• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • DILIP KUMAR HAD RECOMMENDED YASHPAL SHARMA TO BCCI WHO PLAYED WINNING KNOCK IN 1983 WORLD CUP SEMIFINAL DD

দিলীপ কুমার তাঁর নাম প্রস্তাব করেছিলেন, আর তিনিই বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে সেরা রান স্কোরার!

dilip kumar had recommended yashpal sharma to bcci who played winning knock in 1983 world cup semifinal

দিলীপ কুমার ক্রিকেটারের জাতও চিনতেন এক নজরেই, সেই প্রমাণ আজও রয়েছে৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: দিলীপ কুমার (Dilip Kumar) বুধবার মারা গেলেন৷ ৯৮ বছর বয়সের অভিনেতা এদিন শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন৷ তাঁর প্রয়াণে সবমহলে গভীর শোকের ছায়া৷ তাঁর সুদক্ষ অভিনয় ক্ষমতা নিয়ে সকলে তাঁকে কুর্নিশ করেন৷ কিন্তু খুব কম লোকেই জানেন তিনি ক্রিকেটের জহুরি ছিলেন৷ ১৯৮৩ বিশ্বকাপের কিছু বছর আগে তিনি এক ক্রিকেটারের জন্য ভারতীয় দলে তাঁর নাম প্রস্তাব করেছিলেন৷ সেই ক্রিকেটার বিশ্বকাপের মঞ্চে ম্যাচ উইনিং ইনিংস খেলে তাঁর দাম দিয়েছিলেন৷ তাঁর দুটি বড় ইনিংস ৮৯ ও ৬১ রানের৷ তাঁর ৬১ রানের ইনিংসের সৌজন্যেই ভারত সেমিফাইনাল থেকে ফাইনালের টিকিট নিশ্চিত করতে পেরেছিলেন৷

    ভারতের তারকা ক্রিকেটার যশপাল শর্মা (Yashpal Sharma) -র কথা বলা হচ্ছে৷ যিনি ১৯৮৩ -র সেমিফাইনালে দলকে বড় পারফরম্যান্স দিয়ে এগোতে সাহায্য করেছিলেন৷ দিলীপ কুমার তাঁর নাম প্রস্তাব করেছিলেন এই কথা বলতে গিয়ে যশপাল শর্মা বলেছিলেন , ‘‘আপনারা দিলীপ সাহাব কহতে হ্যায়, আমি ইউসুফ ভাই (Yusuf Khan) বলি৷ ওনার একটা গল্প আছে , তাহলে ক্রিকেটে কেউ যদি তাঁর জীবন তৈরি করে থাকেন তাহলে তিনি ইউসুফ ভাই৷ ’’

    যশপাল শর্মা দিলীপ কুমার  নিজের এই আবেগপ্রবণ জীবনের উপাখ্যান ২ বছর আগে দ্য কপিল শর্মা শো-তে বলেছিলেন৷ তিনি বলেছিলেন, ‘‘আমি তখন রণজি প্লেয়ার ছিলাম৷ একটি কোম্পানি  মাঠে নকআউট ম্যাচ চলছিল৷যেখানের চেয়ারম্যান দিলীপ কুমার ছিলেন৷ ততক্ষণে আমি শতরান করে ফেলেছিলাম৷ দ্বিতীয় ইনিংসের ৮০-র কাছাকাছি রানে ব্যাট করছিলাম৷ তখনই কিছু গাড়ি আসে৷ আমার মনে হয়েছিল স্থানীয় কোনও নেতা হবেন৷ তাঁরা কিছু জিজ্ঞাসাও করেন৷ এগুলো আমি পরে জানতে পেরেছিলাম৷ আমি শতরান করেছিলাম, উনি হাততালি দেন৷ আমার মনে হয়েছিল উনি চলে গেছেন৷ কিন্তু ম্যাচ শেষে স্টেডিয়ামের পদাধিকারীরা জানান তাঁকে ভিতরে যেতে হবে৷ তাঁকে বলা হয় কেউ তাঁর সঙ্গে দেখা করতে চান৷ আমি যখন অফিসে যাই তখন দেখলাম ইউসুফ ভাই দাঁড়িয়ে ছিলেন৷ তিনি যখন আমার সঙ্গে হাত মেলান তিনি বলেছিলেন, আমার মনে হয় তোমার মধ্যে দম রয়েছে৷ আমি তোমার জন্য কারোর সঙ্গে কথা বলব৷ ’’

    শুধু কথা বলেই তিনি ক্ষান্ত হননি ৷ যশপাল শর্মা-র খেলার প্রশংসা করেন রাজসিং দুঙ্গারপুরের সঙ্গে৷ সেখানেই তিনি যশপালকে দলে নেওয়ার জন্য নাম প্রস্তাব করেন৷ এরপর রাজ সিং দুঙ্গারপুর বিসিসিআই পদাধিকারীদের সঙ্গে তাঁকে দলে নেওয়ার বিষয়ে কথা বলেন৷

    এরপর ১৯৮০ সালে ভারতের হয়ে দলে সামিল হন৷ তারমধ্যে সেমিফাইনালে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ৬১ রানের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ উইনিং ইনিংস খেলেন৷ ভারত এই ম্যাচে ৬ উইকেটে ইংল্যান্ডকে হারায়৷ তাঁর স্কোরই সেদিন ভারতীয় দলের হয়ে সর্বোচ্চ রান ছিল৷

    Published by:Debalina Datta
    First published: