ঈশান খট্টরকে ছবিতে নেবেন না করণ জোহর, বন্দুক যদিও রাখা হল দীপিকার কাঁধে!

সিনেমায় একটা সময়ে দীপিকার বিপরীতে ঈশানকে কাজ করতে হত, এটি একটি বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্কের জটিল গল্প।

সিনেমায় একটা সময়ে দীপিকার বিপরীতে ঈশানকে কাজ করতে হত, এটি একটি বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্কের জটিল গল্প।

  • Share this:

#মুম্বই: শকুন বাত্রা (Shakun Batra) নতুন ছবির প্রোজেক্ট ঘোষণা করেছেন। এটি একটি ঘরোয়া ড্রামা। ছবিতে মুখ্য চরিত্রে দেখা যাবে দীপিকা পাড়ুকোন (Deepika Padukone), সিদ্ধান্ত চতুর্বেদী (Siddhant Chaturvedi) এবং অনন্যা পান্ডের (Ananya Panday) মতো অভিনেতাদের, তবে ছবির নির্মাতারা অনন্যার বিপরীতে কাকে কাস্ট করবেন তা নিয়ে বেশ কিছু দিন ধরে বিবেচনা করেন। শেষে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় ধৈর্য কারওয়া-র (Dhairya Karwa) নাম। এই চরিত্রটির জন্য অনেকের নাম লিস্টে ছিল। তাঁদের মধ্যে বুলবুল-এর (Bulbbul) অভিনেতা অবিনাশ তিওয়ারির (Avinash Tiwary) নামও ছিল। তবে শেষমেশ ধৈর্যকেই বেছে নেওয়া হয়েছে এই চরিত্রের জন্য। অনেকেই হয় তো জানেন না, অনন্যা ও ঈশান খট্টরের (Ishaan Khatter) সম্পর্ক নিয়ে বলি পাড়ার ফিসফিস চলছে। সূত্রের খবর অনন্যার বর্তমান বয়ফ্রেণ্ড ঈশান। ফলে ঈশানও চেয়েছিলেন তাঁর ভালোবাসার মানুষের বিপরীতে এই ছবিতে কাজ করতে, কিন্তু শেষ পর্যন্ত তা হয়নি। নতুন এই সিনেমার এই চরিত্রটির জন্য নির্মাতারা একটি তরুণ মুখ খুঁজছিলেন যেটা ধৈর্য কারওয়ার মধ্যে তারা খুঁজে পেয়েছেন।

একটি সূত্রের খবর, সিনেমায় একটা সময়ে দীপিকার বিপরীতে ঈশানকে কাজ করতে হত, এটি একটি বিবাহ-বহির্ভূত সম্পর্কের জটিল গল্প। দীপিকার সঙ্গে ঘনিষ্ঠ মুহূর্তে ঈশানকে একদম মানাচ্ছিল না। এছাড়াও দীপিকার বিপরীতে ঈশানকে অল্প বয়স্ক দেখাচ্ছিল। সেই জায়গায় ধৈর্যর উপস্থিতি মানিয়েছে বলেই নির্মাতাদের দাবি। তাই নির্মাতারা ধৈর্যকেই বেছে নিয়েছেন। করণ জোহরের (Karan Johar) ধর্মা প্রোডাকশনের সঙ্গে ঈশানের সম্পর্ক খুব একটা ভালো নয়। এটাও হতে পারে একটা কারণ। অনেকেই মনে করছেন এই ছবিতে দীপিকা একজন সেলিব্রিটি ফিটনেস ইনস্ট্রাক্টরের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। তবে ধর্ম প্রোডাকশনের টিম এবং ছবির লেখক সে কথা অস্বীকার করেছেন। তবে এটা মেনে নিয়েছেন, যে দীপিকা একজন ফিটনেস ইনস্ট্রাক্টরের চরিত্রে এই ছবিতে থাকছেন।

ইরানি পরিচালক মাজিদ মাজিদির (Majid Majidi) প্রথম ভারতীয় ছবি ‘বিয়ন্ড দ্য ক্লাউডস’ (Beyond The Clouds) ঈশানের প্রথম ছবি। তবে বক্স অফিসে তেমন সাফল্য পায়নি। ‘ধড়ক’(Dhadaak) অবশ্য বাণিজ্যিক সাফল্য পেয়েছিল। কিন্তু তার পর থেকে বহু প্রোজেক্টের কথা চললেও কোনও টাই ঠিক মতো দাঁড়ায়নি ঈশানের ক্ষেত্রে। সুতরাং ঈশানের কেরিয়ার এখন বেশ নড়বড়ে, সেটা আন্দাজ করছেন অনেকে।

Published by:Simli Raha
First published: