'সারার হাত থেকে সাবধান', কুলি নম্বর ওয়ান-এর শুটিং শুরুর আগে বরুণ ধাওয়ানকে সতর্ক করেছিলেন আয়ুষ্মান খুরানা, কার্তিক আরিয়ান

'সারার হাত থেকে সাবধান', কুলি নম্বর ওয়ান-এর শুটিং শুরুর আগে বরুণ ধাওয়ানকে সতর্ক করেছিলেন আয়ুষ্মান খুরানা, কার্তিক আরিয়ান

'সারার হাত থেকে সাবধান', কেন এরকম বলা হয়েছিল বরুণ ধাওয়ানকে?

'সারার হাত থেকে সাবধান', কেন এরকম বলা হয়েছিল বরুণ ধাওয়ানকে?

  • Share this:

#মুম্বই: প্রথমবার বরুণ ধাওয়ান (Varun Dhawan) আর সারা আলি খান (Sara Ali Khan) একসঙ্গে কাজ করলেন কুলি নম্বর ১-এর (Coolie No 1) রিমেকে। করোনাকালে তাঁরা এই মুহূর্তে জমিয়ে তাঁদের ছবির প্রচার করছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। মাঝে মধ্যে দুএকটা শোয়েও উপস্থিত হচ্ছেন নিজেদের ছবি নিয়ে।

কিছু দিন আগেই সারা আর বরুণ এসেছিলেন কপিল শর্মার কমেডি শোয়ে। প্রোমো ভিডিওতে দেখা গেল এক মজাদার দৃশ্য। বরুণ দর্শকদের বলেছেন- যখন জানা গেল যে ছবিতে তাঁর বিপরীতে রয়েছেন সারা, তখন ইন্ডাস্ট্রিতে তাঁর সহ-অভিনেতারা অনেকেই তাঁকে মেসেজ করেন। কারা মেসেজ করেছিলেন, এটা জানার জন্য স্বাভাবিকভাবেই সবাই কৌতূহলী হয়ে পড়েন। বরুণ জানান, তাঁকে মেসেজ করেছিলেন আয়ুষ্মান খুরানা (Ayushman Khurana), কার্তিক আরিয়ান (Kartik Aaryan) ও ভিকি কৌশল (Vicky Kaushal)। সারা এটা শুনে যথেষ্ট বিস্মিত হয়ে জানতে চান, তাঁরা তাঁকে কী বলেছিলেন? উত্তরে বরুণ জানান, সকলেই বলেছিলেন 'বাঁচকে রহেনা' অর্থাৎ সারার থেকে নিজেকে বাঁচিয়ে রাখতে!

১৯৯৫ সালের হিট ছবি ছিল কুলি নম্বর ১। মূল ছবিতে ছিলেন গোবিন্দা (Govinda) ও করিশ্মা কাপুর (Karishma Kapoor)। ছবিটি পরিচালনা করেছিলেন বরুণের বাবা পরিচালক ডেভিড ধাওয়ান (David Dhawan)। এতদিন পরে সেই ছবিরই নতুন ভার্সনে দেখা যাবে সারা আর বরুণকে। ক্রিসমাসের দিন একটি ওটিটি প্ল্যাটফর্মে মুক্তি পাবে এই ছবিটি।

পুরনো ছবির অনেক গান এই নতুন ছবিটিতেও ব্যবহার করা হয়েছে। এর পিছনে রয়েছে একটি বিশেষ কারণ। সেই বিষয়ে খোলসা করে বললেন ছবির পরিচালক ডেভিড ধাওয়ান। তিনি বলেন, মূল ছবির গান অত্যন্ত জনপ্রিয় হয়েছিল। আর এই গানগুলো এখনও সবাই শোনে। তা ছাড়া এই গানগুলো ছবির গল্পের সঙ্গে এমনভাবে জড়িয়েছিল যে গানের মাধ্যমেই গল্প এগিয়ে গিয়েছে। ডেভিড এটাও বলেন, তিনি অনেক আগে থেকেই মনে মনে ভেবে রেখেছিলেন, যদি কোনও দিন তিনি এই ছবির রিমেক করেন তা হলে মূল ছবির গানগুলো এখানে রাখবেন। প্রথম ছবিতে গানগুলোতে সুর দিয়েছিলেন আনন্দ-মিলিন্দ এবং গানের কথা লিখেছিলেন সমীর। এঁদের দু'জনের সঙ্গেই গভীর বন্ধুত্ব আছে ডেভিডের। তাই গানগুলো আবার ব্যবহার করে তিনি তাঁর বন্ধুদের ঋণ শোধ করেছেন।

বরুণ আর সারা ছাড়াও এই ছবিতে আছেন পরেশ রাওয়াল (Paresh Rawal), জাভেদ জাফরি (Javed Jaffrey) প্রমুখ।

Published by:Rukmini Mazumder
First published:

লেটেস্ট খবর