share this:

    মুম্বই : হাসপাতাল থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরলেন সবিতা বজাজ (Savita Bajaj) ৷ গত বেশ কিছু দিন ধরে অসুস্থ ছিলেন বর্ষীয়ান এই অভিনেত্রী ৷ কপর্দকশূন্য এই অভিনেত্রীর হাতে চিকিৎসা চালানোর মতো অর্থও ছিল না ৷ সংবাদমাধ্যমে এই খবর প্রকাশিত হওয়ার পরই চাঞ্চল্য পড়ে যায় ৷ সাক্ষাৎকারে সরাসরি অর্থসাহায্য চান তিনি ৷ গত এপ্রিলে তিনি আক্রান্ত হন করোনাভাইরাসে ৷ ২২ দিন ভর্তি ছিলেন হাসপাতালে ৷ জুলাই মাসের মাঝামাঝি আবার তিনি হাসপাতালে ভর্তি হন ৷ জানান, জীবনধারণের জন্য কোনও অবলম্বনই তাঁর কাছে অবশিষ্ট নেই ৷

    সব প্রতিকূলতাকে জয় করে বাড়ি ফিরেছেন প্রবীণ অভিনেত্রী ৷ সিনে অ্যান্ড টিভি আর্টিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের তরফে নূপুর অলঙ্কার তাঁর দেখাশোনার দায়িত্ব নিয়েছেন ৷ অভিনেত্রী নূপুর জানিয়েছেন সবিতার পরিণতি তাঁর কাছে পীড়াদায়ক মনে হয়েছিল ৷ হাসপাতাল থেকে তিনি প্রবীণাকে নিয়ে গিয়েছেন বোনে জিজ্ঞাসার বাড়িতে ৷ ফিরতে দেননি তাঁর ভাড়া করা এক চিলতে ফ্ল্যাটে ৷ সবিতা প্রয়োজন এখন সেবা যত্ন আর ঘরে তৈরি খাবার, মনে করেন নূপুর ৷ তাই তাঁকে রেখেছেন নিজেদের কাছে ৷ তাছাড়া, বোনের বাড়ি হাসপাতালের কাছে ৷ যদি প্রয়োজন পড়ে, আবার সেখানে নিয়ে যেতে পারবেন সবিতাকে ৷ বিগত দিনের জনপ্রিয় এই অভিনেত্রী সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে গেলেই তাঁকে আবার তাঁর নিজের ফ্ল্যাটে পৌঁছে দেবেন, জানিয়েছেন নূপুর ৷ তাঁকে অকুণ্ঠ ধন্যবাদ জানিয়েছেন সবিতা ৷ তাঁকে ঈশ্বরপ্রেরিত দূত বলে বর্ণনা করেছেন ৷ বলেছেন, নূপুর তাঁকে দেখতে রোজ হাসপাতালে যেতেন ৷

    ন্যাশনাল স্কুল অব ড্রামা-র প্রাক্তনী সবিতা ৫০ টিরও বেশি ছবিতে অভিনয় করেছেন ৷ তাঁর অভিনীত ছবিগুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল ‘নিশান্ত’, ‘নজরানা’, ‘নদীয়া কে পার’ এবং ‘বেটা হো তো অ্যায়সা’৷ ‘নুক্কড়’, ‘মায়কা’, ‘কবচ’-সহ বেশ কিছু টেলিভিশন শো-এও কাজ করেছেন তিনি ৷

    ২৫ বছর আগে মুম্বই ছেড়ে তিনি চলে যান নিজের শহর, দিল্লিতে ৷ তবে বর্তমানে তিনি মুম্বইয়ের একটি এক কামরার ফ্ল্যাটে ভাড়া থাকেন ৷ রাইটার্স অ্যাসোসিয়েশন থেকে ৫ হাজার এবং সিনটা-র তরফে তাঁকে আড়াই হাজার টাকা সাহায্য করা হয় প্রতি মাসে ৷ ওইটুকুই সবিতার মাসের খরচ চালানোর অন্যতম সম্বল ছিল ৷

    আর্থিক সঙ্কটের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সবিতার পাশে দাঁড়ান পরবর্তী প্রজন্মের অভিনেতারা ৷ নূপুর জানিয়েছেন, বড় অঙ্কের অর্থ দান করেছেন আয়ুষ্মান খুরানা ৷ এছাড়াও সবিতাকে অর্থসাহায্য করেছেন জ্যাকি শ্রফ ৷ সোনু সুদ দিয়েছেন অক্সিজেন কনসেনট্রেটর ৷

    কিছুদিন আগেও বর্ষীয়ান অভিনেত্রীর আক্ষেপ ছিল, তাঁর পাশে দাঁড়ানোর মতো আজ কেউ নেই ৷ এক সময় প্রচুর উপার্জন করেছিলেন, যাঁদের প্রয়োজন, তাঁদের জন্য খরচও করেছিলেন ৷ কিন্তু আজ তাঁর দায়িত্ব নিতে কেউ এগিয়ে আসেননি বলে অভিযোগ সবিতার ৷ তাঁর সেই দুঃখ অনেকটাই প্রশমিত ৷ পরিজনরা না থাকলেও তাঁর পাশে আছেন পরবর্তী প্রজন্মের অভিনেতারা ৷ আপ্লুত অভিনেত্রী বলেছেন, ‘‘অলৌকিকভাবে নতুন জীবন পেলাম৷’’

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published:

    Tags: Savita Bajaj

    পরবর্তী খবর