মনখারাপ নিয়ে মুম্বই থেকে জঙ্গলে ফিরলেন মিলিন্দ সোমন

মিলিন্দ সোমন, ছবি-ইনস্টাগ্রাম

  • Share this:

    মুম্বই :  ইচ্ছে থাকা সত্ত্বেও দান করতে পারেননি প্লাজমা ৷ ফলে মন ভাল নেই মিলিন্দ সোমনের ৷ ইনস্টাগ্রামে সে কথা জানিয়েছেন এই অভিনেতা-মডেল ৷ মার্চে তিনি কোভিড আক্রান্ত হন ৷ তার পর থেকে কোনও এক পাহাড়ি জায়গায় দীর্ঘ নিভৃতবাসে ছিলেন তিনি ৷ সম্প্রতি মুম্বই এসেছিলেন ঝটিতি সফরে ৷ উদ্দেশ্য ছিল, কোভিড রোগীদের চিকিৎসার জন্য প্লাজমা দান ৷ কিন্তু তাঁর সেই ইচ্ছে পূর্ণ হয়নি ৷ কারণ মিলিন্দ জানিয়েছেন, তাঁর দেহে প্রয়োজনীয় অ্যান্টবডি না থাকায় প্লাজমা দান করতে পারেননি তিনি ৷

    ইনস্টাগ্রামে মিলিন্দ লিখেছেন, ‘‘ জঙ্গলে প্রত্যাবর্তন ৷ প্লাজমা দান করার জন্য মুম্বই গিয়েছিলাম ৷ কিন্তু দান করার জন্য প্রয়োজনীয় অ্যান্টিবডি নেই ৷ যদিও প্লাজমা থেরাপির কার্যকারিতা এখনও অবধি ১০০ শতাংশ প্রমাণিত নয় ৷ তবুও চিকিৎসকদের মতামত বলছে, এই থেরাপি সাহায্য করতে পারে ৷ তাই আমার মনে হয়, যে টুকু অমরা করতে পারি, সে টুকু অবশ্যই আমাদের করা উচিত ৷ ’’

    প্লাজমা দানের ক্ষেত্রে অ্যান্টিবডির স্বল্পতা যে অন্তরায়, সে বিষয়েও বলেছেন মিলিন্দ ৷ লিখেছেন, ‘‘শরীরে অ্যান্টিবডি কম থাকে সাধারণত সংক্রমণ কম হলে ৷ অর্থাৎ, আমি অন্য সংক্রমণকে যুঝতে পারি৷ কিন্তু অন্য মানুষকে সাহায্য করতে পারি না ৷ মন ভাল নেই৷’’

    গত মাসেই প্লাজমা দান করার ইচ্ছে প্রকাশ করেছিলেন মিলিন্দ ৷বলেছিলেন তিনি সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৷ তাঁর ইচ্ছে, কোভিড আক্রান্তদের সুস্থতার জন্য ব্লাড প্লাজমা দান করার ৷ তাঁর আশা ছিল, পরবর্তী ১০ দিনের মধ্যেই তিনি প্লাজমা দান করতে পারবেন ৷ কিন্তু সেই আশা পূ্র্ণ হল না ৷

    কোভিড আক্রান্ত থাকার সময় মিলিন্দ নিয়মিত তাঁর সুস্থ হয়ে ওঠার খবর দিতেন অনুরাগীদের ৷ নিভৃতবাসে তাঁর সঙ্গী হয়েছেন স্ত্রী অঙ্কিতাও ৷ কিন্তু তাঁরা সামাজিক দূরত্ববিধি পালন করেছেন কঠোরভাবে ৷ মিলিন্দ সোমন করোনা নেগেটিভ হওয়ার পর তাঁর উদযাপনও অভিনব ৷ অঙ্কিতার সঙ্গে দৌড়ে তিনি করোনামুক্তি উদযাপন করেছেন ৷

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published: